bangla news

তুখোড় ছাত্রনেতা রানা...

​সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১১-১৮ ৯:০২:১০ পিএম
মোতাহার হোসেন রানা

মোতাহার হোসেন রানা

চট্টগ্রাম: একসময়ের তুখোড় ছাত্রলীগ নেতা মোতাহার হোসেন রানা। মিরসরাই থানা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সদস্য। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে সম্প্রতি রানার একটি ছবি ঘুরছে।

রানার সুচিকিৎসা ও পুনর্বাসন চেয়ে নগরের কোতোয়ালী থানা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক হাসান মনসুর একটি স্ট্যাটাসও দিয়েছেন। যাতে তিনি বলেছেন-

আমরা যখন ছাত্র রাজনীতিতে প্রবেশ করি - তখন ফেসবুক ছিল না। দৈনিক পত্রিকায় ‘বাংলাদেশ ছাত্রলীগের’ সাংগঠনিক কর্মকাণ্ডের খবরাখবরেই জানতে পারতাম ডাকসাইটে ছাত্রনেতাদের নাম। সে রকমই একজন মোতাহার হোসেন রানা। মিরসরাই থানা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য (মাইনুদ্দিন - ইকবালুর রাহীম)। 

১৯৯০ দশকে স্বৈরাচার এরশাদেরবিরোধী ছাত্র আন্দোলনে - ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের প্রথম কাতারের নেতা ছিলেন তিনি। আমার নিজেরও স্পষ্ট মনে আছে চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে তার জ্বালাময়ী ভাষণের স্মৃতি। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের এক সভায় তৎকালীন বিরোধীদলীয় নেত্রী, আজকের মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সামনে তিনি ৫ মিনিট বক্তব্য দেওয়ার সুযোগ পেয়েছিলেন।  বক্তব্য শুনে নেত্রী এতো খুশি হয়েছিলেন তার নাম-ঠিকানা মঞ্চে সবার সামনে ডায়েরিতে টুকে নিয়েছিলেন। 

ছবির এ উদভ্রান্ত, ভগ্ন শরীরের, দারিদ্র্যের ছাপযুক্ত এই মানুষটিই সেই মাঠ কাঁপানো সাবেক ছাত্রলীগ নেতা রানা৷ গত ১৬ নভেম্বর ছিল উপজেলা আওয়ামী লীগের কাউন্সিল।...তারই ভিড়ে একাকী দর্শকের চেয়ারে পাবলিক হয়ে বসেছিলেন একসময়ের তুখোড় নেতা রানা ভাই। সভামঞ্চে তার হাতে গড়া কর্মী, সহযোদ্ধাদের অনেকেই থাকলেও কেউ তার খবর নেননি, কেউ বলেনি আপনি স্টেজে আসুন। দলের সুদিনে অতীতের এরকম একজন ত্যাগী নেতার পাশে কি আমরা দাঁড়াতে পারি না?...একজন রাজনৈতিক কর্মীর শেষ জীবনের এরকম করুণ পরিণতি আমাদের কারোরই কাম্য নয়।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে হাসান মনসুর বাংলানিউজকে বলেন, আমি ব্যক্তিগতভাবে তার ঠিকানা সংগ্রহ করেছি। মিরসরাইয়ের বড়তাকিয়া বাজারের দক্ষিণ পাশে। তার তিন ছেলে, তিন মেয়ে। সন্তানদের নিয়ে খুব কষ্টে আছেন।ইতিমধ্যে কিছু ফেসবুক বন্ধু তার পাশে দাঁড়ানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। দু’এক দিনের মধ্যে তার সঙ্গে দেখা করবো।

অপর এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, আমরা মানবিক দৃষ্টিকোণ থেকে তার পাশে দাঁড়াতে চাই। কিন্তু রানার দীর্ঘস্থায়ী চিকিৎসা ও পুনর্বাসনের বিষয়টি বঙ্গবন্ধু কন্যার নজরে আনতে হবে।    

বাংলাদেশ সময়: ২০৫৭ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৮, ২০১৯
এআর/টিসি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   চট্টগ্রাম
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2019-11-18 21:02:10