bangla news

বাণিজ্য-বিনিয়োগ বাড়াতে চুক্তি স্বাক্ষরে আগ্রহী কসোভো

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২০-০১-১৪ ৪:৪১:৪৯ পিএম
বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি

বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি

ঢাকা: বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বাড়াতে বাংলাদেশের সঙ্গে কসোভো চুক্তি সই করতে চায় বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। 

তিনি বলেন, কসোভোর বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশে বিনিয়োগ করলে লাভবান হবেন। বাংলাদেশ কসোভোর বিনিয়োগকারীদের চাহিদা মোতাবেক সব ধরনের সহযোগিতা দেবে।

মঙ্গলবার (১৪ জানুয়ারি) সচিবালয়ে নিজ দপ্তরে ঢাকায় নিযুক্ত কসোভোর রাষ্ট্রদূত গুনার ইউরিয়ার সঙ্গে মতবিনিময়ের সময় তিনি একথা বলেন। এসময় বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সচিবের দায়িত্বে অতিরিক্ত সচিব (রপ্তানি) মো. ওবায়দুল আজম উপস্থিত ছিলেন।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে। বাংলাদেশ এখন বিনিয়োগের জন্য আকর্ষণীয় স্থান। এখানে বিনিয়োগের চমৎকার পরিবেশ বিরাজ করছে। জাপান, কোরিয়া, চায়না, ইন্ডিয়াসহ বিভিন্ন দেশ বড় ধরনের বিনিয়োগে এগিয়ে এসেছে। অনেক দেশ বিনিয়োগের আগ্রহ প্রকাশ করেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্যোগে বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে ১০০টি স্পেশাল ইকোনমিক জোন গড়ে তোলার কাজ দ্রুত এগিয়ে চলছে। 

তিনি বলেন, বাংলাদেশে তৈরি পোশাক, পাটজাত পণ্য, চামড়াজাত পণ্য, আইসিটিসহ বেশ কিছু গুরুতপূর্ণ সেক্টরে বিনিয়োগ করার উজ্জ্বল সম্ভাবনা রয়েছে। এজন্য উভয় দেশের ব্যবসায়ী ও বিনিয়োগকারীদের পারস্পরিক দেশ সফর করতে হবে। এতে বিনিয়োগ ও বাণিজ্য বৃদ্ধির খাতগুলো চিহ্নিত করা সহজ হবে। 

কসোভোর রাষ্ট্রদূত বলেন, বাংলাদেশের উন্নয়ন এখন দৃশ্যমান। কসোভোর বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশে বিনিয়োগ করতে আগ্রহী। বাংলাদেশের স্পেশাল ইকোনমিক জোনে কসোভোর বিনিয়োগকারীরা বিনিয়োগ করবে। ব্যবসায়ীদের পারস্পরিক সফর বিনিময়ের মাধ্যমে কাজটি সহজ হতে পারে। এজন্য উভয় দেশের মধ্যে একটি চুক্তি সই হওয়া প্রয়োজন। এতে উভয় দেশের ব্যবসায়ীরা বাণিজ্য ও বিনিয়োগে এগিয়ে আসবে।

পরে বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি উজবেকিস্তানের চার সদস্যবিশিষ্ট একটি ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদলের সঙ্গে মতবিনিময় করেন। এসময় ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদল সেদেশে চামড়া, তৈরি পোশাক, সরিষার তেল ও সানফ্লাওয়ার তেল উৎপাদনের ক্ষেত্রে যৌথ বিনিয়োগের প্রস্তাব দেন। তৈরি পোশাক ফ্যাক্টরি গড়ে তুলতে ও সরিষা উৎপাদনে বাংলাদেশের সহযোগিতা কামনা করেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৩৮ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৪, ২০২০ 
জিসিজি/এএ

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2020-01-14 16:41:49