bangla news

অনলাইনের মাধ্যমে কৃষকের কাছ থেকে ধান কিনবে সরকার

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১১-২৩ ৩:৩৪:৪৭ পিএম
চাষিদের মধ্যে প্রণোদনার সার ও বীজ বিতরণ

চাষিদের মধ্যে প্রণোদনার সার ও বীজ বিতরণ

নওগাঁ: সরকারি গুদামে ধান সরবরাহে দালাল ফরিয়াদের দিন শেষ। অনলাইনের মাধ্যমে সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ধান কিনবে সরকার। এজন্য ‘কৃষকের অ্যাপস’ নামে একটি অ্যাপসের ব্যবহার শুরু করা হয়েছে। পরীক্ষামূলকভাবে দেশের ১৬টি উপজেলায় এবারই প্রথম এই কার্যক্রম হাতে নেওয়া হয়েছে। পর্যায়ক্রমে এটি সারাদেশে ছড়িয়ে দেওয়া হবে।

শনিবার (২৩ নভেম্বর) দুপুরে নওগাঁর সাপাহারে চাষিদের মধ্যে প্রণোদনার সার ও বীজ বিতরণ অনুষ্ঠানে গিয়ে খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার এ কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, অনলাইনে আবেদন করে অ্যাপসের মাধ্যমে চাষিরা ঝামেলাহীনভাবে সরকারি গুদামে ধান সরবরাহ করতে পারবেন। 

এসময় মন্ত্রী ধান সরবরাহের জন্য প্রদত্ত স্লিপ দালাল ও ফরিয়াদের কাছে বিক্রি না করার জন্য কৃষকদের প্রতি অনুরোধ জানান।

অনুষ্ঠানে সরকারি প্রণোদনা হিসেবে স্থানীয় ১৫০ জন প্রান্তিক চাষিকে ৩০০ কেজি ভুট্টা, এক হাজার ১৭০ জন চাষিকে ১১৭০ কেজি সরিষা, ২০ জন চাষিকে ২০ কেজি পেঁয়াজ, ৩৫ জন চাষিকে ১৭৫ কেজি শীতকালীন ও ৮৫ জন চাষিকে ৪২৫ কেজি গ্রীষ্মকালীন মুগডালের বীজ বিতরণ করা হয়। এছাড়া চাষিদের মধ্যে ২৮ মেট্রিক টন ডিএপি সার ও ১৪.৬ মেট্রিক টন এমওপি সার দেওয়া হয়। 

একই অনুষ্ঠানে সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনী কর্মসূচির আওতায় সাপাহার উপজেলার ৯৭ জন শিক্ষার্থীকে ৮ লাখ ৯২ হাজার ৮০০ টাকার আর্থিক অনুদান, দলিত ও হরিজন বিশেষ ভাতা হিসেবে ১৯০ জনকে ১১ লাখ ৪০ হাজার টাকার আর্থিক ভাতা ও স্বেচ্ছাসেবী ছয়টি সমাজকল্যাণ সংস্থাকে ১৯ হাজার ৫০০ টাকা করে মোট ১ লাখ ১৭ হাজার টাকার চেক বিতরণ করেন খাদ্যমন্ত্রী।

এসময় প্রশাসনের স্থানীয় কর্মকর্তা ও অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৩০ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৩, ২০১৯
এনটি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   নওগাঁ
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-11-23 15:34:47