ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১২ ফাল্গুন ১৪২৭, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৩ রজব ১৪৪২

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

বিএনপির মেয়র হওয়া চট্টলার কলঙ্কজনক অধ্যায় হবে: আহমদ হোসেন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০০৯ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৭, ২০২১
বিএনপির মেয়র হওয়া চট্টলার কলঙ্কজনক অধ্যায় হবে: আহমদ হোসেন বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন

চট্টগ্রাম: বিএনপি-জামায়াতের প্রার্থী মেয়র হলে বীর চট্টলার জন্য কলঙ্কজনক অধ্যায় হবে- এমন মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আহমদ হোসেন। রোববার (১৭ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় নগরের থিয়েটার ইনস্টিটিউটে দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।


আসন্ন চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) এবং দক্ষিণ জেলার বিভিন্ন পৌরসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে এ সভার আয়োজন করা হয়।

আহমদ হোসেন বলেন, আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী রেজাউল করিম বীর সন্তান, বীর মুক্তিযোদ্ধা। বীর চট্টলায় বীর সন্তান হবে মেয়র। বীর চট্টলায় জামায়াত-বিএনপির লোক মেয়র হতে পারে না, পারে না। যদি বিএনপি-জামায়াতের প্রার্থী মেয়র হয়, এটি বীর চট্টলার জন্য অপমানের হবে, কলঙ্কজনক অধ্যায় হবে।  
আওয়ামী লীগ নেতা-কর্মীদের মাঠে নামার নির্দেশ দিয়ে তিনি বলেন, মাঠে নেমে যান। রেজাউলকে জিতিয়ে আনুন। ২৭ তারিখ নির্বাচনে রেজাউলকে জিতিয়ে সারা দেশকে বার্তা দিতে চাই। জনগণ আওয়ামী লীগের পক্ষে।

আওয়ামী লীগের জন্য চসিক নির্বাচন বড় চ্যালেঞ্জের উল্লেখ করে আহমদ হোসেন বলেন, এই নির্বাচনে আমাদের জয় ছাড়া বিকল্প নেই। জিততে হলে জনগণের ভোটে জিততে হবে। আমরা শান্তিপূর্ণ পরিবেশ চাই। সুষ্ঠু নির্বাচনের মাধ্যমে জিততে চাই।

তিনি বলেন, গতকাল দেশে ৬০টি পৌরসভায় নির্বাচন হয়েছে। এখন বিএনপি আর কথা বলতে পারছে না।  ৬২ শতাংশ ভোট কাস্ট হয়েছে। এখন বিএনপি কী বলবে? রাতে ভোট হয়ে গেছে! দিনে ভোট হয়নি! 

'টকশোতে গেলাম, একজন বিএনপির নেতা বলছে রাতে ভোট হয়ে গেছে। আমি বলছি, আপনি কি রাতে জয়ী হয়েছেন না দিনে? তিনি বলেন, দিনে জয়ী হয়েছেন। আমি বললাম, আপনি হলেন দিনে আর আমরা রাতে হয়েছি! রাতের বেলা রাষ্ট্র দখল করেছে কে, জিয়াউর রহমান। আপনারা রাতে রাষ্ট্র দখল করেন, আর আমরা দিনের বেলা জনগণের ভোটে জয়ী হই। ' যোগ করেন আহমদ হোসেন।

তিনি বলেন, বিএনপি হলো রক্তশূন্য পার্টি। যখন মানুষের শরীর রক্তশূন্য হয়ে যায়, তখন মানুষের বেঁচে থাকা খুব কঠিন। সে কারণে বিএনপি এখন খুব দুর্বল। তাদের মাথা নেই, লিডারশিপ শূন্য। তাদের নেতা খালেদা জিয়া চুরি করেছে, দুর্নীতি করেছে। সেই নেত্রী তাদের নেতা।  

