bangla news

রাজশাহীতে তাপমাত্রা বাড়লেও শীতের দাপট কমেনি

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১২-২৩ ২:১৭:৩১ পিএম
 কনকনে ঠাণ্ডায় শীতার্ত মানুষ। ছবি: বাংলানিউজ

কনকনে ঠাণ্ডায় শীতার্ত মানুষ। ছবি: বাংলানিউজ

রাজশাহী: রাজশাহীতে তাপমাত্রা বাড়লেও শীতের প্রকোপ কমছে না। সোমবার (২৩ ডিসেম্বর) সকাল ৮টায় রাজশাহীর সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় ১২ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

রোববার (২২ ডিসেম্বর) সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিলো ৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস ফলে ৩ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা বাড়লেও শীতের দাপট কমেনি। তবে টানা চারদিন পর রাজশাহীর কুয়াশাচ্ছন্ন আকাশ ভেদ করে সূর্য হেসেছে। সেই সূর্যের তাপ না থাকলেও এতেই হাফ ছেড়ে বেঁচেছেন শহরের ছিন্নমূল শীতার্ত মানুষ।

রাজশাহীর ওপর দিয়ে গত ১৯ ডিসেম্বর থেকে শৈত্যপ্রবাহ বইছে। ওই দিন থেকেই সূর্যের দেখা মিলছিলো না। টানা চারদিন পর সোমবার দুপুরে রাজশাহীতে দেখা মিললো সূর্যের।

আবহাওয়া অধিদফতর জানাচ্ছে, সোমবার থেকে রাজশাহীসহ সারাদেশের তাপমাত্রাই কিছুটা বাড়তে পারে। এছাড়া সোমবার সারাদেশের আবহাওয়ার এক পূর্বাভাসে বলা হয়েছে পরবর্তী দুই দিনে তাপমাত্রা আরও বাড়তে পারে। তবে এর পরের পাঁচদিন বৃষ্টিপাত হতে পারে।

রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের জ্যেষ্ঠ পর্যবেক্ষক আনোয়ারা বেগম বলেন, গত ১৯ ডিসেম্বর থেকে রাজশাহীতে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ শুরু হয়েছে। এর মধ্যে গত ১৯ ডিসেম্বর রাজশাহীতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় ৯ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ২০ ডিসেম্বর সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় ৯ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

২১ ডিসেম্বর তাপমাত্রা ২ দশমিক ৬ ডিগ্রি বেড়ে দাঁড়ায় ১১ দশমিক ৯ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। তবে ২২ ডিসেম্বর আবার সেই তাপমাত্রা কমে দাঁড়ায় ৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। আর সোমবার ২৩ ডিসেম্বর আবারও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড হয় ১২ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এভাবেই রাজশাহীর সর্বনিম্ন তাপমাত্রা লাফিয়ে লাফিয়ে উঠানামা করছে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

তবে আকাশে ঘন কুয়াশার কারণে কয়েকদিন থেকে রাজশাহীতে সূর্যের মুখ দেখা না গেলেও সোমবার দুপুরে দেখা মিলেছে। কিন্তু সূর্যের উত্তাপ না থাকায় তাপমাত্রা বাড়লো রাজশাহীতে শীতের প্রকোপ কমেনি। কনকনে ঠাণ্ডা বাতাসের কারণে তীব্র শীত অনুভূত হচ্ছে বলেও জানান রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের এই কর্মকর্তা।

বাংলাদেশ সময়: ১৪১৫ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৩, ২০১৯
এসএস/এএটি

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   রাজশাহী জীববৈচিত্র্য
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-12-23 14:17:31