ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৮ মে ২০২৪, ১৯ জিলকদ ১৪৪৫

ক্রিকেট

৪০ ওভারে কিউদের সংগ্রহ ১৭৬ রান

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০০৫৯ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৯, ২০১৬
৪০ ওভারে কিউদের সংগ্রহ ১৭৬ রান ৪০ ওভারে কিউদের সংগ্রহ ১৭৬ রান/ ছবি: সংগৃহীত

দলীয় ১০৭ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ব্যাকফুটে যাওয়া স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড পঞ্চম উইকেটের দুই ব্যাটসম্যান নেইল ব্রুম ও লুক রনকির ব্যাটে বেশ ভালোই প্রতিরোধ গড়েছিল।

ঢাকা: দলীয় ১০৭ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ব্যাকফুটে যাওয়া স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড পঞ্চম উইকেটের দুই ব্যাটসম্যান নেইল ব্রুম ও লুক রনকির ব্যাটে বেশ ভালোই প্রতিরোধ গড়েছিল। কিন্তু তাদের প্রতিরোধের পথে বাধ সাধলেন পেসার তাসকিন আহমেদ।

৩৭তম ওভারে তাসকিনের তৃতীয় বলে তানবির হায়দারের হাতে ক্যাচ তুলে দিয়ে লুক রনকি প্যাভিলিয়নে ফিরলে স্বাগতিকদের রানের চাকা মন্থর হয়ে পড়ে। তবে সে মন্থর চাকাকে গতিশীল করে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে চ্যালেঞ্জিং সংগ্রহের লক্ষ্যে সপ্তম উইকেটে ব্যাট করছেন নেই ব্রুম ও মিচেল স্যান্টসার।

ব্রুম ইতোমধ্যেই তুলে নিয়েছেন নিজের দ্বিতীয় ওয়ানডে অর্ধশতক। আর এ দুই ব্যাটসম্যানের ব্যাটে ভর করে ৪০ ওভার শেষে ৬ উইকেটে ১৭৬ রান সংগ্রহ করেছে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড।  

এর আগে বৃহস্পতিবার (২৯ ডিসেম্বর) সেক্সটন ওভালে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে টস জিতে ফিল্ডিংয়ে নেমে বল হাতে প্রথম ওভারেই সফলতা পান সফরকারী অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। ওভারের চতুর্থ বলটি কিউই ওপেনার মার্টিন গাপটিলের পায়ে লাগিয়ে এলবি’র আবেদন তুলতেই আঙ্গুল উঁচিয়ে সায় দেন আম্পায়ার। ফলে দলকে কোনো সংগ্রহ না এনে দিয়েই ক্রিজ ছাড়া হন গাপটিল।

১০ ওভার শেষে ১ উইকেটের বিনিময়ে ৩৭ রান নিয়েও স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড যখন বড় সংগ্রহের স্বপ্ন দেখছিল, ঠিক তখনই তাদের সে স্বপ্নযাত্রায় বাধ সাধেন তাসকিন। ১১তম ওভারে তার পঞ্চম বলটি কেন উইলিয়ামসন সোজা ব্যাটে খেলতে গেলে ব্যক্তিগত ১৫ রানে মিডঅনে ধরা পড়েন সাকিবের হাতে।

ব্ল্যাক ক্যাপসরা তখনও ৩৭ রানের কোঠা পার হতে পারেননি।

উইলিয়ামসনের বিদায়ের পর দলের সঙ্গে ১০ রান যোগ করে সাকিবের বলে এলবি’র ফাঁদে পড়েন ওপেনার টম লাথামও।

২০ ওভারেই ৭৮ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড যখন ইনিংস মেরামতের চেষ্টায় রত ঠিক তখনই টাইগার শিবিরকে দারুণ এক ব্রেক থ্রু এনে দেন মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত। ২৩তম ওভারে তার পঞ্চম ডেলিভারিটি জেমস নিশাম ডাউন দ্য উইকেটে খেলতে চাইলে ব্যক্তিগত ২৮ রানে তাকে স্ট্যাম্পড করে ক্রিজ ছাড়া করেন নুরুল হাসান সোহান। স্বাগতিকদের দলীয় সংগ্রহ তখন ৯৮ রান।

নিশামের ফেরার পরে ২৬তম ওভারে দলে সঙ্গে ৯ রান যোগ করে অর্থাৎ দলীয় ১০৭ ও ব্যক্তিগত ৩ রানে মাশরাফির দারুণ এক ইন সুইংয়ে পরাস্ত হন কলিন মুনরো। ফলে ১০৭ রান তুলতে ৫ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড।

সে চাপ সামলে চ্যালেঞ্জিং সংগ্রহের লক্ষ্যে পঞ্চম উইকেটে ব্যাট করেন ‍লুক রঞ্চি ও নেইল ব্রুম। ৩০ ওভার শেষে স্বাগতিকদের সংগ্রহ দাঁড়ায় ৫ উইকেটে ১২১ রান।

বাংলাদেশ সময়: ০৬৫৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৯, ২০১৬
এইচএল/এএসআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।