ঢাকা, রবিবার, ২০ ফাল্গুন ১৪৩০, ০৩ মার্চ ২০২৪, ২১ শাবান ১৪৪৫

দিল্লি, কলকাতা, আগরতলা

রাষ্ট্রপতি প্রণবের বাড়ির কাছেই জঙ্গিদের ডেরা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২২৯ ঘণ্টা, অক্টোবর ১০, ২০১৪
রাষ্ট্রপতি প্রণবের বাড়ির কাছেই জঙ্গিদের ডেরা

কলকাতা: বর্ধমান বিস্ফোরণের দিন জঙ্গিদের মোবাইল থেকে বেশ কয়েকবার ফোন গিয়েছিল পশ্চিমবঙ্গের বীরভূম জেলার কির্নহারে। ঠিক সেসময় ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায় দুর্গাপূজা উপলক্ষে হাজির ছিলেন তার কির্নাহারের দিদির বাড়িতে।



কির্নাহারে রাষ্ট্রপতির দিদির বাড়ির থেকে মাত্র ৫০০ মিটার দূরে এবং রাষ্ট্রপতির নিজের বাড়ির থেকে মাত্র ২ কিলোমিটারের মধ্যে একটি জঙ্গি ডেরার সন্ধান পেল তদন্তকারী কর্মকর্তারা। বর্ধমান বিস্ফোরণের মূল সন্দেহভাজন কওসরের ভগ্নিপতি এবং বিস্ফোরক পাচারের অন্যতম সহযোগী কাদের এই বাড়িতে ডেরা বেঁধে ছিল।

গত তিন-চারদিন ধরে বাড়ির লোকজন পলাতক ছিল বলে জানিয়েছে প্রতিবেশীরা। তিন বছর ধরে ওই বাড়িতে বসবাস করলেও বাড়ির বাসিন্দাদের খুব একটা দেখা যেত না।

বাড়ির নারীরা বোরখা পড়ে কদাচিৎ বাইরে বেরতেন। প্রতিবেশীদের আরও দাবি, পেশায় রাজমিস্ত্রি কাদের, মাঝে মধ্যেই রাজ্যের বাইরে যেতেন। তখন লোকজনকে বলতেন, চেন্নাই যাচ্ছেন।

এই ঘটনায় সুকুর নামে একজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। জানা গেছে, সুকুর বর্ধমান বিস্ফোরণের মূল সন্দেহভাজন কওসরের ভগ্নিপতি এবং বিস্ফোরক পাচারের অন্যতম সহযোগী কাদেরের ঘনিষ্ঠ বন্ধু।

এদিকে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের মতামতকে প্রাধান্য না দিয়েই ভারতের স্বরাষ্ট্র দপ্তর এনআইএ-কে বর্ধমান বিস্ফোরণকাণ্ডের তদন্ত করতে দিয়েছে। এনআইএ-কে জঙ্গি দমনের জন্য বিশেষভাবে তৈরি করা হয়েছে।

যদিও রাজ্য সরকার পুলিশের গোয়েন্দা দপ্তরের সিআইডি–কে দিয়ে তদন্ত করার কথা জানিয়েছিল তবে কেন্দ্রীয় সরকার এই ঘটনার দায়িত্ব সরাসরি এনআইএ এর হাতে তুলে দিল।
এনআইএ এর তরফে এই ঘটনার তদন্তের জন্য দুটি দল গঠন করা হয়েছে বলে সূত্র জানিয়েছে। একটি দল পশ্চিমবঙ্গে আর অপর দলটি দিল্লিতে কাজ করবে। শুক্রবার থেকেই তদন্তের কাজ শুরু করে দিচ্ছে এনআইএ।

বর্ধমানের খাগড়াগড়ের এই বাড়ির ভাড়াটিয়াদের সঙ্গে বাংলাদেশ, তামিলনাড়ু, উত্তরপ্রদেশ, জম্মু-কাশ্মীর, মুম্বাইসহ দেশ-বিদেশের একাধিক জায়গার কী যোগ ছিল, তা খতিয়ে দেখবে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা।

বর্ধমান বিস্ফোরণের পর উঠে এসেছে, বিস্ফোরক তৈরির জন্য বিপুল পরিমাণ নগদ টাকা পেত জঙ্গি শাকিল এবং হাকিমরা। ওই টাকার উৎস কোথায়? এসব প্রশ্নেরও উত্তর খুঁজবে এনআইএ।

বাংলাদেশ সময়: ১২২৫ ঘণ্টা, অক্টোবর ১০, ২০১৪

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।