ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ০২ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

নির্বাচন ও ইসি

নৌকার প্রার্থী ছোট ভাই, বড় ভাই স্বতন্ত্র

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯৩৫ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৮, ২০২১
নৌকার প্রার্থী ছোট ভাই, বড় ভাই স্বতন্ত্র কামরুজ্জামান কামু (বাঁয়ে) ও শেখ কামাল

পঞ্চগড়: আগামী ১১ নভেম্বর দ্বিতীয় ধাপে অনুষ্ঠেয় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে (ইউপি) পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়া উপজেলায় একই ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে লড়াই করছেন আপন দুই ভাই।  

তবে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ছোট ভাই শেখ কামাল আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেলেও বড় ভাই কামরুজ্জামান কামু লড়ছেন স্বতন্ত্রভাবে।

তেঁতুলিয়া উপজেলার সাতটি ইউনিয়নে আগামী ১১ নভেম্বর নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। আপন দুই ভাইয়ের ভোটযুদ্ধ নিয়ে এলাকাবাসীর মধ্যে কৌতূহলের সৃষ্টি হয়েছে। এদিকে সেই দুই ভাই-ই নির্বাচনে জয়লাভের ব্যাপারে অনেকটা আশাবাদী।

জানা গেছে, বড় ভাই কামরুজ্জামান কামু বুড়াবুড়ি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচিত সাবেক চেয়ারম্যান। বর্তমানে আওয়ামী লীগের কোনো পদ না পেলেও দলকে সমর্থন করেন। এদিকে নৌকার প্রার্থী ছোট ভাই শেখ কামাল উপজেলা আওয়ামী লীগের কোষাধ্যক্ষ ও বুড়াবুড়ি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সদস্য।

বুড়াবুড়ি ইউনিয়ন ঘুরে বেশ কয়েকজন ভোটারের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, ভাই-ভাইয়ের লড়াই ভোটারদের মধ্যে ব্যাপকভাবে সাড়া ফেলেছে। দুই ভাইয়ের কার্যক্রম নিয়েও আলোচনা-সমালোচনার কমতি নেই ভোটারদের মধ্যে। শুধু দলীয় বিবেচনায় নয়, ব্যক্তি পরিচয়ে প্রার্থীই ভোট পাবেন বলে তারা জানান।  

আরো জানা গেছে, দুই ভাইয়ের মধ্যে পারিবারিক কোন্দল চলছে। ফলে কেউই কাউকে ছাড় দেননি। একই পরিবার থেকে দুই ভাই প্রতিদ্বন্দ্বিতা করায় বিপাকে পড়েছেন পরিবারের লোকজন, আত্মীয়-স্বজনসহ পাড়া-প্রতিবেশীরা।

বড় ভাই কামরুজ্জামান কামুর বাংলানিউজকে বলেন, গত রোববার (১৭ অক্টোবর) চেয়ারম্যান পদে স্বতন্ত্রভাবে মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছি। স্থানীয়দের ভালোবাসায় এবারো ভোটের মাঠে নেমেছি। গত ২০১১ সাল থেকে ২০১৬ সাল পর্যন্ত বুড়াবুড়ি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচিত চেয়ারম্যান ছিলাম। গতবারও চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনে অংশ নিয়েছিলাম। মাত্র ৬৩ ভোটে পরাজিত হই। আমি এলাকার মানুষের সুখে-দুঃখে পাশে ছিলাম। দীর্ঘদিন ধরে মাঠে কাজ করে যাচ্ছি।

অপরদিকে আওয়ামী লীগ মনোনিত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী শেখ কামাল বাংলানিউজকে বলেন, দলীয়ভাবে আমাকে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে। সব পরিবারে কোন্দলের থাকতেই পারে। আগামী ২৬ অক্টোবরের আগ পর্যন্ত কিছু বলা যাচ্ছে না। বড় ভাই সাবেক চেয়ারম্যান হিসেবে ভোটে আসতে পারেন, আর আমি আওয়ামী লীগ করায় দলীয় মনোনয় পেয়েছি।

এদিকে তেঁতুলিয়া উপজেলা নির্বাচন অফিসার ও রিটার্নিং কর্মকর্তা আলী হোসেন বাংলানিউজকে বলেন, বুড়াবুড়ি ইউনিয়নে দুই ভাই আওয়ামী লীগের প্রার্থী শেখ কামাল ও বড় ভাই স্বতন্ত্র প্রার্থী কামরুজ্জামান কামুসহ ছাড়াও আটজন প্রার্থী চেয়ারম্যান পদে লড়ছেন। এখানে মোট ভোটার ৯১২৬ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ৪৬০০ এবং নারী ভোটার ৪৫২৬ জন।  

নির্বাচন কমিশন (ইসি) সূত্রে জানা গেছে, দ্বিতীয় ধাপের ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী জেলার তেতুঁলিয়া উপজেলার সাত ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে মনোনয়নপত্র জমাদানের শেষ তারিখ ছিল ১৭ অক্টোবর, মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই ২০ অক্টোবর, বাছাইয়ের বিরুদ্ধে আপিল দায়ের ২১ থেকে ২৩ অক্টোবর, আপিলের নিষ্পত্তি ২৪ ও ২৫ অক্টোবর, প্রার্থিতা প্রত্যাহার ২৬ অক্টোবর, প্রতীক বরাদ্দ ২৭ অক্টোবর এবং ১১ নভেম্বর ব্যালট পেপারের মাধ্যেমে ভোট হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৯২৯ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৮, ২০২১
এসআই
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa