ঢাকা, শুক্রবার, ৯ আশ্বিন ১৪২৮, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৫ সফর ১৪৪৩

অর্থনীতি-ব্যবসা

তিন প্রতিষ্ঠানে ১৬০০ কোটি টাকার বন্ড অনুমোদন

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৩০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ৫, ২০২১
তিন প্রতিষ্ঠানে ১৬০০ কোটি টাকার বন্ড অনুমোদন বিএসইসি

ঢাকা: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত তিন প্রতিষ্ঠানের ১৬০০ কোটি টাকার বন্ড অনুমোদন করেছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)।  

রোববার (৫ সেপ্টেম্বর) বিএসইসির ৭৯০তম সভায় এ অনুমোদন দেওয়া হয়েছে বলে সংস্থাটির নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মোহাম্মদ রেজাউল করিম স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এর মধ্যে লংকাবাংলা ফাইন্যান্সের ৩০০ কোটি টাকার, শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের ৫০০ কোটি টাকার এবং ইসলামী ব্যাংকের ৮০০ কোটি টাকার বন্ড অনুমোদন করে সংস্থাটি।

লংকাবাংলা: লংকাবাংলা ফাইন্যান্সের ৩০০ কোটি টাকার (মোট ইস্যু প্রাইজ ৩৬৫ দশমিক ৩৩ কোটি টাকা) নন-কনভার্টেবল জিরো কুপন বন্ড অনুমোদন করেছে। ওই বন্ডের ডিসকাউন্ট হার ৭ দশমিক ২৫ শতাংশ থেকে ৯ দশমিক ০০ শতাংশ। যা আর্থিক প্রতিষ্ঠান, মিউচ্যুয়াল ফান্ড, ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি, তালিকাভুক্ত ব্যাংক, সমবায় ব্যাংক, আঞ্চলিক ব্যাংক, সংগঠন, ট্রাস্ট ফান্ড ও স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠান বা করপোরেশনসহ অন্যান্য যোগ্য বিনিয়োগকারীদের অনুকূলে প্রাইভেট প্লেসমেন্টের মাধ্যমে ইস্যু করা হবে।  

এই বন্ড ইস্যুর মাধ্যমে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান থেকে অর্থ উত্তোলন করে লংকাবাংলা ফাইন্যান্স করপোরেট, রিটেইল এবং ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প (এসএমই) সেক্টরে পুনরায় বিনিয়োগ বা ঋণ দেবে। এ বন্ডের প্রতি লটের অভিহিত মূল্য ৫৩ লাখ ৬ হাজার ৭৪৩ টাকা। ইন্ডাস্ট্রিয়াল অ্যান্ড ইনফ্রাস্ট্রাকচার ডেভেলপমেন্ট ফাইন্যান্স কোম্পোনি (আইআইডিএফসি) এ বন্ডের ট্রাস্টি ক্যাপিটাল এবং অ্যারেঞ্জার হিসাবে কাজ করছে গ্রিন ডেল্টা ক্যাপিটাল।

শাহজালাল ইসলামী ব্যাংক: শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের ৫০০ কোটি টাকার আনসিকিউর্ড, কন্টিজেন্ট-কনভার্টেবল, ফুল্লি পেইড আপ, নন-কিউমিলেটিভ, ব্যাসেল-III কমপ্লেইন্ট পাপপেচ্যুয়াল বন্ড অনুমোদন করেছে। বন্ডটির ৪৫০ কোটি টাকা প্রাইভেট প্লেসমেন্টের মাধ্যমে এবং অবশিষ্ট ৫০ কোটি টাকা পাবলিক অফারের মাধ্যমে ইস্যু করা হবে। বন্ডটির ইউনিট প্রতি অভিহিত মূল্য ৫ হাজার টাকা। বন্ডটির কুপন হার ৬ শতাংশ থেকে ১০ শতাংশ যা আর্থিক প্রতিষ্ঠান, মিউচ্যুয়াল ফান্ড, ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি, তালিকাভুক্ত ব্যাংক, আঞ্চলিক রুরাল ব্যাংক, ট্রাস্ট, সংগঠন স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানসহ অন্যান্য যোগ্য বিনিয়েগাকারী এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের অনুকূলে ইস্যু করা হবে।  

এই বন্ড ইস্যুর মাধ্যমে শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের অ্যাডিশনাল টায়ার-I মূলধনের ভিত্তি শক্তিশালী করবে। প্রাইভেট প্লেসমেন্টের ক্ষেত্রে এ বন্ডের ন্যুনতম সাবস্ক্রিপশন ৫ কোটি টাকা এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের জন্য এই বন্ডের ন্যুনতম সাবস্ক্রিশন ৫ হাজার টাকা। মিউচ্যুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক (এমটিবি) এ বন্ডের ট্রাস্টি ক্যাপিটাল এবং ইস্যু ম্যানেজার হিসেবে কাজ করছে ইসলামী ব্যাংক ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্ট এবং ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক (ইউসিবি) ইনভেস্টমেন্ট।

ইসলামী ব্যাংক: ইসলামী ব্যাংক ৮০০ কোটি টাকার আনসিকিউর্ড, কন্টিজেন্ট-কনভার্টেবল, ফুল্লি পেইড আপ, ফ্লোটিং রেট, নন-কনভার্টেবল ব্যাসেল-III কমপ্লেইন্ট দ্বিতীয় পারপেচ্যুয়াল বন্ড অনুমোদন করেছে। বন্ডটির ৭২০ কোটি টাকা প্রাইভেট প্লেসমেন্টের মাধ্যমে এবং অবশিষ্ট ৮০ কোটি টাকা পাবলিক অফারের মাধ্যমে ইস্যু করা হবে। বন্ডটির ইউনিট প্রতি অভিহিত মূল্য ৫ হাজার টাকা। বন্ডটি আর্থিক প্রতিষ্ঠান, মিউচ্যুয়াল ফান্ড, ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি, তালিকাভুক্ত ব্যাংক, আঞ্চলিক রুরাল ব্যাংক, ট্রাস্ট, সংগঠন, স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানসহ অন্যান্য যোগ্য বিনিয়োগকারী এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের অনুকূলে ইস্যু করা হবে। এ বন্ড ইস্যুর মাধ্যমে ইসলামী ব্যাংকের অ্যাডিশনাল টায়ার-I মূলধনের ভিত্তি শক্তিশালী করবে। স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেড (এসবিএল) এ বন্ডের ট্রাস্টি ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্ট এবং ইস্যু ম্যানেজার হিসেবে কাজ করছে প্রাইম ব্যাংক ইনভেস্টমেন্ট এবং ইউসিবি ইনভেস্টমেন্ট লিমিটেড।

বাংলাদেশ সময়: ১৮২৫ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ০৫, ২০২১
এসএমএকে/এসআরএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa