ঢাকা, বুধবার, ২৮ শ্রাবণ ১৪২৭, ১২ আগস্ট ২০২০, ২১ জিলহজ ১৪৪১

শিক্ষা

অনলাইন শিক্ষায় সেরা দশে নর্থ ওয়েস্টার্ন ইউনিভার্সিটি

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯২৪ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০২০
অনলাইন শিক্ষায় সেরা দশে নর্থ ওয়েস্টার্ন ইউনিভার্সিটি

খুলনা: বিশ্বব্যাপী করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে দেশের সবস্তরের শিক্ষা কার্যক্রম ব্যাহত হচ্ছে। আন্তঃমন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্ত মোতাবেক গত ১৮ মার্চ থেকে দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করা হয়। এতে লেখাপড়ায় পিছিয়ে পড়ছে শিক্ষার্থীরা।

শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ার ক্ষতি ও সেশনজটের কথা বিবেচনায় এনে খুলনাস্থ প্রথম পূর্ণাঙ্গ বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় নর্থ ওয়েস্টার্ন ইউনিভার্সিটি কর্তৃপক্ষ অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রম অব্যাহত রেখেছে। এ কার্যক্রমে সেরা দশে স্থান করে নিয়েছে নর্থ ওয়েস্টার্ন ইউনিভার্সিটি।

বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ে অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রমের তালিকায় শীর্ষ ১০ বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে সাতটিই বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়। বাকি তিনটির মধ্যে একটি সাধারণ ও বাকি দু’টি প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়।

বর্তমানে বাংলাদেশ গবেষণা ও শিক্ষা নেটওয়ার্কের (বিডিরেন) সর্বশেষ তথ্য মতে, বিডিরেনের ডেটা সেন্টারের জুম অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে গত সোমবার (৬ জুলাই) পর্যন্ত দেশের ১৪২টি পাবলিক ও প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যায়ের ৫০ লাখ ৮ হাজার ৯৯৭ জন শিক্ষার্থী অনলাইন ক্লাসে অংশ নিয়েছেন।

এ তালিকার শীর্ষে রয়েছে বিজিএমইএ ইউনিভার্সিটি অব ফ্যাশন অ্যান্ড টেকনোলজি।

দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে গ্রিন ইউনিভার্সিটি। শীর্ষ তিনে অবস্থান করছে আন্তর্জাতিক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম। যৌথভাবে ১০ম স্থানে রয়েছে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) ও নর্থ ওয়েস্টার্ন ইউনিভার্সিটি।

এ প্রসঙ্গে নর্থ ওয়েস্টার্ন ইউনিভার্সিটির উপাচার্য প্রফেসর ড. তারাপদ ভৌমিক বলেন, করোনার প্রভাবে সরকার দেশের সব বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা করেছে। এতে শিক্ষার্থীরা লেখাপড়ায় অনেকটা পিছিয়ে পড়েছে। শিক্ষার্থীরা যাতে লেখাপড়ায় পিছিয়ে না পড়ে এবং সেশনজটের কবলে না পড়ে বিষয়টি বিবেচনায় এনে ইউজিসি একটি সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে। ইউজিসি প্রদত্ত নির্দেশনা মোতাবেক আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন ফ্যাকাল্টির ডিন, বিভাগীয় প্রধান ও সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রমে ১০ স্থান অর্জন বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য এক বড় ধরনের পাওয়া। এতে শিক্ষার্থীরাও সুফল পাচ্ছে। শিক্ষার্থীদের জন্য আমাদের এ পরিষেবা চলমান থাকবে।

এর আগে গত ৭ মে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) বন্ধকালীন অনলাইনে একাডেমিক কার্যক্রম চালানোর আহ্বান জানিয়ে দেশের সব পাবলিক ও প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য নির্দেশনা জারি করে চিঠি প্রদান করে। নির্দেশনায় বলা হয়, বিডিরেনের ডেটা সেন্টারের জুম অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে বিনা খরচে এ অনলাইন কার্যক্রম চালানো সম্ভব। এ বিষয়ে সহযোগিতার জন্য শিক্ষকদের বিডিরেনের সঙ্গে যোগাযোগের আহ্বান জানানো হয়। ইউজিসি'র ওই নির্দেশনায় সাড়া দিয়ে এখন পর্যন্ত দেশের ১৪২টি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরা অনলাইন কার্যক্রম শুরু করেছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৯২১ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০২০
এমআরএম/আরবি/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa