ঢাকা, রবিবার, ২৮ চৈত্র ১৪২৭, ১১ এপ্রিল ২০২১, ২৭ শাবান ১৪৪২

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

দেশের জিডিপি বাড়াতে অবদান রাখবে এইচএম স্টিল: জাবেদ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬৩৬ ঘণ্টা, মার্চ ৬, ২০২১
দেশের জিডিপি বাড়াতে অবদান রাখবে এইচএম স্টিল: জাবেদ

চট্টগ্রাম: এইচএম ইন্ডাস্ট্রি লিমিটেডে যদি কর্মস্থানের সুযোগ হয় অবশ্যই করবেন। তবে অন্যায় আবদার করা যাবে না।

যাতে প্রতিষ্ঠানের কোনো ক্ষতি না হয়। এটা মনজুর আলমের প্রতিষ্ঠান নয়, এটা দেশের সম্পদ। দেশের জিডিপি বাড়াতে এই প্রতিষ্ঠান ব্যাপক ভূমিকা রাখবে।  

শনিবার (৬ মার্চ) মোস্তফা হাকিম গ্রুপের সহযোগী প্রতিষ্ঠান এইচএম স্টিল অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি লিমিটেডের আনুষ্ঠানিক উৎপাদন কার্যক্রমের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ এসব কথা বলেন।

জাবেদ বলেন, এই প্রতিষ্ঠানের সাথে অনেকেই জড়িত। ব্যাংক, এলাকার মানুষ, প্রতিষ্ঠান- সবাই জড়িত। প্রতিষ্ঠান যদি কোনোভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হয়, তাহলে এর সঙ্গে জড়িত সবাই ক্ষতির সম্মুখীন হবে।  

ভূমিমন্ত্রী বলেন, মনজুর সাহেব আমার অত্যন্ত আপনজন। তাকে আমি মুরব্বি হিসেবে দেখি। তিনি একজন দানবীর মানুষ। মোস্তফা-হাকিম গ্রুপের অনেক দাতব্য প্রতিষ্ঠান আছে। তারা নিরবে দান করেন। দেশ এবং জাতির কল্যাণে কাজ করেন।

তিনি বলেন, মনজুর সাহেব আমাকে জানালেন- আপনার এলাকায় একটি ইন্ডাস্ট্রি করতে যাবো। আমি বললাম- করেন। আমার সহযোগিতা থাকবে। তিনি সবকিছু সুন্দরভাবে ব্যবস্থা করেছেন। সবার সহযোগিতা নিয়ে কাজ করেছেন বলেই আমার কাছে কোনো অভিযোগ আসেনি।  

জাবেদ বলেন, কর্ণফুলী উপজেলা চট্টগ্রামের জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ উপজেলা। এখানে অনেক ভারি ও হালকা শিল্প প্রতিষ্ঠান হয়েছে। এ শিল্পায়নের মাধ্যমে এ অঞ্চলের গুরুত্ব আরও বৃদ্ধি পাবে। আমি এ প্রতিষ্ঠানের সাথে সংশ্লিষ্ট সবাইবে অনুরোধ করবো- যেন এলাকার স্থানীয় লোকদের অগ্রাধিকার ভিত্তিতে কর্মস্থানের সুযোগ দেওয়া হয়।

তিনি বলেন, আমিও ব্যক্তি জীবনে একজন ব্যবসায়ী। আমারও ইন্ডাস্ট্রি আছে। যদিও মনজুর সাহেবের মতো এতো বেশি ইন্ডাস্ট্রির মালিক আমি না। হতেও পারবো না। মনজুর আলমের সঙ্গে তুলনা করলে আমি কুটির শিল্প ক্যাটাগরির লোক, আর মনজুর সাহেব হলেন ভারি শিল্পের লোক।

