ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৯ শাবান ১৪৪৫

শিক্ষা

বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় দিবস উদযাপন

শিক্ষা ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৫৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৮, ২০২৩
বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় দিবস উদযাপন

ঢাকা: বর্ণাঢ্য আয়োজনে জামালপুরে প্রতিষ্ঠিত বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (বশেফমুবিপ্রবি) দিবস উদযাপিত হয়েছে।

দিবসটি উপলক্ষে মঙ্গলবার (২৮ নভেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে বর্ণাঢ্য কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

ছয় বছর পূর্ণ করে এবার ৭ম বছরে পদার্পণ করছে বিশ্ববিদ্যালয়টি। কর্মসূচিতে এ বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বপ্নদ্রষ্টা ও প্রতিষ্ঠাতা সংসদ সদস্য (এমপি) মির্জা আজম প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।

কর্মসূচির শুরুতে সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. কামরুল আলম খানের নেতৃত্বে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর আনন্দ শোভাযাত্রা বের করা হয়। শোভাযাত্রাটি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান গেট প্রদক্ষিণ করে প্রশাসনিক ভবনের সামনে গিয়ে শেষ হয়। এরপর অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি মির্জা আজমকে নিয়ে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. কামরুল আলম খান জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিবের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানান। পরে জাতীয় পতাকা ও বিশ্ববিদ্যালয়ের পতাকা উত্তোলন করে শান্তির পায়রা উড়িয়ে অনুষ্ঠানের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয়।

পরে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে মির্জা আজম শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের দেশ এবং জনগণের কল্যাণে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে স্মার্ট বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠায় গবেষণা কার্যক্রম পরিচালনা করার আহ্বান জানান।  

সভাপতির বক্তব্যে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. কামরুল আলম বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়কে একটি ব্র্যান্ড বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তরের প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।  

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব ইউনিভার্সিটির উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আব্দুর রহমান সরকার, বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ মোহাম্মদ আবদুল মাননান, রেজিস্ট্রার সৈয়দ ফারুক হোসেন, ইইই বিভাগের চেয়ারম্যান ড. মো. রাশিদুল ইসলাম, গণিত বিভাগের চেয়ারম্যান রিপন রায়, সমাজকর্ম বিভাগের চেয়ারম্যান ড. আল মামুন সরকার, ভূ-তত্ত্ব বিভাগের চেয়ারম্যান মো. নাজমুল হোসেন, ব্যবস্থাপনা বিভাগের চেয়ারম্যান মো. এনামুল হক, ফিশারিজ বিভাগের চেয়ারম্যান মুহাম্মদ রফিকুল বারী, মির্জা আজম হলের প্রভোস্ট (ভারপ্রাপ্ত) পার্থ সারথি দাশ।

বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলাদেশ স্টাডিজ বিষয়ের প্রভাষক ইলিয়াছ উদ্দিন ও মো. রাসেল মাহমুদের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে আরও উপস্থিত ছিলেন জামালপুর জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আলহাজ্ব ফারুক আহমেদ চৌধুরী, অধুনালুপ্ত শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব ফিশারিজ কলেজের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব মো. রুস্তম আলী ঠিকাদার, মেলান্দহ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার মো. কামরুজ্জামান, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি হাজী দিদার পাশা, মাদারগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মির্জা গোলাম কিবরিয়া কবির, মেলান্দহ পৌরসভার মেয়র শফিক জাহেদী রবিন, জামালপুর পৌরসভার মেয়র মো. ছানুয়ার হোসেন ছানু, মেলান্দহ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ, সাধারণ সম্পাদক মো. জিন্নাহ, বশেফমুবিপ্রবি অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মির্জা মো. আব্দুল হালিম, কর্মচারী পরিষদের সভাপতি মো. আব্দুল মান্নান প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন আয়োজক কমিটির আহ্বায়ক ও ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর এস এম ইউসুফ আলী।

অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয় দিবস আয়োজক কমিটির সদস্য সচিব এস এম মোদাব্বির হোসেনসহ বিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষকরা, শিক্ষার্থীরা, কর্মকর্তারা ও কর্মচারীরা উপস্থিত হয়েছেন।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয় দিবস উদযাপন উপলক্ষে ক্যাম্পাসের প্রধান গেট, প্রশাসনিক ভবন, একাডেমিক ভবন ও হলগুলোয় আলোকসজ্জা করা হয়েছে। অনুষ্ঠান সূচির সবশেষে থাকছে সাংস্কৃতিক পরিবেশনা। বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় আইন ২০১৭ জাতীয় সংসদে পাস হওয়ার পর একই বছরের ২৮ নভেম্বর গেজেট আকারে প্রকাশিত হয়। এরপর প্রথম ব্যাচে ২০১৮-২০১৯ শিক্ষাবর্ষে চারটি অনুষদে চারটি বিভাগে ১২৮ জন ছাত্রছাত্রী ভর্তি করা হয়। ২০১৯ সালের ৩১ মার্চ প্রথম ওরিয়েন্টেশন এবং ১ এপ্রিল ক্লাস শুরুর মাধ্যমে শিক্ষা কার্যক্রমের সূচনা হয়।

‘বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় আইন ২০১৭’ গেজেট আকারে প্রকাশের দিন অর্থাৎ ২৮ নভেম্বর প্রতি বছর ‘বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় দিবস’ হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে উৎসবমুখর পরিবেশে উদযাপিত হয়ে আসছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৫৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৮, ২০২৩
আরআইএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।