bangla news

যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনালের আদলে সংখ্যালঘু নির্যাতনের বিচার দাবি

25 |
আপডেট: ২০১৪-০১-১৮ ৯:২৯:৩৬ এএম
ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

সংখ্যালঘু নির্যাতনের সঙ্গে জড়িতদের যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনালের আদলে বিশেষ ট্রাইবুনাল গঠন করে বিচারের দাবি জানিয়েছে চট্টগ্রামের বিভিন্ন বেসরকারী উন্নয়ন ও নাগরিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

চট্টগ্রাম: সংখ্যালঘু নির্যাতনের সঙ্গে জড়িতদের যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনালের আদলে বিশেষ ট্রাইবুনাল গঠন করে বিচারের দাবি জানিয়েছে চট্টগ্রামের বিভিন্ন বেসরকারী উন্নয়ন ও নাগরিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। একইসঙ্গে তারা নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতা প্রতিরোধে প্রধান প্রধান রাজনৈতিক দলগুলোকে ঐক্যমতের ভিত্তিতে নীতিমালা প্রণয়ণেরও আহ্বান জানিয়েছেন।

শনিবার চট্টগ্রামের জামালখান প্রেসক্লাব চত্বরে উন্নয়ন কর্মীদের যৌথ সংগঠন সিএসডিএফ ও জেলা সামাজিক উদ্যোক্তা পরিষদ আয়োজিত মানববন্ধন ও নাগরিক প্রতিবাদ সভায় এসব দাবি জানানো হয়েছে।

সিএসডিএফ এর চেয়ারপার্সন এস এম নাজের হোসাইনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সভা ও মানববন্ধনে সংহতি জানিয়ে বক্তব্য রাখেন রাঙ্গুনিয়ার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট রেহেনা আক্তার, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলর গিয়াস উদ্দিন, জেলা সামাজিক উদ্যোক্তা পরিষদের সভাপতি এম নাসিরুল হক, বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি আবদুল ওয়াহাব চৌধুরী, জাতীয় সঞ্চালন পরিষদ চট্টগ্রামের সভাপতি কাজী ইকবাল বাহার ছাবেরী, নারীনেত্রী জেসমিন সুলতানা পারু, গনজাগরণ মঞ্চের সমন্বয়ক শরীফ চৌহান, জেলা সামাজিক উদ্যোক্তা পরিষদের সদস্য সচিব অজয় মিত্র শংকু, ইপসার শহিদুল ইসলাম,  নির্মল ফাউন্ডেশনের নুরুল আবচার তালুকদার, পিএসটিসির রফিকুল ইসলাম মজুমদার, সংসপ্তকের সৌরভ বড়ুয়া, উৎস’র মোস্তফা কামাল যাত্রা, প্রশিকার দেলোয়ার হোসেন, উম্মে কুলসুম আরজু প্রমুখ।
   
বক্তারা বলেন, আইনশৃংখলা বাহিনীর দায়িত্বে অবহেলার কারনে কিছু সন্ত্রাসী রাজনৈতিক কর্মকান্ডের নামে দেশকে অচল ও জঙ্গিবাদি অকার্যকর রাস্ট্রে পরিণত করার হুংকার দিচ্ছে। পুলিশ যারা সন্ত্রাসী কর্মকান্ড করছে তাদের না ধরে নিরীহ লোকজনকে হয়রানি করছে।

বক্তারা বলেন, স্বাধীনতা পরবর্তী সময় থেকে সংখ্যালঘুদের নির্যাতনের সঠিক বিচার না হওয়ায় সন্ত্রাসীরা বারবার একই ধরনের ঘটনা ঘটাচ্ছে। ধর্ম-জাতি নির্বিশেষে সকল নাগরিকের সম অধিকারে অঙ্গীকার‍াবদ্ধ বাংলাদেশে এ ধরনের আক্রমণ কোনভাবেই মেনে নেয়া যায় না।

কর্মসূচীতে সংহতি জনিয়েছে প্রশিকা, সাফ, ইলমা, সিআরসিডি, ইপসা, সংসপ্তক, উৎস, নির্মল ফাউন্ডেশন, খেলাঘর চট্টগ্রাম, বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতি, তৃনমুল ফেডারেশন, প্রত্যাশী, পিএসটিসি, পার্ক, ব্রাইট বাংলাদেশ ফোরাম, মমতা, ইশিকা ফাউন্ডেশন, অগ্রযাত্রা, স্বপ্নীল বাংলাদেশ, আইসিডিসিএম, আইএসডিই বাংলাদেশ, ওডেব।

বাংলাদেশ সময়: ২০২৮ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৮,২০১৪
সম্পাদনা: তপন চক্রবর্তী, ব্যুরো এডিটর

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2014-01-18 09:29:36