ঢাকা, বুধবার, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২২ মে ২০২৪, ১৩ জিলকদ ১৪৪৫

ক্রিকেট

ফ্লোরিডার জয়ে অনুপ্রেরণা খুঁজছে বাংলাদেশ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২৭ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১৯, ২০১৮
ফ্লোরিডার জয়ে অনুপ্রেরণা খুঁজছে বাংলাদেশ সংবাদ সম্মেলনে সৌম্য সরকার-ছবি: শোয়েব মিথুন-বাংলানিউজ

ঢাকা: গত জুলাইয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে সিরিজের প্রথম টি-টোয়ন্টিতেও উড়ে গিয়েছিলো সফরকারী বাংলাদেশ। সেইন্ট কিটসে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নামা টাইগারদের সাকুল্যে সংগ্রহ ছিল ১৪৩ রান। ম্যাচে বৃষ্টি হানা দিলে ডাক ওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে স্বাগতিকদের জন্য লক্ষ্য নির্ধারিত হয় ৯৩ রান। যা ৩ উইকেটের খরচায় ছুঁয়ে ফেলে কার্লোস ব্র্যাথওয়েট ও তার দল।

সৌম্য সরকার-ছবি: শোয়েব মিথুন-বাংলানিউজবিব্রতকর সেই হারে অবশ্য স্টিভ রোডস শিষ্যরা নুইয়ে পড়েনি। বরং ফ্লোরিডায় দ্বিতীয় ম্যাচ দিয়েই প্রবল বিক্রমে ঘুরে দাঁড়িয়েছিলো।

সেই ভেন্যুতে তৃতীয় ম্যাচটিও নিজেদের করে নিয়ে দেশের বাইরে প্রথম টি-টোয়েন্টি সিরিজ জয়ের সৌরভ গায়ে মাখে লাল সবুজের দল।

ছয় মাসের ব্যবধানে সেই দলটির সঙ্গেই একই অবস্থার মুখোমুখি স্বাগতিক শিবির। সোমবার (১৭ ডিসেম্বর) সিলেটে শাই হোপ ঝড়ে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে ৮ উইকেটে উড়ে গেছে সাকিববাহিনী। সিরিজে ফিরতে দ্বিতীয় ম্যাচে জয়ের কোনো বিকল্প নেই। আর টেস্ট ও ওয়ানেডতে দাপুটে জয়ের পর টি-টোয়েন্টিতেও সিরিজ জয়ে তৃতীয় ম্যাচটি যে কোনো মূল্যে নিজেদের করে নিতে হবে।

দুর্গম সেই মিশনে অবশ্য পিছপা হচ্ছে না বাংলাদেশ। আর এই ক্ষেত্রে তাদের অনুপ্রেরণা হয়ে দাঁড়িয়েছে ফ্লোরিডায় শেষ দুই ম্যাচের অবিস্মরণীয় সেই জয়।

বুধবার (১৯ ডিসেম্বর) মিরপুর শের ই বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামের সম্মেলন কক্ষে এসে সেকথাই জানালেন সৌম্য সরকার। ‘চ্যালেঞ্জ নিতে সবসময়ই প্রস্তুত। একটা ম্যাচ পিছিয়ে আছি আমরা। চেস্টা করবো পরের ম্যাচ থেকে স্ট্রংলি কামব্যাক করার জন্য। শেষ সিরিজেও ওয়েস্ট ইন্ডিজে গিয়ে প্রথম ম্যাচটা হারা ছিলাম। পরবর্তী দুটো ম্যাচে ভালভাবে কামব্যাক করেছি। ওইটাই থাকবে যে প্রথম ম্যাচে যে ভুলগুলো করেছি বা শুরুতেই কিছু উইকেট চলে গিয়েছিলো ওইটা যেন না হয়। ওইটা কাটিয়ে উঠতে পারলে শেষের দিকে ভাল হবে। ’

বৃহস্পতিবার (২০ ডিসেম্বর) মিরপুর শের ই বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় বিকেল ৫টায়।

বাংলাদেশ সময়: ১৫১৮ ঘণ্টা, ১৯ ডিসেম্বর, ২০১৮
এইচএল/এমএমএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।