ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৬ মাঘ ১৪২৭, ২১ জানুয়ারি ২০২১, ০৭ জমাদিউস সানি ১৪৪২

নির্বাচন ও ইসি

সৈয়দপুর পৌরসভা নির্বাচনে হবে ত্রিমুখী লড়াই

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৮৩৪ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১০, ২০২১
সৈয়দপুর পৌরসভা নির্বাচনে হবে ত্রিমুখী লড়াই ...

নীলফামারী: মাঠে নেই বিএনপি। এ সুযোগে প্রচারণায় এগিয়ে চলেছেন লাঙ্গল প্রতীকের প্রার্থী শিল্পপতি সিদ্দিকুল আলম।

প্রথমবারের মতো নীলফামারীর সৈয়দপুর পৌরসভায় আওয়ামী লীগের প্রার্থী হয়েছেন প্রয়াত শ্রমিক নেতা ও সাবেক মেয়র আখতার হোসেন বাদলের সহ-ধর্মিনী রাফিকা আকতার জাহান বেবী।  

আগামী শনিবার (১৬ জানুয়ারি) সৈয়দপুর পৌরসভা নির্বাচন। প্রায় ৪০ বর্গকিলোমিটারের এ পৌরসভায় রয়েছে ১৫টি ওয়ার্ড। আর ভোটার সংখ্যা হাজার ৯৩ হাজার ৮৫৮। সৈয়দপুর পৌরসভার মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করছেন পাঁচজন প্রার্থী। আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীক নিয়ে লড়ছেন রাফিকা আকতার জাহান বেবী। সম্প্রতি তার স্বামী সাবেক মেয়র আখতার হোসেন বাদলের মৃত্যু হলে কেন্দ্র থেকে তাকেই মনোনয়ন দেওয়া হয়।  

বিএনপি থেকে এবার মনোনয়ন দেওয়া হয়নি চারবারের নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও বর্তমান মেয়র আমজাদ হোসেন সরকারকে। সে স্থলে মনোনয়ন দেওয়া হয়েছিল সাবেক উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট এসএম ওবায়দুর রহমানকে। কিন্তু অসুস্থতার কথা বলে তিনি নির্বাচন থেকে সড়ে দাঁড়ান। ফলে বিএনপির প্রার্থী নেই সৈয়দপুরে। আছে বিদ্রোহী প্রার্থী। আর ওই বিদ্রোহীর পক্ষেই প্রচারণায় যুক্ত হয়েছেন দলের নেতাকর্মীরা। বিএনপির বিদ্রোহী মেয়র পদপ্রার্থী আমজাদ হোসেন সরকার। তার প্রতীক হলো নারিকেল গাছ। দলের নেতাকর্মীরা বলছেন, ধানের শীষ নেইতো কি হয়েছে? নারিকেল গাছই আমাদের প্রতীক।

মেয়র আমজাদ হোসেন সরকার অসুস্থ হয়ে ঢাকার একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। তার পক্ষে প্রচারণায় অংশ নিচ্ছেন বিএনপি ও অঙ্গ দলগুলো। এ নিয়ে কথা হয় সৈয়দপুর রাজনৈতিক জেলা বিএনপির আহ্বায়ক অধ্যক্ষ আবদুল গফুর সরকারের সঙ্গে। তিনি বাংলানিউজকে বলেন, আমরা ঐক্যবদ্ধ। ব্যাপক প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছি। মেয়র আমজাদ পুনরায় নির্বাচিত হবেন ইনশাআল্লাহ।

ধানের শীষ নেই। এ সুযোগ কাজে লাগাচ্ছেন জাতীয় পার্টির প্রার্থী শিল্পপতি সিদ্দিকুল আলম। তার নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নিচ্ছেন তারুণ্যদীপ্ত একদল তরুণ। সিদ্দিকুল আলমের অভিযোগ অতীতের মেয়ররা গুরুত্বপূর্ণ সৈয়দপুর পৌরসভার উন্নয়নে তেমন কিছুই করেননি। ফলে শহরের যানজট, জলাবদ্ধতা, নাগরিক সুবিধা কিছুই নেই। অথচ প্রথম শ্রেণির এ পৌরসভাকে দারুণভাবে সাজানো যায়। নির্বাচিত হলে আমি সৈয়দপুরকে সিঙ্গাপুরে পরিণত করবো।
এদিকে আওয়ামী লীগের প্রার্থী রাফিয়া আকতার জাহানের সঙ্গে প্রচারণায় অংশ নিচ্ছেন নীলফামারীর পৌরসভার মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি দেওয়ান কামাল আহমেদ। তিনি বাংলানিউজকে বলেন, নৌকার জয় কেউ ঠেকিয়ে রাখতে পারবে না। আমরা আশাবাদী।  

এসব নিয়ে সিনিয়র রাজনীতিবিদ সৈয়দপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ আফসার হোসেন মিয়ার সঙ্গে কথা বললে তিনি জানান, যে যাই বলুক সৈয়দপুরের ভোটে হবে ত্রিমুখী লড়াই। নির্বাচন জমে ওঠেছে এটাই বড় কথা।

নির্বাচন কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, ১৫টি ওয়ার্ডের মধ্যে একটি ওয়ার্ডে কাউন্সিলর প্রার্থীর মৃত্যু হওয়ায় ভোটগ্রহণ স্থগিত করা হয়েছে। বাদবাকি ১৪টি ওয়ার্ডে ৮১ জন সাধারণ কাউন্সিলর পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। পাঁচটি সংরক্ষিত আসনে ২১ জন নারী প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে।

বাংলাদেশ সময়: ০৮৩০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১০, ২০২১
এনটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad
Alexa