[x]
[x]
ঢাকা, বুধবার, ৮ ফাল্গুন ১৪২৫, ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
bangla news

প্রতিবছর ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে আয়কর রিটার্ন জমা দিতে হবে: অর্থমন্ত্রী

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১০-০৯-১৫ ৩:১৯:৩৬ এএম

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, প্রতিবছর ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে আয়কর রিটার্ন জমা দিতে হবে। এই সময়সীমা আর বাড়ানো হবে না। রাজধানীর অফিসার্স কাবে বুধবার তৃতীয় জাতীয় কর দিবসের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

ঢাকা: অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, প্রতিবছর ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে আয়কর রিটার্ন জমা দিতে হবে। এই সময়সীমা আর বাড়ানো হবে না।

রাজধানীর অফিসার্স কাবে বুধবার তৃতীয় জাতীয় কর দিবসের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘এখন থেকে প্রতিবছর ৩০ সেপ্টেম্বরকে আয়কর রির্টান জমা দেওয়ার শেষ দিন হিসেবে ঠিক করা হল। এ দিনকে সমনে রেখে করদাতারা সকল আনুষ্ঠানিকতা শেষ করে উৎসব মুখর পরিবেশে কর দেবেন।’

অর্থমন্ত্রী আরও বলেন, ‘সময়ের সঙ্গে সরকারের খরচও বাড়ছে। এ খরচ মেটাতে আরও বেশি আয়কর নিশ্চিত করতে প্রচার-প্রচারণা বাড়ানো ও অনলাইনে আয়কর দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে।’

এ ব্যাপারে জনগণকে উৎসাহিত করতে ২৬ থেকে ৩০ সেপ্টেম্বর আয়কর মেলার আয়োজন করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

এসময় অর্থমন্ত্রী অনলাইনে ইনকামট্যাক্স ক্যালকুলেটর উদ্বোধন করেন। এ ক্যলকুলেটরের মাধ্যমে রিটার্ন দাখিলকারী নিজেই তার আয়কর হিসেব করে বের করতে পারবেন। এনবিআরের ওয়েবসাইটে এ ক্যালকুলেটর ব্যবহারের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।  

অনুষ্ঠান শেষে অর্থমন্ত্রী ২০০৯-১০ কর বর্ষের হিসাবের ভিত্তিতে ঢাকা সিটি করর্পোরেশন ও ঢাকা জেলার নির্বাচিত ৯০ সেরা করদাতার হতে সম্মাননা ও সনদ তুলে দেন ।

ঢাকা সিটি কর্পোরেশনে দীর্ঘসময় করপ্রদানকারী নির্বাচিত হয়েছেন সিদ্ধেশ্বরীর শেলটেক নিহারীকার বাসিন্দা বেগম মোতাহারা বানু ও মালিবাগ চৌধুরীপাড়ার এমএ কুদ্দুস। সেরা করদাতারা হলেন, রাজকুমার (পুরানা পল্টন), মো. শামছুল আলম (বিজয়নগর), হোসেন আরা হোসেন (ড্রাগ ইন্টারন্যাশনাল)।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর অর্থবিষযক উপদেষ্টা ড. মসিউর রহমান। স্বাগত ভাষণ দেন অনুষ্ঠানের সভাপতি অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগের সচিব ও এনবিআর চেয়ারম্যান ড. নাসিরউদ্দিন আহমেদ।

এছাড়াও তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সাবেক অর্থ উপদেষ্টা ড. এবি মির্জ্জা আজিজুল ইসলাম, গাজী গোলাম দস্তগীর এমপি, অর্থনীতিবিদ ড. খলীকুজ্জমান আহমদ, দুর্নীতি দমন কমিশনের চেয়ারম্যান গোলাম রহমান, এনবিআরের শীর্ষ কর্মকর্তা, ব্যবসায়ী নেতা ও কর প্রদানকারীরা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে অর্থমন্ত্রী পায়রা উড়িয়ে আয়কর দিবসের শোভাযাত্রা উদ্বোধন করেন। সকাল ৮টায় এনবিআর থেকে শোভাযাত্রা শুরু হয়ে জাতীয় প্রেসকাবে গিয়ে শেষ হয়।

এ বছরই প্রথমবারের মতো রাজধানীর পাশাপাশি সব বিভাগীয় ও জেলা শহরে দিবসটি পালন করা হচ্ছে।

বাংলাদেশ সময় ১৭১৪ ঘন্টা, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১০।

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14