bangla news

ঈদের আগেই পিসি ও এক্সেস রোড চলাচল উপযোগী হবে

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৫-২২ ৭:১৬:২০ পিএম
পিসি রোডে কার্পেটিং কাজের উদ্বোধন করেন মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন

পিসি রোডে কার্পেটিং কাজের উদ্বোধন করেন মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন

চট্টগ্রাম: ঈদের আগেই নগরের গুরুত্বপূর্ণ পোর্ট কানেকটিং (পিসি) ও আগ্রাবাদ এক্সেস রোড শতভাগ যানবাহন চলাচলের উপযোগী করা হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন।

বুধবার (২২ মে) পিসি রোডের নিমতলা এবং পোর্ট কানেকটিং জংশনে আগ্রাবাদ এক্সেস রোডের কার্পেটিংয়ের কাজ উদ্বোধনকালে মেয়র এ ঘোষণা দেন।

মেয়র বলেন, এ দু’টি সড়কের উন্নয়নকাজ চলাকালীন এ এলাকার বাসিন্দারা অনেক কষ্ট সহ্য করেছেন। চট্টগ্রাম বন্দরের সঙ্গে এ সড়ক দু’টি সরাসরি সংযুক্ত। প্রতিদিন প্রায় ১০-১২ হাজার গাড়ি এ সড়ক দু’টি দিয়ে চলাচল করে। ব্যস্ততম সড়ক দু’টির কাজের গুণগতমান উন্নততর করা হচ্ছে। এ কাজের গুণগতমান দেখভাল করছেন জাইকার বিশেষজ্ঞ দল। সড়ক দু’টিতে প্রায় সাড়ে ৯ ইঞ্চি পুরু এবং ৩টি ফেইসে কার্পেটিং করা হবে।

তিনি বলেন, আসন্ন ঈদের আগেই পোর্ট কানেকটিং রোডের নিমতলা থেকে তাসফিয়া  পর্যন্ত রাস্তার পূর্বাংশ এবং বেপারিপাড়া থেকে এক্সেস রোডের দক্ষিণাংশ মিডিয়ান ব্লকসহ কার্পেটিং লেয়ারের কাজ শতভাগ সম্পন্ন করে জনচলাচলের উপযোগী করা হবে। এ লক্ষ্যে রাস্তা দু’টিতে গাড়ি চলাচলের উপযোগী এবং বর্যা মৌসুমে জনভোগান্তি লাঘবে নিরলসভাবে কাজ করছে চসিক।

কার্পেটিং কাজ চলছে পিসি ও এক্সেস রোডে। সিটি মেয়র আরও বলেন, অনেক প্রতিকূলতা ও বাধা পেরিয়ে উভয় পাশেই আরসিটি ড্রেন, ৫টি কালভার্ট ও উভয় পাশে ওয়াটর মেকাডাম মিক্সের কাজ সম্পন্ন হয়েছে। কাজটি জাইকার অর্থায়নে হচ্ছে বলে ডিজাইন, ল্যাব পরীক্ষা ইত্যাদি মানতে হচ্ছে। জাইকার অর্থায়নে নগরের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ সড়কের ৫ দশমিক ৭ কিলোমিটার দীর্ঘ এবং ১২০ ফুট প্রশস্ত নিমতলা থেকে তাসফিয়া পর্যন্ত ১০০ কোটি টাকা এবং ২ দশমিক ৩৭৮ কিলোমিটার দীর্ঘ ১২০ ফুট প্রশস্ত বাদামতলি থেকে বড়পুল পর্যন্ত আগ্রাবাদ এক্সেস রোড ৫১ কোটি টাকা ব্যয়ে উন্নয়ন করা হচ্ছে। এ প্রকল্পে রাস্তার দু’পাশে ২ মিটার প্রশস্ত আরসিটি ড্রেন ও ফুটপাত নির্মাণের কাজ শেষ হয়েছে। আর রাস্তার মাঝখানে আড়াই ফুট প্রশস্ত মিডিয়ান নির্মাণ ও এলইডি আলোকায়নের কাজ চলমান রয়েছে।

ইতিমধ্যে পিসি রোড ও আগ্রাবাদ এক্সেস রোডের নাম জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং সাবেক মেয়র এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী নামে নামকরণ করা হয়েছে।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন চসিকের প্রধান প্রকৌশলী লে. কর্নেল মহিউদ্দিন আহমদ, অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী রফিকুল ইসলাম মানিক, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী সুদীপ বসাক, ঝুলুন কুমার দাশ, আবু সাদাত মোহাম্মদ তৈয়ব, বিপ্লব দাশ, অসীম বড়ুয়া প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ১৯১০ ঘণ্টা, মে ২২, ২০১৯
এআর/টিসি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   চট্টগ্রাম চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-05-22 19:16:20