bangla news

শিক্ষার্থীর মানসিক বিকাশে স্কুল-কলেজে কাউন্সিলর দেবে সরকার

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০১-১৬ ৯:১৩:১১ পিএম
সভায় শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনিসহ অতিথিরা, ছবি: বাংলানিউজ

সভায় শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনিসহ অতিথিরা, ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা: শিক্ষার্থীদের মানসিক স্বাস্থ্যের বিষয় মাথায় রেখে সরকার প্রতিটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে কাউন্সিলর নিয়োগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

বৃহস্পতিবার (১৬ জানুয়ারি) রাজধানীর আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে বাংলাদেশ এডুকেশন রিপোর্টার্স ফোরাম (বিইআরএফ) আয়োজিত ‘শিক্ষার পরিবেশ ও শিক্ষার্থীর সার্বিক নিরাপত্তা’ শীর্ষক মতবিনিময় সভায় এ তথ্য জানান তিনি।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, প্রথমে প্রতিটি জেলায়, এরপর সম্ভব হলে প্রতিটি উপজেলায় একজন পুরুষ ও একজন নারী কাউন্সিলর নিয়োগ দেওয়া হবে।

একইসঙ্গে শিক্ষার্থীদের কাউন্সিলিংয়ের জন্য স্কুল-কলেজের শিক্ষকদেরও প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী।

তিনি বলেন, শিক্ষার্থীরা নানা বিষয়ে ট্রমার মধ্যে থাকে। পড়াশোনার চাপ, ভালো ফলাফলের চাপের সঙ্গে শিক্ষার্থীরা নানা রকম সহিংসতা দেখে। এসব বিষয়ে শিশু-কিশোরদের মধ্যে ট্রমা তৈরি হয়। যদি আমরা যথাযথভাবে তা অ্যাড্রেস করতে না পারি, তাহলে বড় সমস্যা দেখা দেয়। তাই প্রধানমন্ত্রী বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্ব দিয়েছেন।

নৈতিকতার শিক্ষার পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের সাহসী হওয়া প্রয়োজন জানিয়ে তিনি বলেন, যখন হয়রানির শিকার হয়েও কেউ চুপ থাকে, তখন অপরাধীরা সুযোগ পেয়ে যায়। তখন অনেক সময় বড় ঘটনা ঘটে।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, নিপীড়ন রোধে সচেতন ও সংবেদনশীল আচরণ পরিবার থেকেই শুরু করতে হবে। বাবা-মায়ের সচেতন হতে হবে। শিক্ষকদের সচেতন হতে হবে। যে নারী নির্যাতিত হয়েছে, সে অপরাধী না। বিষয়টি মনে রাখা দরকার। আমাদের মাইন্ড সেট পরিবর্তন করতে হবে।

অনুষ্ঠানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচর্য আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক বলেন, গণমাধ্যম বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রচার করবে। তাহলেই অপরাধীকে চিহ্নিত করে শাস্তির আওতায় আনা সম্ভব হবে।

তিনি বলেন, শিক্ষকরাই শিক্ষার্থীদের নৈতিকতার শিক্ষা দেবেন। যদি তা না হয়, সেই লজ্জা শিক্ষককেই বহন করতে হবে।

মতবিনিময় সভায় আরও বক্তব্য রাখেন, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক সৈয়দ মো. গোলাম ফারুক, প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো. ফসি উল্লাহ্, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের পরিচালক (কলেজ ও প্রশাসন) মো. শাহেদুল খবির চৌধুরী, ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ফওজিয়া রেজওয়ান, সিটি কলেজের অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন, আয়োজক সংগঠনের সভাপতি মোস্তাফা মল্লিক, সাধারণ সম্পাদক এসএম আববাস প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ২১১২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৬, ২০২০ 
এমআইএইচ/টিএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   শিক্ষা ব্যবস্থা শিক্ষা
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-01-16 21:13:11