ঢাকা, সোমবার, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ২৭ মে ২০১৯
bangla news

বাস চালককে পিটিয়ে হত্যা, ধর্মঘটে অনড় শ্রমিক নেতারা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৪-২৪ ৮:৩৯:২৫ পিএম
পরিবহন ধর্মঘটের কারণে বন্ধ বাস কাউন্টার। ছবি: উজ্জ্বল ধর

পরিবহন ধর্মঘটের কারণে বন্ধ বাস কাউন্টার। ছবি: উজ্জ্বল ধর

চট্টগ্রাম: পুলিশ পরিচয়ে বাস চালককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ এনে বিচারের দাবিতে চট্টগ্রামে ৪৮ ঘণ্টার পরিবহন ধর্মঘট পালনের ঘোষণা দিয়েছেন শ্রমিক নেতারা।

শ্রমিক নেতাদের অনড় অবস্থানের কারণে ভেস্তে গেছে প্রশাসনের সঙ্গে সমঝোতা বৈঠকও।

বুধবার (২৪ এপ্রিল) বিকেলে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজে জেলা প্রশাসক মো. ইলিয়াস হোসেন এবং পুলিশ সুপার নুরে আলম মিনার সঙ্গে সমঝোতা বৈঠকে বসেন শ্রমিক নেতারা।

বৈঠকে প্রশাসনের পক্ষ থেকে জেলা প্রশাসক মো. ইলিয়াস হোসেন নিহত বাস চালক জালাল উদ্দিনের পরিবারকে ১ লাখ টাকা আর্থিক সহায়তা এবং ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত শেষে দ্রুত অপরাধীদের আইনের আওতায় আনার আশ্বাস দেন। জনদুর্ভোগের কথা বিবেচনা করে পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহারে শ্রমিক নেতাদের অনুরোধ জানান।

তবে জেলা প্রশাসকের অনুরোধে তাৎক্ষণিক পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহারের কোনো সিদ্ধান্ত দেননি পরিবহন শ্রমিক নেতারা। বৃহস্পতিবার (২৫ এপ্রিল) দুপুর ১২টা পর্যন্ত সময় নিয়েছেন তারা।

জানতে চাইলে পূর্বাঞ্চলীয় সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি মৃণাল চৌধুরী বাংলানিউজকে জানান, জেলা প্রশাসক এবং পুলিশ সুপারের সঙ্গে শ্রমিক নেতাদের বৈঠকে পরিবহন ধর্মঘট ডাকার প্রেক্ষাপট নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে। বৈঠকে প্রশাসনের পক্ষ থেকে ক্ষতিপূরণ এবং দোষীদের আইনের আওতায় আনার আশ্বাস দেওয়া হয়।

তিনি জানান, তবে আমরা পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাহার করিনি। ঘোষণা অনুযায়ী পরিবহন ধর্মঘট অব্যাহত থাকবে। বৃহস্পতিবার (২৫ এপ্রিল) বেলা ১১টায় আমরা জরুরি সভা ডেকেছি। সেখান থেকে পরবর্তী ঘোষণা দেওয়া হবে।

এর আগে মঙ্গলবার (২৩ এপ্রিল) সন্ধ্যায় সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের নেতারা বুধবার (২৪ এপ্রিল) সন্ধ্যা ৬টা থেকে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত আন্তঃজেলার ৬৮টি এবং আরাকান সড়ক সংলগ্ন স্থানীয় ১৯টি সড়কে ২৪ ঘণ্টার যাত্রীবাহী পরিবহন ধর্মঘট এবং রোববার (২৮ এপ্রিল) সকাল ৬টা থেকে সোমবার সকাল ৬টা পর্যন্ত বৃহত্তর চট্টগ্রামে পণ্য ও যাত্রীবাহী পরিবহন ধর্মঘটের ডাক দেন।

কর্ণফুলী থানায় হত্যা মামলা

এদিকে পুলিশ পরিচয়ে বাস চালক জামাল উদ্দিনকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় নগরের কর্ণফুলী থানায় মামলা দায়ের করেছেন তার ছোট ভাই জুয়েল হোসেন। বুধবার (২৪ এপ্রিল) সকালে জুয়েল হোসেন বাদি হয়ে ৮-১০ জন অজ্ঞাত ব্যক্তিকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে কর্ণফুলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর মাহমুদ বাংলানিউজকে জানান, বাস চালককে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় তার ভাই বাদি হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন। মামলাটি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৩৫ ঘণ্টা, এপ্রিল ২৩, ২০১৯
এমআর/টিসি

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-04-24 20:39:25