ভূমিমন্ত্রী বলেন, প্রতিষ্ঠান যদি ভালো করে, তাহলে এলাকাবাসীও লাভবান হবে। মনজুর সাহেব খুব ভালো মানুষ। মানুষের প্রতি তিনি অন্যায় করেন না। তিনি মানুষের মধ্যে থেকেই কাজ করেন। খুব দয়ালু মানুষ। দাওয়াত দেওয়ার কারণে এখানে তার গুনগান বলছি না। ওনি আসলেই একজন ভালো মানুষ।

জাবেদ বলেন, করোনার কারণে সবাই বন্দি ছিলাম। জিন্দা কবরে ছিল মানুষ। ৬ থেকে ৭ মাস মানুষ ঘর থেকে বের হয়নি। অনেক আপনজন হারিয়েছি। তবে ২০২১ সালের মাঝামাঝি সময়ে আমরা একটা ভালো অবস্থানে যাবো। ইতোমধ্যে ভ্যাকসিন দেওয়া শুরু হয়েছে গেছে৷ 

তিনি বলেন, বাংলাদেশের ভ্যাকসিন ইউরোপের মধ্যে ব্যাপক সাড়া জাগিয়েছে। সবাইকে ভ্যাকসিন নেওয়ার আহ্বান জানাচ্ছি। কারণ আপনার কারণে অন্যজন ক্ষতিগ্রস্থ হবে। ভ্যাকসিন নিলেও মাস্ক ছাড়া বের হবেন না। ভ্যাকসিন নিয়ে সর্তক অবস্থানে থাকবেন। দু'সপ্তাহ ঘরে থাকবেন।

ভূমিমন্ত্রী বলেন, এলাকায় আরও অনেক শিল্প প্রতিষ্ঠান হবে। শিল্প প্রতিষ্ঠানের মালিকরা যেন এলাকার গরীব মানুষদের চাকরির সুযোগ করে দেয়। ইতোমধ্যে রাস্তা সম্প্রসারণের কাজ হাতে নিয়েছি। আশা করি খুব স্বল্প সময়ের মধ্যে শেষ হবে।  

তিনি বলেন, এখান থেকে নদী কাছে। মালামাল নদী পথে নিয়ে যাবেন। তাহলে এলাকার রাস্তাগুলো ভালো থাকবে। এলাকার উন্নয়নে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। তবেই এলাকার মানুষ সুখে শান্তিতে দিন কাটাতে পারবে।  

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সংসদ সদস্য দিদারুল আলম বলেন, বঙ্গবন্ধু দেশ স্বাধীন না করলে আজ শিল্প কারখানার যে ব্যাপক উন্নয়ন সাধিত হচ্ছে, তা হতো না।  

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৬০টি ব্যাংকের অনুমোদন দিয়েছেন। আপনারা ব্যবসায়ীদের বিনিয়োগ করবেন। সবার সহযোগিতার মাধ্যমে আমরা বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন করতে পারবো।

সভাপতির বক্তব্যে এইচএম ইন্ডাস্ট্রি লিমিটেডের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মনজুর আলম বলেন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ আমাদের অনেক সহযোগিতা করেছে। এখানে অনেক শিল্প প্রতিষ্ঠান হচ্ছে- তাই এখানকার রাস্তাগুলো উন্নত হওয়া দরকার।  

তিনি বলেন, এই এলাকার মানুষ অনেক ভাগ্যবান। এখানে অনেক শিল্প প্রতিষ্ঠান হচ্ছে। আপনাদের সহযোগিতার কারণেই এসব কিছু সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে পরিচালিত হচ্ছে।  

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ শওকত জামিল এবং মোস্তফা হাকিম গ্রুপের পরিচালক মোহাম্মদ সরওয়ার আলম।  

স্বাগত বক্তব্য রাখেন মোস্তফা হাকিম গ্রুপের মহাব্যবস্থাপক নিপু চৌধুরী। এইচএম স্টিল লিমিটেডর উদ্বোধনী কার্যক্রমের বিস্তারিত বর্ণনা দেন প্রতিষ্ঠানটির জিএম বোরহান উদ্দিন আহমেদ।  

বাংলাদেশ সময়: ১৬৩৩ ঘণ্টা, মার্চ ০৬, ২০২১
এমএম/টিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa