ঢাকা, সোমবার, ৭ শ্রাবণ ১৪২৬, ২২ জুলাই ২০১৯
bangla news

সরকারের দৃষ্টিভঙ্গির কারণে প্রবাসীরা বিনিয়োগে আগ্রহী

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৬-১৯ ৮:১১:৫৬ পিএম
বক্তব্য দেন সিসিসিআই সভাপতি মাহবুবুল আলম

বক্তব্য দেন সিসিসিআই সভাপতি মাহবুবুল আলম

চট্টগ্রাম: ইউকে-বাংলাদেশ ক্যাটালিস্ট অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির (ইউকেবিসিসিআই) সভাপতি বজলুর রশিদ বলেছেন, ব্রিটেনে সরাসরি ব্যবসা-বাণিজ্যে জড়িত দেড় লাখ বাংলাদেশি ওই দেশের অর্থনীতিতে ৫ বিলিয়ন পাউন্ড অবদান রাখছে। বাংলাদেশের দ্রুতগতির প্রবৃদ্ধি ও সরকারের ইতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গির কারণে প্রবাসীরা দেশে বিনিয়োগে আগ্রহী।

বুধবার (১৯ জুন) আগ্রাবাদের ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের বঙ্গবন্ধু কনফারেন্স হলে দি চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন। ২২ সদস্যের বাণিজ্য প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেন তিনি।  

বাংলাদেশে বিনিয়োগ বৃদ্ধি এ সফরের মূল লক্ষ্য উল্লেখ করে বজলুর রশিদ যৌথ বিনিয়োগে শিল্পায়ন, ব্যবসা-বাণিজ্য ও সে দেশের উপযোগী করে দক্ষ মানবসম্পদ তৈরিতে প্রশিক্ষণ কেন্দ্র স্থাপনের আগ্রহ প্রকাশ করেন।

তিনি ব্যাংক, বিদ্যুৎ ও অবকাঠামো খাতে বিনিয়োগের উল্লেখ করে বৈদেশিক মুদ্রা প্রত্যাবাসন পদ্ধতি সহজীকরণের অনুরোধ জানান।

চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম বলেন, ইউকে প্রবাসী বাংলাদেশিরা উভয় দেশের অর্থনীতিতে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে এবং সে দেশে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উন্নয়নে কাজ করছে।

তিনি প্রতিনিধিদলকে ফার্মাসিউটিক্যালস, সিরামিক, চামড়া ও চামড়াজাত পণ্য, পাট ও পাটজাত পণ্য, হিমায়িত মৎস্য, হস্তশিল্প, প্লাস্টিক ও ফার্নিচার ইত্যাদি খাতে বিনিয়োগের আহ্বান জানান।

চেম্বার সভাপতি উভয় দেশের বেসরকারি খাতের মধ্যে সহযোগিতা বৃদ্ধি, বাণিজ্য সফরের সুযোগ সৃষ্টি, চট্টগ্রাম বন্দরসহ অবকাঠামোগত উন্নয়নে সহায়তার ওপর গুরুত্বারোপ করেন। এ ছাড়া বাংলাদেশের অর্জিত সমুদ্রসীমায় অর্থনৈতিক সুফল লাভে সহযোগিতা প্রত্যাশা করে ব্রেক্সিট পরবর্তী সময়ে বাংলাদেশের সঙ্গে ব্যবসা-বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্প্রসারণ এবং রফতানিযোগ্য দক্ষ মানবসম্পদ তৈরিতে যৌথভাবে প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট স্থাপনের অনুরোধ জানান।

সভায় চেম্বারের সাবেক সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার আলী আহমেদ, নবনির্বাচিত পরিচালক এসএম আবু তৈয়ব, সাবেক পরিচালক মাহফুজুল হক শাহ, প্রতিনিধিদলের সদস্য ব্যারিস্টার আনোয়ার বাবুল, রহিমা মিয়া ও অলি খান।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন  চেম্বারের সহ-সভাপতি সৈয়দ জামাল আহমেদ, পরিচালক একেএম আক্তার হোসেন, জহিরুল ইসলাম চৌধুরী আলমগীর, মো. অহীদ সিরাজ চৌধুরী স্বপন, মো. জহুরুল আলম, অঞ্জন শেখর দাশ, মো. শাহরিয়ার জাহান, মো. আবদুল মান্নান সোহেল, নবনির্বাচিত পরিচালক মহিউদ্দিন চৌধুরী, তাজমীম মোস্তফা চৌধুরী, সাকিফ আহমেদ সালাম, শাহজাদা মো. ফৌজুল আলেফ খান, ব্যবসায়ী নেতা তাহের সোবহান, রিহ্যাব পরিচালক ও রিজিওনাল কমিটির কো-চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার মো. দিদারুল হক চৌধুরী, উইম্যান চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সিনিয়র সহ-সভাপতি আবিদা মোস্তফা ও সহ-সভাপতি ডা. মুনাল মাহবুব, চট্টগ্রাম জেলা দোকান মালিক সমিতির সভাপতি সালেহ আহমেদ সুলেমান, চট্টগ্রাম ফ্রেশ ফ্রুটস ভেজিটেবলস এক্সপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মাহবুব রানা, বাগদাদ গ্রুপের মোহাম্মদ আজাদ খান প্রমুখ।  

আলোচনা শেষে প্রতিনিধি দল বিটুবি মিটিংয়ে অংশগ্রহণ করেন এবং ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের এক্সিবিশন হল পরিদর্শন করেন।

বাংলাদেশ সময়: ২০০০ ঘণ্টা, জুন ১৯, ২০১৯
এআর/টিসি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   চট্টগ্রাম
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-06-19 20:11:56