ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৭ শ্রাবণ ১৪২৭, ১১ আগস্ট ২০২০, ২০ জিলহজ ১৪৪১

শিক্ষা

ঢাবিতে চলছে নন-ফিকশন বইমেলা

ইউনিভার্সিটি করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০১১৮ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৩, ২০১৯
ঢাবিতে চলছে নন-ফিকশন বইমেলা

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি): ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদ প্রাঙ্গণে শুরু হয়েছে তিন দিনব্যাপী নন-ফিকশন বইমেলা-২০১৯।

মঙ্গলবার (১২ নভেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ মেলার উদ্বোধন করেন। প্রিন্ট মিডিয়া বণিক বার্তা ও ঢাবি ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদের যৌথ আয়োজনে পঞ্চমবারের মতো এই মেলা অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

ঢাবি উপাচার্য বলেন, আমাদের দেশে বিভিন্ন ধরনের বইমেলা আয়োজিত হয়। তবে নন-ফিকশন নিয়ে আয়োজিত এ বইমেলার আলাদা বিশেষত্ব রয়েছে। বিশেষ করে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের জন্য এ বইমেলা বেশ গুরুত্ববহ। তাদের একাডেমিক কাজে সহায়ক গ্রন্থগুলো বিশ্ববিদ্যালয় অঙ্গনে নিয়ে এসেছে এ মেলা।

অনুষদের ডিন অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াতুল ইসলাম বলেন, বর্তমানে আমরা প্রযুক্তির ওপর এত বেশি নির্ভরশীল হয়ে গেছি যে, এখন চোখের ও মস্তিষ্কের ওপর চাপ বাড়ছে। প্রযুক্তির প্রতি এত বেশি ঝোঁক, এত বেশি আকর্ষণ যে এখন আমাদের শরীরের ক্ষতি হওয়া শুরু হয়েছে। তাই মানুষ আবার সেই ছাপানো বইয়ের দিকে মনোযোগ দিচ্ছে।

বণিক বার্তার সম্পাদক দেওয়ান হানিফ মাহমুদ বলেন, পাঁচ বছর আগে আমরা এ মেলা শুরু করেছিলাম। ধীরে ধীরে এ মেলা বেশ শক্ত একটি অবস্থান করে নিয়েছে। এজন্য আয়োজন সহযোগী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, বিশেষ করে ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদ এবং সহযোগী প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন- বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ব্যাংক ম্যানেজমেন্টের (বিআইবিএম) মহাপরিচালক ড. আক্তারুজ্জামান, সোনালী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আতাউর রহমান প্রধান, জনতা ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আব্দুছ ছালাম আজাদ, অগ্রণী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. শামস-উল-ইসলাম, রূপালী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. ওবায়েদ উল্লাহ আল মাসুদ, ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সৈয়দ ওয়াসেক মো. আলী প্রমুখ।

এবারের নন-ফিকশন বইমেলায় দেশের প্রথম সারির ২৬টি প্রকাশনা সংস্থা অংশ নিয়েছে। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত মেলা সবার জন্য উন্মুক্ত। মেলায় সব বইয়ে থাকছে ৩০ শতাংশ মূল্য ছাড়।

মেলায় অংশগ্রহণকারী প্রকাশনা প্রতিষ্ঠানগুলো হলো- দি ইউনিভার্সিটি প্রেস লিমিটেড (ইউপিএল), প্রথমা প্রকাশন, ডেইলি স্টার বুকস, বাতিঘর, শ্রাবণ প্রকাশনী, সংহতি প্রকাশনী, দিব্যপ্রকাশ, একাডেমিক প্রেস অ্যান্ড পাবলিশার্স লিমিটেড (এপিপিএল), জাগৃতি প্রকাশনী, মাওলা ব্রাদার্স, সাহিত্য প্রকাশ, অনুপম প্রকাশনী, অবসর প্রকাশনা সংস্থা, সময় প্রকাশন, অ্যাডর্ন পাবলিকেশন, আগামী প্রকাশনী, নালন্দা প্রকাশনী, অনন্যা, কথাপ্রকাশ, কাকলী প্রকাশনী, আলোঘর, ঐতিহ্য, এশিয়াটিক সোসাইটি অব বাংলাদেশ, জাতীয় সাহিত্য প্রকাশ, এ এইচ ডেভেলপমেন্ট পাবলিশিং হাউজ এবং বাংলা একাডেমি।

বাংলাদেশ সময়: ২০১৮ ঘণ্টা, নভেম্বর ১২, ২০১৯
এসকেবি/এসএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa