ঢাকা, বুধবার, ৫ মাঘ ১৪২৮, ১৯ জানুয়ারি ২০২২, ১৫ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

শুদ্ধাচার চর্চা ও দুর্নীতি প্রতিরোধের মাধ্যমে সুশাসন প্রতিষ্ঠা সম্ভব

নিউজ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১০০৩ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১, ২০২১
শুদ্ধাচার চর্চা ও দুর্নীতি প্রতিরোধের মাধ্যমে সুশাসন প্রতিষ্ঠা সম্ভব ছবি: সংগৃহীত

চট্টগ্রাম: চা বোর্ড চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল মো. আশরাফুল ইসলাম বলেছেন, সুখী-সমৃদ্ধ সোনার বাংলা গড়ার প্রত্যয়ে সরকার ২০১২ সালে জাতীয় শুদ্ধাচার কৌশল প্রণয়ন করেছে। কর্মক্ষেত্রে শুদ্ধাচার চর্চা ও দুর্নীতি প্রতিরোধের মাধ্যমে রাষ্ট্র ও সমাজে সুশাসন প্রতিষ্ঠা করা সম্ভব।

 

কর্মক্ষেত্রে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত করে প্রত্যেক কর্মকর্তা ও কর্মচারীর ওপর অর্পিত দায়িত্ব আইনকানুন মেনে যথাযথভাবে পালন করতে হবে এবং সেবাগ্রহীতাদের নির্ধারিত সময়ে সেবা দেওয়া নিশ্চিত করতে হবে।  

বাংলাদেশ চা বোর্ডের সভাকক্ষে মঙ্গলবার (৩০ নভেম্বর) ‘জাতীয় শুদ্ধাচার কৌশল’ বিষয়ক দিনব্যাপী প্রশিক্ষণ কোর্সে তিনি এসব কথা বলেন।

চা বোর্ডের ২০২১-২২ অর্থবছরের জাতীয় শুদ্ধাচার কর্মকৌশল বাস্তবায়নের অংশ হিসেবে বোর্ডের ১৫ জন কর্মকর্তা ও কর্মচারী প্রশিক্ষণ কোর্সে অংশ নেন।

বাংলাদেশ চা বোর্ডের চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল মো. আশরাফুল ইসলাম এবং বোর্ডের সদস্য (অর্থ ও বাণিজ্য) ও যুগ্মসচিব ড. নাজনীন কাউসার চৌধুরী প্রশিক্ষণ কোর্সে প্রশিক্ষক হিসেবে কর্মক্ষেত্রে শুদ্ধাচার চর্চা ও সুশাসন প্রতিষ্ঠার নানা বিষয়ে বক্তব্য দেন।

ড. নাজনীন কাউসার চৌধুরী বলেন, শুদ্ধাচার প্রতিষ্ঠায় আর্থিক ব্যবস্থাপনার উন্নয়ন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। নির্ধারিত সময়ে বাজেট ও বার্ষিক ক্রয় পরিকল্পনা প্রণয়ন, ব্যয়ের ক্ষেত্রে বাজেট কোড ও পিপিআরের নিয়ম যথাযথভাবে অনুসরণ করতে হবে।

তিনি কর্মক্ষেত্রে উন্নত কর্মপরিবেশ নিশ্চিত করার প্রতিও গুরুত্বারোপ করেন।   

বাংলাদেশ চা বোর্ডের ভারপ্রাপ্ত সচিব মোহাম্মদ রুহুল আমীন কোর্স পরিচালক এবং প্রশাসনিক কর্মকর্তা মোহাম্মদ আমিরুল ইসলাম খান প্রশিক্ষণে কোর্স সমন্বয়কের দায়িত্ব পালন করেন।

বাংলাদেশ সময়: ১০০০ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০১, ২০২১
এআর/এসি/টিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa