ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৭ শ্রাবণ ১৪২৭, ১১ আগস্ট ২০২০, ২০ জিলহজ ১৪৪১

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

লবণের সংকট সৃষ্টি করলে শাস্তি

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮১৮ ঘণ্টা, নভেম্বর ২০, ২০১৯
লবণের সংকট সৃষ্টি করলে শাস্তি ছবি: উজ্জ্বল ধর

চট্টগ্রাম: বাজারে লবণের স্বল্পতা সম্পর্কে ছড়ানো গুজবে কান না দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন জেলা প্রশাসক (ডিসি) মো. ইলিয়াস হোসেন।

বুধবার (২০ নভেম্বর) সকালে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে লবণ মিল মালিকসহ সংশ্লিষ্টদের নিয়ে আয়োজিত সভায় তিনি এ পরামর্শ দেন।

জেলা প্রশাসক বলেন, লবণের দাম বাড়ার গুজব ছড়িয়ে কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করলে কঠোর শাস্তি দেওয়া হবে।

ভ্রাম্যমাণ আদালত মাঠে নেমেছে। গুজব রটনাকারীদের আইনের আওতায় আনা হচ্ছে। লবণের কোনো স্বল্পতা নেই। বর্তমানে দেশে যে পরিমাণে লবণ মজুদ রয়েছে তা চাহিদার চেয়েও অনেক বেশি।

তিনি বলেন, অসাধু ব্যবসায়ীদের একটি সিন্ডিকেট বিভ্রান্তিকর তথ্য ছড়িয়ে ফায়দা লুটার চেষ্টা করছে। বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য জনগণের প্রতি আহ্বান জানান তিনি।

জেলা প্রশাসক বলেন, চট্টগ্রাম ও কক্সবাজারের লবণ দিয়ে সারাদেশ প্রায় তিন মাস চলতে পারবে। চট্টগ্রামের মিল মালিকদের সঙ্গে আমাদের কথা হয়েছে। তারা আজ (বুধবার) থেকেই খোলাবাজারে ১৫ টাকা দরে লবণ বিক্রি করবেন। তাছাড়া খুচরা বাজারে কোথাও ৩০ টাকার বেশি দরে কেউ লবণ বিক্রি করতে পারবেন না। ক্রেতাদের প্রতি অনুরোধ থাকবে, কেউ ৩০ টাকার বেশি টাকা দিয়ে লবণ কিনবেন না। আগামী ৬ মাসের মধ্যে লবণের সংকট হওয়ার কোন সম্ভাবনা নেই। যদি কোনও অসাধু চক্র লবণের মজুদ করে বা বেশি দামে বিক্রি করে তাহলে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জানা গেছে, ১৫ নভেম্বর পর্যন্ত দেশে সাড়ে ৬ লাখ মেট্রিক টন লবণ মজুদ ছিল। চলতি বছরে রেকর্ড পরিমাণ ১২.২৪ লাখ মেট্রিক টন লবণ উৎপাদিত হয়েছে, যা লক্ষ্যমাত্রার চেয়েও বেশি।

বাংলাদেশ সময়: ১৩১৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ২০, ২০১৯
এসি/টিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa