ঢাকা, রবিবার, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ০৬ ডিসেম্বর ২০২০, ১৯ রবিউস সানি ১৪৪২

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

বিভাগীয় সভাপতির বিরুদ্ধে ‘অতিরিক্ত কাজ করানোর’ অভিযোগ কর্মচারীর

ইউনিভার্সিটি করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৪৪ ঘণ্টা, অক্টোবর ২২, ২০২০
বিভাগীয় সভাপতির বিরুদ্ধে ‘অতিরিক্ত কাজ করানোর’ অভিযোগ কর্মচারীর

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়: চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) রসায়ন বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক ড. শাহানারা বেগমের বিরুদ্ধে ওই বিভাগের এক কর্মচারী তাকে দিয়ে অতিরিক্ত কাজ করানোর অভিযোগ এনেছেন।  

বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) কর্মচারী অনীল চন্দ্র দাস এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছেন।

 

লিখিত অভিযোগে অনীল চন্দ্র দাস উল্লেখ করেন, ‘রসায়ন বিভাগের বর্তমান সভাপতি দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকে পাহাড়ের মাটি কাটা, পাহাড়ে সবজি চাষ, পাহাড় থেকে লাকড়ি কাটা, পাহাড়ের জঙ্গল পরিষ্কার, রসায়ন বিভাগের বাইরে ও ভেতরে বিশাল এলাকা জুড়ে ফুল ও ফল বাগানের নানা ভারি কাজ আমাকে দিয়ে করান। ’

‘আমার দায়িত্ব শুধুমাত্র ঝাড়ু দেওয়া ও বাথরুম পরিষ্কার হলেও সভাপতি অমানবিকভাবে আমাকে দিয়ে অনেক কাজ করাচ্ছেন। এমনকি ফুল ও ফল বাগানে বিষ প্রয়োগের মত কাজও তিনি আমাকে দিয়ে করান। এসব কাজ করতে গিয়ে বিষক্রিয়ায় আমি অসুস্থ হয়ে পড়েছি। এ বিষয়টি বিভাগের সভাপতিকে জানালে তিনি আমাকে অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ ভাষায় গালিগালাজ করেন৷ তবুও আমি আপত্তি না জানিয়ে কাজ করছি। ’

‘এক পর্যায়ে আমার হার্টে রোগ ধরা পড়ে। যার কারণে গত ৮ থেকে ১১ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের হৃদরোগ বিভাগে চিকিৎসাধীন ছিলাম। এরপর চিকিৎসক ১৪ দিন বিশ্রামে থাকতে বলেন। চবি মেডিকেল সেন্টারের চিকিৎসকও একই নির্দেশ দেন। বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অফিস থেকে এ ছুটি অনুমোদন করা হয। তাছাড়া বিশ্ববিদ্যালয় নিয়মানুযায়ী চিকিৎসা ছুটি আমার অধিকার। কিন্তু রসায়ন বিভাগের সভাপতি বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়মকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে আমার বিরুদ্ধে দায়িত্ব ও কর্তব্য পালনে অবহেলার মনগড়া অভিযোগ দেন। ’

অভিযোগকারী অনিল চন্দ্র দাস বাংলানিউজকে বলেন, আমি আমার অভিযোগগুলো রেজিস্ট্রার বরাবর জানিয়েছি। আশাকরি সুষ্ঠু সমাধান পাবো।

এ বিষয়ে রসায়ন বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক ড. শাহনারা বেগমের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বাংলানিউজকে বলেন, একটা ঝাড়ুদারের কথা শুনে আপনি ডিপার্টমেন্টের চেয়ারম্যানকে কেন ফোন করবেন। কথা বলতে হলে অফিসে আসবেন।

চবি রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) এসএম মনিরুল ইসলাম বাংলানিউজকে বলেন, আমরা চিঠি পেয়েছি। সবার বক্তব্য শুনে ব্যবস্থা নেব।

বাংলাদেশ সময়: ২১৪২ ঘণ্টা, অক্টোবর ২২,২০২০
এমএ/এসকে/টিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa