ঢাকা, মঙ্গলবার, ১ আশ্বিন ১৪২৬, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯
bangla news

কফি-কাজুবাদাম চাষ শিখতে কৃষকদের ভিয়েতনামে পাঠানো হবে

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৮-২২ ৬:৫৭:৫৩ পিএম
সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে কৃষিমন্ত্রী। ছবি: বাংলানিউজ

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে কৃষিমন্ত্রী। ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা: কফি ও কাজুবাদাম চাষ করে বছরে চার বিলিয়ন ডলার আয় করছে ভিয়েতনাম। পার্বত্য চট্টগ্রামেও কফি- কাজুবাদাম চাষ করা হবে। এর চাষ পদ্ধতি শেখানোর জন্য সংশ্লিষ্ট কৃষকদের ভিয়েতনামে পাঠানো হবে বলে জানিয়েছেন কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক। 

বৃহস্পতিবার (২২ আগস্ট)  রাজধানীর খামারবাড়িতে কৃষি তথ্য সার্ভিসের সম্মেলন কক্ষে এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি একথা বলেন। কৃষিক্ষেত্রে সর্বোচ্চ সম্মান জাতীয় কৃষি পুরস্কারে স্বর্ণপদকপ্রাপ্তদের সংবর্ধনায় এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। 

ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেন, কফি ও কাজুবাদামের চাষ এগিয়ে নিতে বিনামূল্যে চারা বিতরণ করা হবে।                           

চাল রপ্তানি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, দ্রুততম সময়ে ফিলিপাইনে এক লাখ টন চাল রপ্তানি করা হবে। এ বিষয়ে সব প্রক্রিয়া শেষ পর্যায়ে রয়েছে। চালের দাম বেশি- কথাটা ঠিক নয়। হাইব্রিড ও মোটা চালের দাম কম। সবসময় বাজার মনিটরিং করে দাম কমানো যায় না। কৃষক যেন ন্যায্যমূল্য পায়, সেজন্য সরাসরি তাদের কাছ থেকে ১০ লাখ টন ধান কেনা হচ্ছে।

কৃষিমন্ত্রী বলেন, নিরাপদ খাদ্য ও পুষ্টি নিশ্চিত করা হবে। কৃষিকে বাণিজ্যিকীকরণ করাই এখন মূল চ্যালেঞ্জ।

তিনি বলেন, পূর্বাচলে উন্নতমানের নিবন্ধিত ল্যাব করা হবে। ফলে, বাইরে কৃষিপণ্য রপ্তানি সহজ হবে। দুধ-ডিম পরীক্ষার জন্য আর বিদেশে যেতে হবে না।   

কৃষি তথ্য সার্ভিসের পরিচালক ড. মো নুরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুস্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন কৃষি সচিব মো. নাসিরুজ্জামান, কৃষি তথ্য সার্ভিসের উপপরিচালক রেজাউল করিম প্রমুখ। 

বাংলাদেশ সময়: ১৮৫৫ ঘণ্টা, আগস্ট ২২, ১০১৯
এনআইএস/একে

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-08-22 18:57:53