ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩ বৈশাখ ১৪৩১, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ০৬ শাওয়াল ১৪৪৫

ক্রিকেট

পাকিস্তানকে হারালো দ. আফ্রিকা, দুই দলপতির লজ্জার রেকর্ড

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০১১৩ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৯, ২০১৮
পাকিস্তানকে হারালো দ. আফ্রিকা, দুই দলপতির লজ্জার রেকর্ড দারুণ ব্যাটিং করেছেন হাশিম আমলা-ছবি: সংগৃহীত

ডিন এলগার (৫০) ও হাশিম আমলার (৬৩*) ব্যাটে চড়ে সেঞ্চুরিয়নে সিরিজের প্রথম টেস্টে পাকিস্তানকে ৬ উইকেটে হারিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। তবে ম্যাচের ফলাফল ছাপিয়ে একটা লজ্জার রেকর্ড গড়ে বসেছেন দুই দলের অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ ও ফাফ ডু প্লেসি।

টেস্টের দ্বিতীয় দিনে মাত্র ১৯০ রানে গুটিয়ে গিয়ে প্রোটিয়াদের সামনে ১৪৯ রানের টার্গেট দেয় পাকিস্তান। জবাবে দিনের দ্বিতীয় ওভারেই পাক পেসার হাসান আলীর বলে ওপেনার আইডেন মার্করামের উইকেট হারায় দক্ষিণ আফ্রিকা।

খুব সাবধানে ব্যাট করে লাঞ্চের আগেই দলের ৮১-তে পৌঁছে দেন আমলা-এলগার। যদিও দুজনেই দু’বার ক্যাচ তুলে দিয়েছিলেন, কিন্তু সুযোগ কাজে লাগাতে পারেনি পাকিস্তান। বরং বিরতি শেষে পয়েন্ট অঞ্চলে কাট শটে দারুণ এক বাউন্ডারি হাঁকিয়ে ফিফটি তুলে নেন আমলা। এবছর ইনজুরি আর বাজে ফর্মের পর এই রান বেশ গুরুত্বপূর্ণ। বিগত ১১ ইনিংসে এটি তার প্রথম ফিফটি।

কিছুক্ষণ পর পার্ট-টাইমার শান মাসোদের বলে স্ট্রেইট-ড্রাইভে বাউন্ডারি হাঁকিয়ে ফিফটি তুলে নেন এলগার। কিন্তু পরের বলেই বাজে শট খেলে উইকেটরক্ষকের হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে বিদায় নেন তিনি।

এলগার বিদায় নিলেও আমলার সঙ্গে যোগ দেওয়া থিওনেস দে ব্রুইন দলকে জয়ের দিকে টেনে নেন। পাকিস্তানের লেগ-স্পিন অস্ত্র ইয়াসির শাহ এদিন ছিলেন অনেকটাই বিবর্ণ। দে ব্রুইন উইকেট ছুড়ে না এলে হয়তো উইকেটশুন্য থাকতে হতো আধুনিক ক্রিকেটের অন্যতম সেরা এই লেগ স্পিনারকে। দ্রুত ম্যাচ শেষ করার তাড়ায় ইয়াসিরের বলে এগিয়ে এসে শট খেলতে গিয়ে স্ট্যাম্পিংয়ের শিকার হন ব্রুইন।

দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসিও আগের ইনিংসের ব্যর্থতা জারি রেখে দ্রুত বিদায় নেন। শাহিন আফ্রিদির বলে অযথা পুল শট খেলতে গিয়ে ফাইন লেগে থাকা হাসান আলীর হাতে ধরা দেন প্রোটিয়া অধিনায়ক। এ নিয়ে দুই ইনিংসেই শূন্য রানে আউট হলেন তিনি। একই ম্যাচে দুই ইনিংসে ডাক মেরেছেন পাকিস্তানের অধিনায়ক সরফরাজও। একই ম্যাচের দুই ইনিংসে দুই অধিনায়কের দু'বার ডাক মারার ঘটনা টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাসে এই প্রথম।

পাকিস্তানের বোলারদের দারুণ প্রচেষ্টা ব্যর্থ হয় মূলত দ্বিতীয় ইনিংসের ব্যাটিং ব্যর্থতার কারণে। দক্ষিণ আফ্রিকার প্রথম ইনিংসের হাফ-সেঞ্চুরিয়ান টেম্বা বাভুমা ইয়াসিরের বলে বাউন্ডারি হাঁকিয়ে দলের জয় নিশ্চিত করেন।  

দুই ইনিংস মিলিয়ে ১১ উইকেট নিয়ে ম্যাচসেরা হয়েছেন প্রোটিয়া পেসার ডুয়েন অলিভিয়ের। এই জয়ে সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল দক্ষিণ আফ্রিকা।

বাংলাদেশ সময়: ২০০৫ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৮, ২০১৮
এমএইচএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad