bangla news
ঈদে বাড়ি ফেরা

রেলের অগ্রিম টিকেট বিক্রি শুরু: প্রথমদিনে চাহিদা কম

957 |
আপডেট: ২০১৪-০৯-২৬ ৫:২৫:০০ এএম
ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে অগ্রিম টিকেট বিক্রি শুরু করেছে বাংলাদেশ রেলওয়ে। শুক্রবার সকাল থেকে চট্টগ্রাম রেল স্টেশনে ১ অক্টোবরের টিকেট দেওয়া হয়। প্রথমদিনে টিকেটের চাহিদা কম বলে জানিয়েছেন রেলওয়ে কর্মকর্তারা। তবে শনিবার থেকে চাহিদা বাড়বে বলে ধারণা করছেন তারা।

চট্টগ্রাম: পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে অগ্রিম টিকেট বিক্রি শুরু করেছে বাংলাদেশ রেলওয়ে। শুক্রবার সকাল থেকে চট্টগ্রাম রেল স্টেশনে ১ অক্টোবরের টিকেট দেওয়া হয়।

প্রথমদিনে টিকেটের চাহিদা কম বলে জানিয়েছেন রেলওয়ে কর্মকর্তারা। তবে শনিবার থেকে চাহিদা বাড়বে বলে ধারণা করছেন তারা।

চট্টগ্রাম রেল স্টেশনের ব্যবস্থাপক আবুল কালাম আজাদ বাংলানিউজকে বলেন, শুক্রবার সকাল ৯টা থেকে আটটি ট্রেনের অগ্রিম টিকেট বিক্রি শুরু হয়। প্রথমদিন পহেলা অক্টোবরের টিকেট দেওয়া হয়েছে। পর্যায়ক্রমে বাকি চারদিনের টিটেক বিক্রি করা হবে।

বিকেল তিনটা পর্যন্ত বিভিন্ন ট্রেনের পর্যাপ্ত টিকেট কাউন্টারে রয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, ১ অক্টোবর সরকারি অফিস খোলা থাকায় প্রথমদিনের অগ্রিম টিকেটের চাহিদা কম। তবে দ্বিতীয়দিন থেকে চাহিদা বাড়তে পারে।

অগ্রিম টিকেট নিতে রাত থেকেই লাইনে দাঁড়িয়েছেন হাজার হাজার যাত্রী। প্রথমদিন অধিকাংশ লোকই টিকেট পেয়েছেন। তবে শিডিউল না মেলায় খালি হাতে ফিরে গেছেন এমন যাত্রীর সংখ্যাও রয়েছে।

এদিকে ১ থেকে ১৫ অক্টোবর পর্যন্ত  রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলে ৩৭টি আন্তঃনগর ট্রেনের সাপ্তাহিক ছুটি বাতিল করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের মহাব্যবস্থাপক মোজাম্মেল হক।

শুক্রবার সকালে টিকেট বিক্রি কার্যক্রম পরিদর্শনে এসে এ সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে তিনি বলেন, এতে করে ৫০ থেকে ৬০ হাজার অতিরিক্ত যাত্রী পরিবহন করা সম্ভব হবে। পাশাপাশি বিশেষ ট্রেন চালু, বাড়তি ৭২ কোচ সংযোজনেরও সিদ্ধান্ত হয়েছে।

আসন্ন ঈদুল আজহা উপলক্ষে রেলের অগ্রিম টিকেট বিক্রি শুরু হয় শুক্রবার থেকে। প্রথমদিনে বিক্রি হয় ১ অক্টোবরের টিকেট। শনিবার ২ অক্টোবর, রোববার ৩ অক্টোবর, সোমবার ৪ অক্টোবর ও মঙ্গলবার ৫ অক্টোবরের টিকেট বিক্রি করা হবে।

প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত রেলওয়ে স্টেশনে এই টিকেট বিক্রি কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন স্টেশন ম্যানেজার আবুল কালাম আজাদ।

তিনি জানান, ফিরতি টিকেট বিক্রি কার্যক্রম শুরু হবে ৩ অক্টোবর থেকে। ৩ অক্টোবর বিক্রি করা হবে ৭ অক্টোবরের ফিরতি টিকেট। একইভাবে ৪ তারিখে ৮ অক্টোবরের, ৫ তারিখে ৯ অক্টোবরের, ৭ তারিখে ১০ ও ১১ অক্টোবরের টিকেট বিক্রি হবে। একজন সর্বোচ্চ চারটি করে টিকেট সংগ্রহ করতে পারবে।

টিকেট কালোবাজারি রোধে রেলওয়ের মনিটরিং কমিটি নিয়মিত কাজ করছে জানিয়ে তিনি বলেন, এদিকে লাইনে দাড়ানো ছাড়াও টিকেট সংগ্রহ করা যাবে। মোট টিকেটের ২৫ শতাংশ টিকেট অনলাইন ও মোবাইলে পাওয়া যাবে।

বাংলাদেশ সময়: ১৫২৬ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১৪

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2014-09-26 05:25:00