ঢাকা, মঙ্গলবার, ৮ শ্রাবণ ১৪২৬, ২৩ জুলাই ২০১৯
bangla news

বাবাদের চোখে খুশির ঝিলিক, ঈদের খুশি

আল রাহমান, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৬-১৬ ৮:৫৮:৫৬ পিএম
বাবা দিবসে নতুন ছাতা, পাঞ্জাবি ও লুঙ্গি উপহার দেন সমাজ’র সদস্যরা।

বাবা দিবসে নতুন ছাতা, পাঞ্জাবি ও লুঙ্গি উপহার দেন সমাজ’র সদস্যরা।

চট্টগ্রাম: চলতি পথে অপ্রত্যাশিত নতুন লুঙ্গি, পাঞ্জাবি আর ছাতা পেয়ে বাবাদের চোখে খুশির ঝিলিক, ঈদের খুশি। কেউ আবেগে কেঁদে ফেলেন। বুকে ঝরিয়ে ধরেন সম্মিলিত মানবিক জাগরণের (সমাজ) সদস্যদের।

বিশ্ব বাবা দিবসে রোববার (১৬ জুন) সকাল থেকে নগরের ডিসি হিল, সিআরবি, টাইগারপাস, ওয়াসা, কাজীর দেউড়ি মোড় আর জামালখানের ৫৩ জন অবহেলিত বাবার মুখে হাসি ফুটিয়েছে ‘সমাজ’।

এসব বাবার গড় বয়স ৭০। কেউ রিকশার প্যাডেল চেপে, কেউ কুলিগিরি বা দিনমজুরি করে, কেউ ঝালমুড়ি বেচে, কেউ আবার মানসিক সমস্যায় জর্জরিত হয়ে ভবঘুরে জীবন কাটাচ্ছেন। এ বয়সে মাথার ঘাম পায়ে ফেলে জীবিকা নির্বাহ করছেন তারা।       

সমাজের সদস্যদের মধ্যে বাবা দিবসে উপহারের ডালি নিয়ে বেরিয়েছিলেন অনুপম দেবনাথ, মিশু পাল, রাজিব দত্ত, রুবেল কুমার দেব, অংকন বৈদ্য, এনেল শর্মা, অভিষেক, শিপন রায় চৌধুরী প্রমুখ। তাদের পরনে ছিল ‘সমাজ’র লোগোসহ হলুদ টিশার্ট।

৫৩ জন অবহেলিত বাবার মুখে হাসি ফুটিয়েছে ‘সমাজ’।অনুপম দেবনাথ বাংলানিউজকে বলেন, জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক কেন্দ্রিক গ্রুপ ‘সমাজ’। প্রতিবছর মা দিবস ও বাবা দিবস ব্যতিক্রমভাবে উদযাপন করি আমরা। যাতে সমাজকে নাড়া দেওয়া যায়। আজ বাবা দিবসে রহিম চাচা, সুকুমার কাকা, ছগির চাচা, কেশব কাকাসহ ৫৩ জনকে সামান্য উপহার সামগ্রী দিতে পেরেছি। আমাদের সাধ ছিল কিন্তু সাধ্য ছিল না। আমরা মর্মে মর্মে উপলব্ধি করেছি, ৭০ বছর বয়সে যে বাবাটি ভাড়া রিকশা চালাচ্ছেন তাকে যদি একটি নতুন রিকশা উপহার দিতে পারতাম! কিংবা যে কুলি বাবা দু’মুঠো খাওয়ার জন্য, মোটা কাপড় পরার জন্য কঠোর পরিশ্রম করছেন তাকে যদি একটি পানের বাক্স দিয়ে বসিয়ে দিতে পারতাম!

আমরা মনে করি সমাজের বিত্তবানদের এগিয়ে আসতে হবে। তবেই সমাজের সব বাবার মুখে হাসি ফুটবে। দেশ এগিয়ে যাবে।

এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, সরকার যে বয়স্কভাতা দিচ্ছে সেই খবর অনেক প্রবীণরা জানেন না। অথবা জানলেও কীভাবে তা পাবেন তা জানেন না। বিষয়টিও বিবেচনায় নিতে হবে জনপ্রতিনিধিদের।

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৪ ঘণ্টা, জুন ১৬, ২০১৯
এআর/টিসি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   চট্টগ্রাম
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-06-16 20:58:56