ঢাকা, রবিবার, ১৭ শ্রাবণ ১৪২৮, ০১ আগস্ট ২০২১, ২১ জিলহজ ১৪৪২

দিল্লি, কলকাতা, আগরতলা

ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি কংগ্রেসের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬২৭ ঘণ্টা, জুলাই ২০, ২০২১
ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি কংগ্রেসের কথা বলছেন কংগ্রেস নেতা অধ্যাপক মানিক দেব। ছবি: বাংলানিউজ

আগরতলা, (ত্রিপুরা): ব্যক্তিগত ফোন কল রেকর্ড ইস্যুকে কেন্দ্র করে ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবি করেছে ত্রিপুরা প্রদেশ কংগ্রেস।  প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বে ভারতবর্ষে এখন বেকারত্বের প্রথম অবস্থায় পৌঁছে গেছে।

একইভাবে দরিদ্র মানুষের সংখ্যা পৃথিবীর মধ্যে সবচেয়ে বেশি রয়েছে ভারতবর্ষে।

মঙ্গলবার (২০ জুলাই) আগরতলার পোস্ট অফিস চৌমুহনী এলাকার ত্রিপুরা প্রদেশ কংগ্রেস ভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে ত্রিপুরা প্রদেশ কংগ্রেস নেতা অধ্যাপক মানিক দেব এই অভিযোগ করেন।

গত ৭০ বছরের মধ্যে ভারতের অর্থনীতি সবচেয়ে বিপর্যন্ত অবস্থায় রয়েছে বর্তমান সময়ে। পাশাপাশি তিনি বর্তমান সময়ের ভারতজুড়ে প্রবল বিতর্ক সৃষ্টিকারী রাষ্ট্রকর্তৃক দেশের সবক’টি বিরোধীদলের নেতা এবং বিশেষ সাংবাদিকদের ফোন স্টেপ করার যে অভিযোগ উঠেছে এই বিষয়ে কথা বলেন।  

এ ঘটনার দায়ভার স্বীকার করে ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে অবিলম্বে পদত্যাগ ও এর সুষ্ঠু তদন্তের দাবি জানান।  

কেন্দ্র সরকারের পাশাপাশি তিনি এ দিন ত্রিপুরা সরকারের তীব্র সমালোচনা করে বলেন, রাজ্য সরকার ক্ষমতায় আসার আগে বলেছিলেন মাদকমুক্ত ত্রিপুরা গড়বে কিন্তু, বাস্তবে রাজ্যে নেশার দৌরাত্ম্য অনেক বেড়ে গেছে। মাদককারবারিদের স্বর্গরাজ্যে পরিণত হয়েছে। এছাড়া প্রতিদিন নারীদের ওপর অপরাধ সংঘটিত হচ্ছে। আইন-শৃঙ্খলার অস্তিত্ব নেই, মুখ্যমন্ত্রী ব্যর্থ, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ব্যর্থ। একইভাবে নিত্যসামগ্রীর মূল্য ও জ্বালানি তেলের মূল্য বাড়িয়ে দরিদ্র অংশের মানুষদের চরম সংকটে ফেলে দিয়েছে বর্তমান কেন্দ্র এবং রাজ্য সরকার।

এক দুর্বিষহ অবস্থার মধ্য দিয়ে যাচ্ছে দেশ। এই করুণ অবস্থাকে আরও তীব্র করেছে ভ্যাকসিন সংকট বলে মন্তব্য করেন ত্রিপুরা প্রদেশ কংগ্রেসের ওই নেতা।

বাংলাদেশ সময়: ১৬২৫ ঘণ্টা, জুলাই ২০, ২০২১
এসসিএন/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa