ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৩ জুন ২০২৪, ০৫ জিলহজ ১৪৪৫

ক্রিকেট

বিশ্বকাপে না গিয়ে যে কারণে কাউন্টিকে বেছে নিয়েছেন তারা

স্পোর্টস ডেস্ক  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২২১ ঘণ্টা, মে ২১, ২০২৪
বিশ্বকাপে না গিয়ে যে কারণে কাউন্টিকে বেছে নিয়েছেন তারা

বিশ্বকাপ খেলার সুযোগ কেউ হাতছাড়া করে? স্বাভাবিক উত্তর 'না' হলেও তা প্রযোজ্য নয় নেদারল্যান্ডসের দুই ক্রিকেটারের ক্ষেত্রে। এই দুজন হলেন কলিন অ্যাকারম্যান ও ফন ডার মারওয়ে।

 

দুজনেই জাতীয় দলের গুরুত্বপূর্ণ ক্রিকেটার। নেদারল্যান্ডস যখন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ খেলতে যাচ্ছে, তখন বেছে নিয়েছেন কাউন্টি ক্রিকেটকে। কিন্তু কেন এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তারা? উত্তরটা তাদের দুজনের কেউই দেননি। তবে তাদের হয়ে বিষয়টা পরিষ্কার করেছেন তাদের সতীর্থ পল ফন মিকেরেন।

ক্রিকইনফোকে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে মিকেরেন বলছিলেন, 'দিনশেষে আমি নিজেকে জিজ্ঞেস করি, কে আমার বিল পরিশোধ করবে? কীভাবে পেশাদার ক্রিকেট আমি যত দিন পারি চালিয়ে যেতে পারব? উত্তর হচ্ছে কাউন্টি ক্রিকেট। এটাই টেবিলে খাবার আনে। '

অস্ট্রেলিয়ায় গত বিশ্বকাপে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ডাচদের ১৩ রানের ঐতিহাসিক জয়ে অ্যাকারম্যান ও মারওয়ের ছিল গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা। কিন্তু জাতীয় দলে খেলে আসলে যে অর্থ আয় করেন তারা, তা দিয়ে জীবনযাত্রার ব্যয় নির্বাহ করা কঠিন তাদের জন্য। যে কারণে কাউন্টিতে খেলেন দুজনেই। যেখানে থাকে সারা বছর আয়ের নিশ্চয়তা। ক্যারিয়ার দীর্ঘায়িত সুযোগও থাকে সেখানে।  

কাউন্টির জন্যেই ভারতে ওয়ানডে বিশ্বকাপের কোয়ালিফায়ারের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে মিকেরেনসহ অ্যাকারম্যান, মারওয়ে ও ফ্রেড ক্লাসেনকে পায়নি নেদারল্যান্ডস। মিকেরেনের কথা থেকেই পরিস্কার, ভবিষ্যতের দিকে তাকিয়ে দেশের হয়ে বিশ্বকাপ খেলার স্বপ্ন বিসর্জন দিতে হচ্ছে তাদের।

বাংলাদেশ সময়: ১২২৩ ঘণ্টা, মে ২১, ২০২৪
এমএইচএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।