[x]
[x]
ঢাকা, বুধবার, ৬ চৈত্র ১৪২৫, ২০ মার্চ ২০১৯
bangla news

৫ শতাংশ ক্যাশ ইনসেনটিভ দাবি বিজিএমইএ’র

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০২-১৬ ১০:১৪:৪৭ পিএম
প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমানকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হচ্ছে। ছবি: বাংলানিউজ

প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমানকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হচ্ছে। ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা: সরকারের কাছে আগামী দুই বছরের জন্য পাঁচ শতাংশ ক্যাশ ইনসেনটিভ (প্রণোদনা) দাবি করেছে পোশাক প্রস্তুত ও রফতানিকারক সমিতি (বিজিএমইএ)।

সংগঠনটির মতে, নতুন বর্ধিত বেতন কার্যকর ও আন্তর্জাতিক বাজারে ডলারের অবমূল্যায়নে সংকটের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে দেশের তৈরি পোশাক খাত। এ খাতকে টিকিয়ে রাখতে প্রণোদনার বিকল্প নেই। 

শনিবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর বিজিএমইএ ভবনে পোশাক শিল্প পরিবার থেকে নবগঠিত মন্ত্রী সভার সদস্য ও সংসদ সদস্যদের দেয়া এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এ কথা জানান বিজিএমইএ’র সভাপতি মো. সিদ্দিকুর রহমান।

তিনি বলেন, দেশের মানুষ এখন বিদ্যুৎ পায়, আমরাও পাই। তবে কোয়ালিটি সম্পন্ন বিদ্যুৎ পায় না। বিদ্যুৎ উৎপাদন হলেও ট্রান্সমিশন ও ডিস্ট্রিবিউশনের কোনো উন্নতি হয়নি। গ্যাস পেতে হলে উচ্চপর্যায়ের কমিটির অনুমোদন লাগে। অথচ এ কমিটির কোনো সভা হয় না। তাই এ কমিটি আমরা চাই না। এখন এলপিজি এসেছে, ছোট কমিটি হলেও চলবে। 

বিজিএমইএ’র সভাপতি বলেন, আমাদের কোনো প্লান পাস করাতে হলে ১৬ ধাপ পার হতে হতো। নতুন মন্ত্রী এটাকে ৬ ধাপে এনেছেন। এজন্য সরকারকে ধন্যবাদ জানাই। তবে এখনও ট্যাক্স অত্যাচার বন্ধ হয়নি। এভাবে অত্যাচার চলতে থাকলে আগামী প্রজন্ম হয়তো এ খাত থেকে মুখ ফিরিয়ে নেবেন। রফতানি খাতে আমরা ট্যাক্স মুক্ত চাই।

সিদ্দিকুর রহমান বলেন, বিভিন্ন খাতে প্রণোদনা দেয়া হয়, সে সুবিধা আমরা পাই না। আমাদের প্রণোদনা দেয়া হয় বলে প্রচারিত কথাটি হাস্যকর। তবে ব্যাকওয়ার্ড লিংকে প্রণোদনা দেয়া হয়। আমরা নতুন বেতন কার্যকর করতে গিয়ে আমাদের রক্তক্ষরণ হচ্ছে। কারণ আন্তর্জাতিক বাজারে পণ্যের দাম কমেছে। ব্যাংক ঋণে এখনও এক অংক সুদ হারে লোন পাওয়া যায় না।

আমাদের শিল্প বাঁচলে, দেশ বাঁচবে। দেশ হবে উন্নত। তাই এ শিল্পকে বাঁচাতে আগামী দুই বছরের জন্য পাঁচ শতাংশ নগদ প্রণোদনার দাবি জানাই। আমরা আশা করি, আমাদের কথা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শুনবেন। এ শিল্পকে তিনি বাঁচাবেন।

এসময় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন- বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি, স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় (এলজিআরডি) মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম, প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান, বিজিএমইএ’র সাবেক সভাপতি আবদুস সালাম মুর্শিদী, মো. আতিকুল ইসলামসহ বিজিএমইএ’র পরিচালক ও সদস্যরা।

বাংলাদেশ সময়: ২২০৯ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১৬, ২০১৯
ইএআর/আরবি/

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache