ঢাকা, রবিবার, ১ বৈশাখ ১৪৩১, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ০৪ শাওয়াল ১৪৪৫

ক্রিকেট

বিপিএল খেলা হচ্ছে না ফখর-ইফতিখারদের

স্পোর্টস ডেস্ক  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬০৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৯, ২০২৪
বিপিএল খেলা হচ্ছে না ফখর-ইফতিখারদের

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) নতুন আসরের পর্দা উঠেছে আজ। এবার পাকিস্তানের বেশ কয়েকজন ক্রিকেটার বিপিএল খেলার জন্য অনুমতি চেয়েছিলেন।

তাদের মধ্যে তিনজনকে অনুমতি দেয়নি পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)।  

পাকিস্তান-ভিত্তিক সংবাদমাধ্যম 'জিও সুপার' জানিয়েছে, কেন্দ্রীয় চুক্তির শর্ত অনুযায়ী, ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক দুই টুর্নামেন্ট ইন্টারন্যাশনাল লিগ টি-টোয়েন্টি (আইএল টি-টোয়েন্টি) ও বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) খেলার জন্য কয়েকজন ক্রিকেটারকে অনাপত্তিপত্র দিয়েছে পিসিবি। দুইটি আসর একইদিনে (১৯ জানুয়ারি) শুরু হচ্ছে।  

পাকিস্তান থেকে দুই টুর্নামেন্টেই খেলার অনাপত্তিপত্র পেয়েছেন বাবর আজম, মোহাম্মদ রিজওয়ান, মোহাম্মদ ওয়াসিম জুনিয়র এবং শাহিন শাহ আফ্রিদি। তবে শাহিন শুধু আমিরাতের টুর্নামেন্টে খেলবেন। বাকি তিন জন খেলবেন বিপিএলে। রিজওয়ান গতবারের মতো এবারও খেলবেন কুমিল্লার হয়ে। তবে গত আসরে সিলেটের হয়ে খেলা বাবর এবার খেলবেন সাকিব আল হাসানের রংপুর রাইডার্সে। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ শেষ করে বিপিএল খেলতে আসবেন তারা।

বিপিএলে খেলার ছাড়পত্র পেয়েছেন ফাহিম আশরাফ, উসমান কাদির সহ আরও কয়েকজন ক্রিকেটার। তবে গত জুলাইয়ের পর থেকে এরইমধ্যে দুটি ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগ খেলে ফেলায় অনাপত্তিপত্র পাননি ইফতিখার, ফখর, হারিস ও  সাইম আইয়ুব। ফখর জামান খেলার কথা ফরচুন বরিশালের হয়ে এবং কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের সঙ্গে চুক্তি হয়েছে ইফতিখারের। আর পাকিস্তানি পেসার হারিস রৌফ চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের জার্সিতে খেলার কথা রয়েছে। তবে জানা গেছে, হারিস রউফকে শেষ মুহূর্তে অনাপত্তিপত্র দেখা হবে।  

শাহিন, শাদাব খান, আজম খান, মোহাম্মদ আমির (সবাই ডেজার্ট ভাইপার্সে) এবং ইমাদ ওয়াশিম (আবুধাবি নাইট রাইডার্স) খেলবেন আইএল টি-টোয়েন্টিতে। তবে পাকিস্তান সুপার লিগ (পিএসএল) ও টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের কথা মাথায় রেখে অনাপত্তিপত্র দেওয়া হয়নি ইহসানুল্লাহ, নাসিম শাহ এবং মোহাম্মদ হাসনাইনকে। নাসিমের খেলার কথা ছিল কুমিল্লার জার্সিতে এবং চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের হয়ে হাসনাইনের এবং সাইম চুক্তিবদ্ধ ছিলেন দুর্দান্ত ঢাকার সঙ্গে। তবে পিসিবির সঙ্গে কেন্দ্রীয় চুক্তির আগেই যারা আইএল টি-টোয়েন্টির কোনো ফ্র্যাঞ্চাইজির সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন তাদের ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৬০৪ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৯, ২০২৪
এমএইচএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।