ঢাকা, সোমবার, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৭ মে ২০২৪, ১৮ জিলকদ ১৪৪৫

দিল্লি, কলকাতা, আগরতলা

মমতার হাঁটুতে অস্ত্রোপচার আজ

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২৩৩ ঘণ্টা, জুলাই ৬, ২০২৩
মমতার হাঁটুতে অস্ত্রোপচার আজ

কলকাতা: হেলিকপ্টার বিভ্রাটে বাম পায়ে চোট পেয়েছিলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। টানা এক সপ্তাহ ফিজিওথেরাপির পর অস্ত্রোপচারের প্রয়োজন বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

কারণ, তাঁর বাম পায়ের হাঁটুতে পানি জমেছে।  

বৃহস্পতিবার (৬ জুলাই) সরকারি পিজি (এসএসকেএম) হাসপাতালে যাবেন মুখ্যমন্ত্রী।

যদিও মুখ্যমন্ত্রীর ঘনিষ্ঠ মহল জানিয়েছে, উদ্বিগ্ন হওয়ার কিছু নেই। ছোট একটা অস্ত্রোপচার করতে হবে। তিনি সুস্থই আছেন। চিকিৎসকের নির্দেশ মেনেই রাজ্যে পঞ্চায়েত নির্বাচনের প্রচার বন্ধ রেখেছেন তিনি।

গত মঙ্গলবার (২৭ জুন) জলপাইগুড়িতে জনসভা সেরে বাগডোগরা বিমানবন্দরে ফেরার সময়ে দুর্যোগের মধ্যে পড়েছিল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হেলিকপ্টার। প্রাকৃতিক দুর্যোগের মধ্যে পড়ায় মুখ্যমন্ত্রীর হেলিকপ্টার জরুরি অবতরণ করানো হয় শিলিগুড়ির সেবক এয়ার বেসে। জানা যায়, হেলিকপ্টার বিভ্রাটে আঘাত পেয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী।

ওদিনই বাগডোগরা থেকে কলকাতা বিমানবন্দরে নেমে বিকেল সাড়ে পাঁচটা নাগাদ পিজি (এসএসকেএম) হাসপাতালে চলে আসেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এরপর রাত্রি ৮টা নাগাদ হাসপাতালের অধিকর্তা মণিময় বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছিলেন, মুখ্যমন্ত্রীর এমআরআই করা হয়েছে। তাঁর বাম হাঁটুর লিগামেন্টে চোট রয়েছে। আঘাত লেগেছে হিপ জয়েন্টেও। চিকিৎসকরা তাঁকে হাসপাতালে থাকার পরামর্শ দিলেও রাজি হননি মমতা। জানিয়েছিলেন, বাড়িতে থেকেই প্রয়োজনীয় চিকিৎসা করাতে চান তিনি।

এরপর থেকে টানা একসপ্তাহ চিকিৎসকরা ফিজিওথেরাপি করে তাঁকে স্থিতিশীল জায়গায় নিয়ে এসেছেন। মুখ্যমন্ত্রীর চিকিৎসায় পাঁচ সদস্যের একটি মেডিক‌্যাল বোর্ড গঠন করা হয়েছে।

বুধবার সেই বোর্ড একপ্রস্থ নিজেদের মধ্যে আলোচনা করে নিয়েছেন। ডা. মণিময় বন্দ্যোপাধ্যায়, ফিজিক্যাল মেডিসিন অ্যান্ড রিহ্যাবিলিটেশন ও হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ দুই চিকিৎসক গোটা বিষয়টি খতিয়ে দেখেন। প্রয়োজনে অর্থোপেডিকের বিভাগীয় প্রধানসহ দুই চিকিৎসককে থাকতে বলা হয়েছে। সব ঠিকঠাক থাকলে এদিন (৬ জুলাই) তাঁর একটি ছোট অপারেশন হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১২২৮ ঘণ্টা, জুলাই ০৬, ২০২৩
ভিএস/আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।