ঢাকা, সোমবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২০ মে ২০২৪, ১১ জিলকদ ১৪৪৫

ক্রিকেট

দারুণ জয়ে শুরু রাজস্থানের

স্পোর্টস ডেস্ক  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১২ ঘণ্টা, মার্চ ২৪, ২০২৪
দারুণ জয়ে শুরু রাজস্থানের সংগৃহীত ছবি

ব্যাট হাতে ঝড় তুললেন সাঞ্জু স্যামসন। অধিনায়কের তাণ্ডবে বড় সংগ্রহ পেলো রাজস্থান রয়্যালসও।

পরে লোকেশ রাহুল ও নিকোলাস পুরানের ব্যাটে জয়ের স্বপ্ন দেখতে শুরু করেছিল লক্ষ্ণৌ সুপার জায়ান্টস। কিন্তু শেষ পর্যন্ত রাজস্থানের বড় জয় থামাতে পারেনি তারা।

২০২৪ আইপিএলে নিজেদের প্রথম ম্যাচে ২০ রানে জিতেছে রাজস্থান। জয়পুর স্টেডিয়ামে আজ আগে ব্যাট করে ২০ ওভারে ৪ উইকেটে ১৯৩ রান সংগ্রহ করে তারা। জবাবে ৬ উইকেটে ১৭৩ রান তুলতে পারে লক্ষ্ণৌ।

লক্ষ্য তাড়ায় নেমে শুরুতেই ধাক্কা খায় লক্ষ্ণৌ। মাত্র ৪ রান করে বিদায় নেন দলটির প্রোটিয়া ওপেনার কুইন্টন ডি কক। এরপর দলীয় ১১ রানের মধ্যে আরও দুই উইকেট হারায় লক্ষ্ণৌ। পাঁচে নামা দীপক হুডাকে নিয়ে সেখান থেকে ঘুরে দাঁড়ানোর লড়াই শুরু করেন লক্ষ্ণৌয়ের অধিনায়ক লোকেশ রাহুল।

রাহুল ও হুডা মিলে কিছুদূর লড়াইটা ভালোভাবেই করে যান। তবে ১৩ বলে ২৬ রানের ইনিংস খেলে হুডা বিদায় নিলে ভাঙে তাদের প্রতিরোধ। কিন্তু সেখান থেকে ফের নতুন জুটি গড়েন রাহুল ও নিকোলাস পুরান। রাহুল তুলে নেন ফিফটিও। তাদের জুটিতে আসে ৮৪ রান।  

দলকে পথে রেখে ব্যক্তিগত ৫৮ রানে ফেরেন রাহুল। ৪৪ বল স্থায়ী ইনিংসটিতে ৪টি চার ও ২টি ছক্কার মার আছে। অন্যদিকে রাজস্থানের ভরসা হয়ে টিকে ছিলেন পুরান। কিন্তু বলের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে রান তুলতে পারেননি তিনি। অন্যপ্রান্তে উইকেটও পড়েছে নিয়মিত বিরতিতে।  

শেষ ওভারে লক্ষ্ণৌয়ের সামনে লক্ষ্য দাঁড়ায় ২৭ রান। কিন্তু আভেশ খানের ওই ওভার থেকে লক্ষ্ণৌ তুলতে পারে ৬ রান। ৪১ বলে ৬৪ রানে অপরাজিত থেকে মাঠ ছাড়েন পুরান। ৪টি করে চার ও ছক্কা হাঁকানো এই ক্যারিবীয় ব্যাটার শেষ ওভারে ৪ বলে নিতে পারেন মাত্র ২ রান।

বল হাতে রাজস্থানের ফাস্ট বোলার ট্রেন্ট বোল্ট নেন ২ উইকেট। এছাড়া নাদ্রে বার্গার, রবিচন্দ্রন অশ্বিন, চাহাল ও সন্দ্বীপ শর্মা নেন ১টি করে উইকেট।
এর আগে রাজস্থানের ওপেনার জশ বাটলার (১১) ব্যর্থ হলেও যশস্বী জয়সওয়াল ১২ বলে ২৪ রানের ঝোড়ো ইনিংস খেলেছেন। তবে আসল তাণ্ডব চালিয়েছেন সাঞ্জু স্যামসন। মাত্র ৫২ বলে ৮২ রানের দাপুটে ইনিংস খেলেছে অপরাজিত থাকেন রাজস্থানের অধিনায়ক; হাঁকিয়েছেন ৩টি চার ও ৬টি ছক্কা।  

স্যামসনকে দারুণ সঙ্গ দিয়েছেন রিয়ান পরাগ। ২৯ বলে ৩ চার ও ১ ছক্কায় ৪৩ রানের ইনিংস খেলেছেন তিনি। আর শেষদিকে ধ্রুব জুরেলের ১২ বলে ২০ রানের ইনিংসে ২০০ ছুঁইছুঁই সংগ্রহ পায় রাজস্থান।

বল হাতে ২টি উইকেট পেয়েছেন আফগান পেসার নাভিন-উল-হক। তবে ৪ ওভারে রান খরচ করেছেন ৪১টি। এছাড়া ১টি করে উইকেট তুলে নিয়েছেন মোহসিন খান ও রবি বিষ্ণুই। তবে তারাও বল হাতে দেদারসে রান বিলিয়েছেন।

বাংলাদেশ সময়: ২০১০ ঘণ্টা, মার্চ ২৪, ২০২৪
এমএইচএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।