bangla news

নরসিংদীতে শিক্ষার্থীদের ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৩-০৩ ৬:৫৮:০৫ পিএম
বিক্ষোভরত শিক্ষার্থীরা। ছবি: বাংলানিউজ

বিক্ষোভরত শিক্ষার্থীরা। ছবি: বাংলানিউজ

নরসিংদী: নরসিংদীতে আব্দুল কাদির মোল্লা সিটি কলেজের  অধ্যক্ষের পদত্যাগের প্রতিবাদে ক্লাস বর্জন করে ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ রাখেন শিক্ষার্থীরা। 

রোববার (৩ মার্চ) দুপুর ১টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত মহাসড়ক অবরোধ করে রাখেন তারা। পরে কলেজের অধ্যক্ষ ড. মশিউর রহমান মৃধার অনুরোধে তারা মহাসড়ক থেকে সরে যান।

কলেজের মালিকপক্ষের সঙ্গে মতবিরোধের জেরে কলেজের অধ্যক্ষ ড. মশিউর রহমান মৃধা পদত্যাগ করেন। এ ঘটনায় শিক্ষার্থীরা দুপুর থেকে ঢাকা-সিলেট মনহাসড়ক অবরোধ করেন। তাদের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করে নরসিংদী জেলা ট্রাকচালক সমিতির ট্রাকচালকরাও মহাসড়কে এলোমেলোভাবে ট্রাক রেখে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন। 

এতে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। ফলে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে প্রায় ১৫ কিলোমিটার এলাকায় তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। এতে ভোগান্তিতে পড়েন শত শত যাত্রী।

জানা যায়, সম্প্রতি নরসিংদীতে আব্দুল কাদির মোল্লা সিটি কলেজের মালিকপক্ষের সঙ্গে মতবিরোধ দেখা দেয় কলেজের অধ্যক্ষ ড. মশিউর রহমান মৃধার। এরই জেরে রোববার সকালে পদত্যাগ করেন অধ্যক্ষ ড. মশিউর রহমান মৃধা। এ খবর ছড়িয়ে পড়লে বিক্ষুব্ধ হয়ে ওঠে কলেজের শিক্ষার্থীরা। 

পরে পদত্যাগ প্রত্যাহারের দাবিতে ক্লাস বর্জন করে মহাসড়কে নেমে আসেন শিক্ষার্থীরা। এসময় বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ করে যান চলাচল বন্ধ করে দেন। খবর পেয়ে পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে চেষ্টা চালায়। কিন্তু অধ্যক্ষকে স্বপদে পুনর্বহাল না করা পর্যন্ত অবরোধ তোলা হবে না বলে জানায় শিক্ষার্থীরা। পরে অধ্যক্ষের অনুরোধে শিক্ষার্থীরা মহাসড়ক থেকে সরে যান। 

এদিকে গত এক সপ্তাহে রহস্যজনক কারণে কলেজ থেকে বিভাগীয় প্রধানসহ ১৬ জন শিক্ষক পদত্যাগ করেন।

কলেজের বিজ্ঞান বিভাগের ছাত্রী সাদিয়া আক্তার অমি বলেন, অধ্যক্ষ সবসময় আমাদের বাবার মতো করে লেখাপড়া করান। উনার জন্যই আজ কলেজ দেশ সেরা কলেজে রুপান্তরিত হয়েছে। উনি না থাকলে কলেজের ফলাফলে ধস নামবে। তাই আমরা অধ্যক্ষ হিসেবে উনাকেই চাই। 

কলেজের অপর শিক্ষার্থী আমিন বলেন, অধ্যক্ষ স্যার না থাকলে আমরা এইচএসসি পরীক্ষা এবং একই সঙ্গে অনির্দিষ্টকালের জন্য ক্লাস বর্জন করবো।

কলেজের অভ্যন্তরীণ বিষয় জানা নেই উল্লেখ করে আইসিটি বিভাগের শিক্ষক এস এম মনিরুল ইসলাম বলেন, কলেজের অধ্যক্ষ  ড. মশিউর রহমান মৃধা স্যারের হাত ধরেই কলেজটি দেশে খ্যাতি অর্জন করেছে। তাই হঠাৎ স্যার পদত্যাগ করায় বিক্ষুব্ধ হয়ে উঠেছে শিক্ষার্থীরা। 

এ ব্যাপারে কলেজ কর্তৃপক্ষের সঙ্গে মোবাইলে যোগাযোগ করলে তারা কল রিসিভ করেনি।

বাংলাদেশ সময়: ১৮৫২ ঘণ্টা, মার্চ ০৩, ২০১৯
আরএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   সড়ক অবরোধ
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-03-03 18:58:05