খালেদা জিয়া বর্বরতার নেত্রী দাবি করে চট্টগ্রাম বিভাগে দায়িত্বপ্রাপ্ত এই নেতা বলেন, বিএনপির রাজনীতি গাড়ি পুড়ো, আগুন দাও, সন্ত্রাসী করো। এসব কুকর্ম তাদের মধ্যে বিরাজমান। বিএনপি হচ্ছে জামায়াত, রাজাকার ও আলবদরদের সুরক্ষার পার্টি।  

'মৌলবাদীরা যখন ভাস্কর্যে আঘাত করলো, তখনতো বিএনপি নীরব ছিল। সার্কিট হাউসে জিয়াউর রহমানের ভাস্কর্য আছে, সেটা টাচ করেনি। তাদের মূল উদ্দেশ্য জঙ্গিদের ক্ষমতায়ন। তাই তারা বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভেঙে, দেশের স্বাধীনতাকে মুছে দিতে চায়। '

তিনি বলেন, তারা ভেবেছিল বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভেঙে, অস্থিতিশীল পরিবেশ সৃষ্টি করে দেশে ক্ষমতা দখল করবে। আবার পাকিস্তান জিন্দাবাদ, পাকিস্তানকে আনা যাবে। তাদের এটি দিবাস্বপ্ন। জীবনেও তারা ক্ষমতায় আসতে পারবে না। বঙ্গবন্ধুর আদর্শের কর্মীরা জীবনের মায়া করে না। তারা দেশকে ভালোবাসে, দেশের জন্য জীবন বিলিয়ে দেন। জনগণের জন্য যদি জীবন বিলিয়ে দিই, জনগণ পাশে না থেকে কোথায় যাবে?

বাংলাদেশের অর্থের পাইপলাইন চট্টগ্রাম উল্লেখ করে আহমদ হোসেন বলেন, অর্থনীতি তৈরি হয় চট্টগ্রাম থেকে। বন্দরে যখন কোনো পণ্য আসে তখন এখন থেকে সবখানে যায়। চট্টগ্রামে বিভিন্ন দেশ থেকে পণ্য আসে। এসব পণ্য জাহাজ থেকে আনলোড হয়। লোডিং আনলোডিং বন্ধ হয়ে গেলে, বাংলাদেশের অর্থের পাইপ লাইন বন্ধ হয়ে যাবে।  

বিএনপি জামায়াত দ্বারা পরিচালিত দাবি করে তিনি বলেন, দেশের প্রধানমন্ত্রী কোন মার্কা, কেবিনেট চালায় কারা, ক্ষমতায় যারা আছেন তারা কোন মার্কা? সবাই নৌকা। সুতরাং দেশের দ্বিতীয় গুরুত্বপূর্ণ এই বিভাগে ভাইসাবরা আসবেন? আসবেন না! এই ভাইসাবরা, রাজাকারের লেজ জামায়াতের লেজ। বিএনপির হেডলাইট হচ্ছে জামায়াত। জামায়াতের নির্দেশনায় বিএনপি পরিচালিত হয়।  

দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি, সংসদ সদস্য মোছলেম উদ্দিন আহমদের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিভিন্ন পৌরসভার মেয়র প্রার্থীরা উপস্থিত ছিলেন। বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি আবু সুফিয়ান।  

মোছলেম উদ্দিন আহমদ বলেন, নগরের ৪০ শতাংশ ভোটার দক্ষিণ চট্টগ্রামের। তাই সব নেতা-কর্মীকে মাঠে নেমে রেজাউলকে জয়ী করে আনতে হবে। এ জন্য সবাইকে নিজ নিজ জায়গা থেকে জনগণের কাছে ভোট চাইতে হবে।

>> কর্নেল অলি দেশের সবচেয়ে কুখ্যাত ব্যক্তি: মাহবুবুল আলম খোকা

বাংলাদেশ সময়: ১৮০৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৭, ২০২১
জেইউ/টিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa