[x]
[x]
ঢাকা, বুধবার, ৮ ফাল্গুন ১৪২৫, ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
bangla news

দেশের সেরা ব্র্যান্ড ‘বসুন্ধরা টিস্যু’

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-১২-০৮ ১১:২৫:০১ পিএম
বসুন্ধরা টিস্যু’র পুরস্কারটি গ্রহণ করেন বসুন্ধরা গ্রুপের ডিএমডি মুস্তাফিজুর রহমান

বসুন্ধরা টিস্যু’র পুরস্কারটি গ্রহণ করেন বসুন্ধরা গ্রুপের ডিএমডি মুস্তাফিজুর রহমান

ঢাকা: দেশ সেরা ব্র্যান্ডের মর্যাদা পেলো ‘বসুন্ধরা টিস্যু’। দেশের অন্যান্য ব্র্যান্ডের টিস্যুকে পেছেনে ফেলে এই সম্মান অর্জন করেছে ‘বসুন্ধরা টিস্যু’।

রাজধানীর লা মেরিডিয়ান হোটেলে শনিবার (৮ ডিসেম্বর, ২০১৮) সন্ধ্যায় বাংলাদেশ ব্র্যান্ড ফোরাম আয়োজিত বেস্ট ব্র্যান্ড অ্যাওয়ার্ডের দশম আসরের আড়ম্বরপূর্ণ অনুষ্ঠানে সেরা ব্র্যান্ডগুলোকে পুরস্কার তুলে দেওয়া হয়। বসুন্ধরা টিস্যু’র পুরস্কারটি গ্রহণ করেন বসুন্ধরা গ্রুপের ডিএমডি মুস্তাফিজুর রহমান। এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন বসুন্ধরা গ্রুফের চিফ ফিনান্সিয়াল অফিসার মির্জা মুজাহিদুল ইসলাম, হেড অব সেলস মাসুদুজ্জামান, বসুন্ধরা পেপারের হেড অব প্রডাক্ট আবুল হাসান, হেড অব ব্র্যান্ড (টিস্যু) তওফিক হাসান।
 
নিয়েলসেন বাংলাদেশের অংশিদারিত্বে এবং দ্য ডেইলি স্টারের পৃষ্ঠপোষকতায় ব্র্যান্ডিং শিল্পের সবচেয়ে বড় সম্মাননা এই বেস্ট ব্র্যান্ড অ্যাওয়ার্ড।  বিভিন্ন ব্র্যান্ডের সঙ্গে যুক্ত প্রায় ৫০০ অতিথি অনুষ্ঠানে অংশ নেন।  
২০০৮ সাল থেকে যাত্রা শুরু করা এ পুরস্কার আয়োজনের উদ্দ্যেশ্য হলো দেশে পরিচালিত ব্র্যান্ডগুলোর সফলতাকে সম্মাননার মাধ্যমে অনুপ্রাণিত করা। নিয়েলসেন-এর বিশ্বমানের জরিপ পদ্ধতি “উইনিং ব্র্যান্ডস” অনুসারে দেশের সর্বাধিকপ্রিয় ব্র্যান্ডগুলোকে সম্মাননা জানানো হয়। এবছর জরিপের কার্যক্রমে বাংলাদেশের নিয়েলসেন দলকে পরামর্শ দিয়েছে নিয়েলসেন দক্ষিণ এশিয়া। দেশজুড়ে প্রায় ৪০০০ ভোক্তার অংশগ্রহণে পরিচালিত এ জরিপের ওপর ভিত্তি করে এবছর মোট ৩৪টি ক্যাটাগরিতে এ পুরস্কার দেওয়া হয়েছে।
 
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন দ্য ডেইলি স্টারের প্রকাশক ও সম্পাদক মাহফুজ আনাম। এছাড়াও বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ব্র্যান্ড ফোরামের প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক শরীফুল ইসলাম।  
মাহফুজ আনাম বলেন, ব্র্যান্ড  মানে শুধু লোগো এবং প্রচারণা নয়। সেরা ব্র্যান্ডগুলো ভোক্তাদেরকে পণ্যের কার্যকারিতা এবং আবেগজনিত উপকারিতা উভয়দিক থেকেই মূল্যায়ন করে থাকে। তদুপরি, আগামী দিনের ব্র্যান্ডগুলোকে আরও টেকসই হতে সচেষ্ট থাকতে হবে। 
অনুষ্ঠানে বেস্ট ব্র্যান্ড অ্যাওয়ার্ডের জরিপ পদ্ধতি সম্পর্কে বক্তব্য দেন নিয়েলসেন সাউথ ইস্ট এশিয়ার মার্কেট লিডার দীপতংশু রায়।
 
পুরষ্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে আরও ছিল ব্র্যান্ডিং এবং স্ট্র্যাটেজি বিষয়ক দু’টি আলোচনা। এগুলো সঞ্চালনা করেন আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত বক্তা প্রফেসর জনাথন এ জে উইলসন পিএইচডি এবং যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া-ভিত্তিক উদ্যোক্তা ও বিনিয়োগকারী মোহাম্মেদ জেরাল্ডস।
 
দশম বেস্ট ব্র্যান্ড অ্যাওয়ার্ডে ৩৪ টি ক্যাটাগরিতে সর্বমোট ১০০টি ব্র্যান্ডকে সম্মানিত করা হয়, এর মধ্যে প্রতিটি ক্যাটাগরিতে শ্রেষ্ঠ ব্র্যান্ডগুলোর প্রতিনিধিদের হাতে সম্মাননা পদক তুলে দেওয়া হয়। এছাড়াও পদক লাভ করেন সর্বশ্রেণীয় সেরা ১৫ ব্র্যান্ডের প্রতিনিধিরা। 
সর্বশ্রেণীয় সেরা ১৫টি ব্র্যান্ডের প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থানলাভ করেছে যথাক্রমে ই¯পাহানী মির্জাপুর চা, ক্লোজআপ এবং রাধুঁনী মসলা। এই প্রথমবারের মতো সর্বশ্রেণীয় সেরা ১৫-এর তালিকায় প্রথমস্থান লাভ করে স¤পুর্ণ দেশীয় কোনো ব্র্যান্ড।
 
বাংলাদেশ ব্র্যান্ড ফোরামের উদ্দ্যোগে আয়োজিত এ অনুষ্ঠানের রিসার্চ পার্টনার ছিল নিয়েলসেন বাংলাদেশ এবং সহযোগিতায় ছিল দ্য ডেইলি স্টার। এছাড়াও নলেজ পার্টনার হিসেবে ছিল মার্কেটিং সোসাইটি অব বাংলাদেশ (এমএসবি), ইভেন্ট পার্টনার লে মেরিডিয়েন ঢাকা;স্ট্র্যাটেজিক পার্টনার  বাংলাদেশ ক্রিয়েটিভ ফোরাম; আইটি পার্টনার আমরা নেটওয়ার্ক; লাইফস্টাইল পার্টনার অ্যাডভান্সড টেকনোলজি এন্ড আইডিয়াস লিমিটেড, এবং পিআর পার্টনার ব্যাকপেজ পিআর।
 
বাংলাদেশ সময় : ২৩২২ ঘণ্টা, ০৮ ডিসেম্বর, ২০১৮
আরএম/এসআইএস 

 

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache