ঢাকা, বুধবার, ৪ কার্তিক ১৪২৮, ২০ অক্টোবর ২০২১, ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

ক্রিকেট

ইতিহাস গড়তে ১২৯ রান চাই বাংলাদেশের

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৩৭ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ৫, ২০২১
ইতিহাস গড়তে ১২৯ রান চাই বাংলাদেশের ছবি: শোয়েব মিথুন

শুরুর দুই ওভার ভালোভাবেই কাটিয়েছিল নিউজিল্যান্ড। কিন্তু এরপর বাংলাদেশের বোলিং তোপে পতন হয় বেশ কয়েকটি উইকেটের।

তবে শেষদিকে হেনরি নিকোলস ও টম ব্লান্ডেলের দারুণ জুটিতে ভর করে ৫ উইকেট হারিয়ে ১২৮ রানের সম্মানজনক সংগ্রহ পায় কিউইরা।  

ফলে প্রথমবারের মতো নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ জয় নিশ্চিত করতে ১২৯ রান করতে হবে টাইগারদের। যদিও হাতে আরও ২ ম্যাচ বাকি আছে। কিন্তু তার আগেই ইতিহাস গড়ার লক্ষ্য নিয়ে খেলছে মাহমুদউল্লাহবাহিনী।

পাঁচ ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে রোববার শের-ই-বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টসে জিতে ব্যাটিং বেছে নেয় নিউজিল্যান্ড। এটা টাইগার দলপতি মাহমুদউল্লাহর ১০০তম টি-টোয়েন্টি ম্যাচ।  

করোনা নেগেটিভ হয়ে দলে ফেরা ওপেনার ফিন অ্যালেন শুরু থেকেই মারমুখী মেজাজে অবতীর্ণ হন। প্রথম ওভারেই মেহেদিকে দুই বাউন্ডারিতে ১১ রান তুলে নেন এই ওপেনার।

কিন্তু ইনিংসের তৃতীয় ওভারে বোলিংয়ে এসেই ১০ বলে ৩ চারে ১৫ রান করা বিপজ্জনক এই ব্যাটসম্যানকে আউট করেন মোস্তাফিজুর রহমান। মিড-অনে ক্যাচ নেন মাহমুদউল্লাহ।

এরপর জোড়া আঘাত হানেন মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন। এই পেসারের বলে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়েন ২০ বলে ৩ চারে ২০ রান করা উইল ইয়াং। রিভিউ নিয়েও সিদ্ধান্ত পাল্টাতে পারেনি নিউজিল্যান্ড। ওই ওভারের শেষ বলে আবারও এলবিডব্লিউর ফাঁদে পড়েন অভিজ্ঞ কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম (০)। আবারও রিভিউ নেয় নিউজিল্যান্ড। কিন্তু আম্পায়ারের সিদ্ধান্তই সঠিক প্রমাণিত হয়। এরপর আক্রমণে এসে নিজের দ্বিতীয় ওভারে রাচিন রবিন্দ্রকে ফেরান অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ। এরপর ১১তম ওভারে কিউই অধিনায়ক ল্যাথামকে কট অ্যান্ড বোল্ড করেন মেহেদী হাসান।

ল্যাথামের বিদায়ের পর জমে উঠে হেনরি নিকলস ও টম ব্লান্ডেলের জুটি। ৬৬ রানের দুর্দান্ত এক পার্টনারশিপ খেলে দলের জন্য উল্লেখযোগ্য স্কোর এনে দেন এ দু’জন। হেনরি ২৯ বলে ৩৬ রান ও ব্লান্ডেল ৩০ বলে ৩০ রানে অপরাজিত থেকে মাঠ ছাড়েন।  

বল হাতে ২৮ রান খরচায় ২ উইকেট নেন সাইফউদ্দিন। এছাড়া একটি করে উইকেট পান মেহেদি হাসান, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ও মোস্তাফিজুর রহমান।  

নিউজিল্যান্ডের একাদশ: রাচিন রবিন্দ্র, ফিন অ্যালেন, টম ল্যাথাম (উইকেটরক্ষক/অধিনায়ক), কলিন ডি গ্রান্ডহোম, উইল ইয়াং, হেনরি নিকোলস, টম ব্লান্ডেল, কোল ম্যাকনচি, স্কট কুগেলিন, এজাজ প্যাটেল, জ্যাকব ডাফি।

বাংলাদেশের একাদশ: মোহাম্মদ নাঈম, লিটন দাস, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ (অধিনায়ক), আফিফ হোসেন, নুরুল হাসান (উইকেটরক্ষক), মেহেদি হাসান, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, নাসুম আহমেদ ও মোস্তাফিজুর রহমান।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৩৭ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ০৫, ২০২১
এমএইচএম/আরইউ
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa