ঢাকা, বুধবার, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২২ মে ২০২৪, ১৩ জিলকদ ১৪৪৫

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

১১ বছর আগের হেরোইনের মামলায় ২ জনের যাবজ্জীবন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৩৫ ঘণ্টা, মে ১৫, ২০২৪
১১ বছর আগের হেরোইনের মামলায় ২ জনের যাবজ্জীবন ...

চট্টগ্রাম: নগরের ডবলমুরিং থানার কদমতলী বাস স্টেশনে একটি দোকানের সামনে থেকে ১১ বছর আগে ২৫০ গ্রাম হেরোইন উদ্ধারের ঘটনায় ২ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও এক জনকে খালাস দিয়েছে আদালত।  

বুধবার (১৫ মে) চট্টগ্রামের চতুর্থ অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ শরীফুল আলম ভূঁঞার আদালত এই রায় ঘোষণা করেন।

দণ্ডিতরা হলো, আবদুল মালেক ও আবুল হোসেন। খাসালপ্রাপ্ত হলেন, মো. মনির হোসেন।

আদালতের বেঞ্চ সহকারী ওমর ফুয়াদ বাংলানিউজকে বলেন, পাঁচজনের সাক্ষ্য-প্রমাণের ভিত্তিতে ২৫০ গ্রাম হেরোইনের মামলায় আবদুল মালেক ও আবুল হোসেনের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ড, ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ১ বছর বিনাশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন। অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় মো. মনির হোসেনকে খালাস দেওয়া হয়েছে।  
রায়ের সময় আসামি আবুল হোসেন আদালতে উপস্থিত ছিলেন, পরে সাজা পরোয়ানা মূলে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। আব্দুল মালেক পলাতক থাকায় আদালত তার বিরুদ্ধে সাজা পরোয়ানা জারি করেছেন।  

মামলার নথি থেকে জানা যায়, নগরের ডবলমুরিং থানার কদমতলী বাসা স্টেশনে একটি দোকানের সামনে থেকে ২০১৩ সালের ২ এপ্রিল রাতে ৪ জন আসামিকে ২৫০ গ্রাম হেরোইনসহ গ্রেপ্তার করে র‌্যাব-৭। এ ঘটনায় র‍্যাব-৭ এর তৎকালীন উপপরিদর্শক (এসআই) মো. তানভীর আহমেদ ৪ জন আসামির বিরুদ্ধে মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে নগরের ডবলমুরিং থানায় মামলা করেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা তদন্ত শেষে একই বছরের ৩০ জুন আসামিদের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দেন। এরমধ্যে মো. নয়ন নামের এক আসামি মারা যান। ২০১৬ সালের ৭ এপ্রিল ৩ জন আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করে বিচার শুরুর আদেশ দেন।  

বাংলাদেশ সময়: ১৮৩০ ঘণ্টা, মে ১৫, ২০২৪
এমআই/পিডি/টিসি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।