ঢাকা, সোমবার, ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮, ১৭ মে ২০২১, ০৪ শাওয়াল ১৪৪২

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

চট্টগ্রামে শুরু হয়নি হেলে পড়া ভবন ভাঙার কাজ, দেখা নেই চউক কর্মকর্তাদের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২২৭ ঘণ্টা, এপ্রিল ১১, ২০২১
চট্টগ্রামে শুরু হয়নি হেলে পড়া ভবন ভাঙার কাজ, দেখা নেই চউক কর্মকর্তাদের ছবি: সোহেল সরওয়ার

চট্টগ্রাম: নগরের এনায়েত বাজার গোয়ালপাড়া এলাকায় ভবন হেলে পড়ার ঘটনার ১৬ ঘণ্টা পেরিয়ে গেলেও ঘটনাস্থলে আসেনি চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (চউক) কোনো কর্মকর্তা। ভবন ভেঙে পড়ার শঙ্কায় এলাকায় আতঙ্ক বিরাজ করলেও শুরু হয়নি ভাঙার কাজ।

রোববার (১১ এপ্রিল) সরেজমিন ঘুরে দেখা যায়, পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মকর্তারা এলাকাটি ঘিরে রেখেছেন। ভবনের ফটকে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে সতর্ক বার্তা। সরিয়ে নেওয়া হয়েছে ভবনের বাসিন্দাসহ আশপাশের কয়েকটি ঘরের বাসিন্দাদের।

তবে চউক’র সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে না আসায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন স্থানীয়রা।  

হেলে পড়া ভবনের অবস্থা দেখতে ঘটনাস্থলে আসেন চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র রেজাউল করিম চৌধুরী। তিনি সাংবাদিকদের বলেন, ঝুঁকিপূর্ণ ভবন অদক্ষ লোকবল দিয়ে ভাঙার চেষ্টা করা হলে আরও ঝুঁকি বাড়বে। তাই ভবন অপসারণের বিষয়ে চউক’র কারিগরি সহযোগিতা নেওয়া জরুরি। কোনো অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা যাতে না ঘটে সেদিকটাও খেয়াল রাখতে হবে।

তিনি আরও বলেন, চউক শুধু ভবনের অনুমোদন দিলে হবে না। নকশা অনুযায়ী ভবন নির্মাণ হচ্ছে কি-না তা সঠিকভাবে তদারকি করা প্রয়োজন।

ভবনের মালিক কার্তিক ঘোষের ছেলে রাজু ঘোষ বাংলানিউজকে বলেন, চউক এর সব নির্দেশনা মেনেই ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। ৫ তলা ভবন নির্মাণের অনুমোদনও রয়েছে।

এর আগে শনিবার (১০ এপ্রিল) রাত সাড়ে ৯টার দিকে গোয়ালপাড়ায় পাঁচতলা ভবনটি হেলে পড়ে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা উদ্ধার তৎপরতা শুরু করেন।  

আরও খবর >> এনায়েত বাজারে হেলে পড়লো ৫ তলা ভবন

বাংলাদেশ সময়: ১২২০ ঘণ্টা, এপ্রিল ১১, ২০২১
এমএম/এসি/টিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa