bangla news

কায়সারের ফাঁসিতে গণজাগরণ মঞ্চের আনন্দ মিছিল

243 |
আপডেট: ২০১৪-১২-২৩ ৬:১৪:০০ এএম
ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

আন্তর্জাতিক মানবতা বিরোধী অপরাধ ট্রাইব্যুনালে এরশাদের কৃষি প্রতিমন্ত্রী জাহিদ হোসেন ওরফে খোকন রাজাকারকে মৃত্যুদন্ডের আদেশ দেয়ায় চট্টগ্রামে আনন্দ মিছিল করেছে গণজাগরণ মঞ্চ। মঙ্গলবার দুপুরে চট্টগ্রামের গণজাগরণ মঞ্চের সদস্য সচিব ডা.চন্দন দাশের নেতৃত্বে নগরীর চেরাগির মোড় থেকে মিছিল বের হয়।

চট্টগ্রাম: আন্তর্জাতিক মানবতা বিরোধী অপরাধ ট্রাইব্যুনালে এরশাদের কৃষি প্রতিমন্ত্রী  জাহিদ হোসেন ওরফে খোকন রাজাকারকে মৃত্যুদন্ডের আদেশ দেয়ায় চট্টগ্রামে আনন্দ মিছিল করেছে গণজাগরণ মঞ্চ।

মঙ্গলবার দুপুরে চট্টগ্রামের গণজাগরণ মঞ্চের সদস্য সচিব ডা.চন্দন দাশের নেতৃত্বে নগরীর চেরাগির মোড় থেকে মিছিল বের হয়।

মিছিলটি আন্দরকিল্লা, জামালখান, মোমিনরোড, প্রেসক্লাব হয়ে আবারও চেরাগির মোড়ে এসে শেষ হয়।

মিছিলে মুক্তিযোদ্ধা ও সাংস্কৃতিক সংগঠক অমল কান্তি নাথ, আবৃত্তিকার পঞ্চানন চৌধুরী, উদীচী চট্টগ্রাম জেলা সংসদের সহ সভাপতি সুনীল ধর, প্রমা আবৃত্তি সংগঠনের সভাপতি রাশেদ হাসান, উদীচীর সহ সাধারণ সম্পাদক জয় সেন, শিক্ষিকা সালমা জাহান মিলি, সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী তরুণ উদ্যোগের যুগ্ম আহ্বায়ক প্রীতম দাশ ও রুবেল দাশ প্রিন্স, জেলা ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি শিমুল বৈঞ্চব, জেলা ফ্রন্টের সাধারণ সম্পাদক পার্থ প্রতিম নন্দী  অংশ নেন।

মিছিল শেষে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশে গণজাগরণ মঞ্চের সংগঠকরা বলেন, যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের পাশাপাশি স্বাধীনতা বিরোধী সংগঠন জামায়াত ইসলামীর বিচার করতে হবে। যত দ্রুত সম্ভব এ লক্ষ্যে আইন প্রণয়ণ করে জামায়াতকে বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড় করাতে হবে।

তারা বলেন, আপিল বিভাগ কামারুজ্জামানের মৃত্যুদণ্ডের চূড়ান্ত রায় দিয়েছে। এ রায় সকল আইনি প্রক্রিয়া শেষ করে দ্রুত কার্যকর করতে হবে। এছাড়া ট্রাইব্যুনালে যেসব যুদ্ধাপরাধীর ফাঁসির রায় হয়েছে অবশিষ্ট আইনি প্রক্রিয়া শেষ করে এ রায় দ্রুত কার্যকরের উদ্যোগ নিতে হবে।

মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে জাতীয় পার্টির সাবেক নেতা সাবেক প্রতিমন্ত্রী সৈয়দ মোহাম্মদ কায়সারকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-২। মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে নিজের নামে ‘কায়সার বাহিনী’ ‍গঠন করে যুদ্ধাপরাধ সংঘটনকারী হবিগঞ্জ মহকুমার এ রাজাকার কমান্ডারের বিরুদ্ধে ১৬টি অভিযোগের মধ্যে হত্যা-গণহত্যা, ধর্ষণ, নির্যাতন, আটক, মুক্তিপণ আদায়, অগ্নিসংযোগ ও লুণ্ঠন এবং ষড়যন্ত্রের ১৪টিই প্রমাণিত হওয়ায় তাকে সর্বোচ্চ এ দণ্ডাদেশ দেওয়া হয়েছে। 

বাংলাদেশ সময়: ১৭১৪, ডিসেম্বর ২৩,২০১৪

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2014-12-23 06:14:00