ঢাকা, বুধবার, ২১ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৫ আগস্ট ২০২০, ১৪ জিলহজ ১৪৪১

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

যৌতুকের জন্য নির্যাতন

সদরঘাট থানার এএসআই’র বিরুদ্ধে স্ত্রী’র মামলা

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৪-০৬-১০ ০৬:০৩:০০ পিএম
সদরঘাট থানার এএসআই’র বিরুদ্ধে স্ত্রী’র মামলা ইশরাত সুলতানা

চট্টগ্রাম: যৌতুকের জন্য স্ত্রীকে নির্যাতনের অভিযোগে দায়ের হওয়া একটি মামলায় নগরীর সদরঘাট থানার এএসআই মুছা মিয়ার বিরুদ্ধে আদালতে মামলা দায়ের হয়েছে। একই মামলায় আরও তিনজনকে আসামী করা হয়েছে।



মঙ্গলবার মুছা মিয়ার স্ত্রী ইশরাত সুলতানা বাদি হয়ে চট্টগ্রামের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক মো.রেজাউল করিমের আদালতে মামলাটি দায়ের করেন। আদালত মামলার এজাহারে আনা অভিযোগ তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য চট্টগ্রামের মুখ্য মহানগর হাকিমকে দায়িত্ব দিয়েছেন বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।

চট্টগ্রাম নগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ কমিশনার মুহাম্মদ রেজাউল মাসুদ বাংলানিউজকে মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মামলার বাকি তিন আসামী হলেন, মুছা’র ভাই সিরাজ মিয়া ও ধীরাজ মিয়া এবং সিরাজের স্ত্রী দিল আফরোজ।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, মিরসরাই উপজেলার জোরারগঞ্জ থানার বারইয়ারঢালা এলাকার জাকির হোসেনের ছেলে এএসআই মুছার ২০১৩ সালের ১৩ সেপ্টেম্বর একই উপজেলার মধ্যম সোনাপাহাড় গ্রামের আবদুল্লাহ ভূঁইয়ার মেয়ে ইশরাত সুলতানার বিয়ে হয়। মুছা ইশরাতকে নিয়ে নগরীর দারোগাহাট এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকতেন।

বিয়ের পর থেকে মুছা ইশারাতকে যৌতুকের জন্য মারধর করতেন। দু’লক্ষ টাকা যৌতুকের জন্য গত ৪ জুন থেকে ৭ জুন পর্যন্ত বিভিন্ন সময়ে মুছা ও তার পরিবারের সদস্যরা মিলে ইশরাতের উপর শারীরিক নির্যাতন চালায়। এমনকি তাকে হ্যান্ডকাপ পরিয়েও নির্যাতন করেন এএসআই মুছা।

এ ঘটনায় এএসআই মুছা মিয়াকে ইতোমধ্যে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ দায়িত্ব থেকে সাময়িকভাবে প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৫৮ ঘণ্টা, জুন ১০,২০১৪

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa