bangla news
গাজায় হামলা

আরবলীগ ও ওআইসি’র ভূমিকায় হতাশ আল্লামা শফী

596 |
আপডেট: ২০১৪-০৭-১৭ ১২:১৫:০০ পিএম

ফিলিস্তিনি জনগণের উপর ইসরাইলের হামলায় আরবলীগ ও অরগাইজেশন ফর ইসলামিক কান্ট্রিজের (ওআইসি) নিরব ভূমিকায় হতাশা প্রকাশ করেছেন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমির আল্লামা শাহ আহমদ শফী।

চট্টগ্রাম: ফিলিস্তিনি জনগণের উপর ইসরাইলের হামলায় আরবলীগ ও অরগাইজেশন ফর ইসলামিক কান্ট্রিজের (ওআইসি) নিরব ভূমিকায় হতাশা প্রকাশ করেছেন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমির  আল্লামা শাহ আহমদ শফী।

বৃহস্পতিবার আমিরের প্রেস সচিব মাওলানা মুনির আহমদ স্বাক্ষরিত গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে শফী এ হতাশা প্রকাশ করেন।

এছাড়া গাজায় হামলার ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে শুক্রবার বাদ জুমা দেশের প্রতিটি মসজিদে বিশেষ দোয়া ও মুনাজাত পরিচালনার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

বিবৃতিতে আল্লামা শফী বলেন, ফিলিস্তিনি নিরীহ জনগণের ওপর ইসরাইলের ইহুদী বাহিনী সপ্তাহব্যাপী বর্বর হামলা চালিয়ে অসংখ্য নিষ্পাপ শিশু, নারী ও নিরীহ জনতাকে হত্যা করেছে। এটা কোনভাবে শান্তিকামী বিশ্ব মেনে নিতে পারে না। গাজায় ইসরাইলের যে আগ্রাসন চলছে, তা নীতি-নৈতিকতা ও মানবাধিকারের চরম লঙ্ঘন।

বিশ্বের সব মুসলমান একে অপরের ভাই। রমজানে যেভাবে ইসরাইল গণহত্যা চালাচ্ছে, তাতে সব মুসলমানের ঐক্যবদ্ধ প্রতিবাদ এবং মুসলিম দেশসমূহের জোরদার ভূমিকা খুবই জরুরি। অথচ দুর্ভাগ্যজনকভাবে ফিলিস্তিনের গণহত্যা বন্ধে প্রভাবশালী মুসলিম দেশগুলোর কোন ভূমিকাই লক্ষ্য করা যাচ্ছে না। বিশেষ করে আরবলীগ ও ওআইসি’র ভূমিকা চরম হতাশাজনক বলেও জানান আল্লামা শফী।

আন্তর্জাতিক আইনের প্রতি বৃদ্ধাঙ্গুলি প্রদর্শন করে ইসরাইল যেভাবে ফিলিস্তিনী মা ও শিশুদের উপর নির্বিচারে হামলা চালাচ্ছে, তা আইয়্যামে জাহিলিয়ার বর্বতাকেও হার মানিয়েছে বলেও বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়। 

গাজায় ইসরাইলী আগ্রাসন ও গণহত্যা বন্ধের প্রতিবাদে ইসরাইলের সঙ্গে কূটনৈতিক ও বাণিজ্যিকসহ সব ধরণের সম্পর্কচ্ছেদ এবং ইহুদীদের উৎপাদিত পণ্য বর্জনের পদক্ষেপ নিতে বিশ্বের শান্তিকামী মুসলিম দেশসমূহের প্রতি আহবান জানানো হয় বিবৃতির মাধ্যমে।
 
বাংলাদেশ সময় : ২২০৪ ঘন্টা, জুলাই ১৭, ২০১৪

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2014-07-17 12:15:00