ঢাকা, রবিবার, ৮ বৈশাখ ১৪৩১, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ১১ শাওয়াল ১৪৪৫

চট্টগ্রাম প্রতিদিন

বঙ্গবন্ধুর জন্য মায়াকান্না নয় ধারণ করতে হবে অন্তরে: নাছির

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৩১ ঘণ্টা, মার্চ ১৮, ২০২৩
বঙ্গবন্ধুর জন্য মায়াকান্না নয় ধারণ করতে হবে অন্তরে: নাছির

চট্টগ্রাম: মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ.জ.ম নাছির উদ্দীন বলেছেন, আমরা আজ অনেকেই বঙ্গবন্ধুর জন্য মায়াকান্না করি কিন্তু তাঁকে অন্তরে ধারণ করি না। আবার আমাদের যারা বিরোধী শক্তি মূলত বিএনপি তারা পাকিস্তানের জন্য মায়াকান্না করছে।

যে পাকিস্তান একটি শূন্য রাষ্ট্র। এই দেশ বাংলাদেশ পাকিস্তানী এজেন্ডা বাস্তবায়নে রাজপথে যারা নামতে চায় তাদের রুঁখবো।
তাই আমি মনে করি আবার একাত্তর এসেছে। আমাদের মধ্যে বিভক্তি নেই আবার একাত্তরের ঐক্যকে আমরা চাই।  

শনিবার (১৮ মার্চ) বিকেলে নগরের জেলা পরিষদ চত্বরে বঙ্গবন্ধুর ১০৩ তম জন্মদিন পালন উপলক্ষে মহানগর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন।  

আ.জ.ম. নাছির বলেন, যে মানের বীজ রোপন করা হবে সেই মানের ফলন হবে। বঙ্গবন্ধু গুণগত মানসম্পন্ন বীজ বপন করেছিলেন বলেই বাংলাদেশের স্বাধীনতা ও জাতিসত্তার ফলন প্রাপ্তি সম্ভব হয়েছিল। এখন আমাদের লক্ষ্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সাধারণ মানুষের ৫টি মৌলিক অধিকার বাস্তবায়নে যে অঙ্গীকার নিয়েছেন তার সাথে আমাদের প্রত্যেক নেতাকর্মীদের সম্পৃক্ত হওয়া প্রয়োজন।

চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দীন চৌধুরী বলেন, বঙ্গবন্ধু বাঙালি জাতিসত্তা বিনিমার্ণের মূল কারিগর। তিনি বুঝেছিলেন, স্বাধীন নিজস্ব ভুখণ্ড ছাড়া বাঙালির পরিপূর্ণ মুক্তি ও ভাগ্য পরিবর্তন হবে না। তাই পাকিস্তানী শাসনামলের ২৩ বছর বঙ্গবন্ধু ধাপে ধাপে স্বাধীনতার লক্ষ্যপূরণে এগিয়ে যাচ্ছিলেন এবং তার ৬ দফা ঘোষণার মধ্য দিয়ে জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করে তিনি মুক্তির সনদ বাস্তবায়নে প্রাণিত করেছেন।  

চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনীর সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য রাখেন মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নঈম উদ্দিন চৌধুরী, খোরশেদ আলম সুজন, উপদেষ্টা শফর আলী, যুব ও ক্রীড়া সম্পাদক দিদারুল আলম চৌধুরী, শ্রম সম্পাদক আব্দুল আহাদ ও ধর্ম সম্পাদক জহুর আহমদ প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ২১২৮ ঘণ্টা, মার্চ ১৮, ২০২৩ 
এমআই/টিসি
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।