bangla news

যশোর বোর্ডে এসএসসিতে ১২৩ পরীক্ষার্থীর ফল পরিবর্তন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০৬-৩০ ৬:১৫:২৪ পিএম
.

.

যশোর: যশোর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ডের অধীনে অনুষ্ঠিত এসএসসি পরীক্ষা-২০২০ উত্তরপত্র পুর্ননিরীক্ষায় ১২৩ পরীক্ষার্থীর ফল পরিবর্তন হয়েছে। এর মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৫১ পরীক্ষার্থী। আর অকৃতকার্য থেকে কৃতকার্য হয়েছে ৪৬ জন পরীক্ষার্থী। একেবারেই অকৃতকার্য থেকে জিপিএ-৫ পেয়েছে দুই পরীক্ষার্থী। বাকিদের পরিবর্তন হয়েছে বিভিন্ন গ্রেড।

মঙ্গলবার (৩০ জুন) দুপুরে যশোর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ড থেকে প্রকাশিত ফল বিশ্লেষণ করে এ তথ্য পাওয়া গেছে। 

বোর্ডসূত্রে জানা গেছে, ২০২০ সালে এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীদের ফল গত ৩১ মে প্রকাশিত হয়। প্রকাশিত ফলে আপত্তি ও প্রত্যাশা পূরণ না হওয়ায় ফল চ্যালেঞ্জ করেছিলো ৩৪ হাজার ২৮৪ জন পরীক্ষার্থী। এতে ১২৩ জনের ফল পরিবর্তন এসেছে। তাদের মধ্যে অকৃতকার্য করা ৪৬ পরীক্ষার্থী পুননিরীক্ষায় বিভিন্ন গ্রেড পয়েন্ট পেয়ে কৃতকার্য হয়েছে। এর বাইরে অকৃতকার্য থেকে জিপিএ-৫ পেয়েছে দু’জন। এ গ্রেড থেকে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৪৩ জন, এ মাইনাস থেকে জিপিএ-৫ পেয়েছে চার জন। বি গ্রেড থেকে জিপিএ ৫ পেয়েছে দু’জন। এছাড়া বাকিদের বিভিন্ন গ্রেডে ফলাফল পরিবর্তন হয়েছে।

এ বিষয়ে পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মাধব চন্দ্র রুন্দ্র বাংলানিউজকে বলেন, পরীক্ষার উত্তরপত্রে নম্বর যোগফল গণনার কারণে পুর্ননিরীক্ষার রেজাল্টে পরিবর্তন আসে। ৩৪ হাজার ২৮৪ জন পরীক্ষার্থী উত্তরপত্র নতুন করে পরীক্ষক নির্ধারণ করে মূল্যায়ন করা হয়। এতে ১২৩ জনের ফল পরিবর্তন হয়েছে। 

ফেল করা শিক্ষার্থীরা পুননিরীক্ষায় জিপিএ-৫ পাওয়ায় পরীক্ষকদের দক্ষতার বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, অভিজ্ঞ পরীক্ষক দিয়ে খাতা পুননিরীক্ষা করা হচ্ছে। যার মধ্যেও কিছু খাতায় অইচ্ছাকৃত বা গণনায় কারণে ভুল হয়। নিয়ম অনুয়ায়ী যে প্রাপ্য ফল সেটাই দেওয়া হয়েছে। আর খাতা দেখায় ভুল করা পরীক্ষকদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৮১৫ ঘণ্টা, জুন ৩০, ২০২০
ইউজি/আরআইএস/

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-06-30 18:15:24