ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৩ আশ্বিন ১৪২৬, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯
bangla news

বিটিআরআইর চা বাগানে ‘টিপিং’ শুরু

ডিভিশনাল সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৩-১২ ৫:৩৬:১০ পিএম
বিটিআরআই-এ চায়ের কার্যক্রম শুরু। ছবি: বাংলানিউজ

বিটিআরআই-এ চায়ের কার্যক্রম শুরু। ছবি: বাংলানিউজ

মৌলভীবাজার: প্রতিবছরের মতো এবারও প্রায় চার মাস উৎপাদন বন্ধ থাকার পর আবার নতুন করে ‘টিপিং’ (চা পাতা উত্তোলন) শুরু হয়েছে। সবুজ চা পাতায় সতেজ পূর্ণতা- এই লক্ষ্য নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে বাংলাদেশ চা গবেষণা ইনস্টিটিউট (বিটিআরআই)। দু’টি পাতা একটি কুঁড়িতে হাসছে সম্ভাবনার হাসি। 

মঙ্গলবার (১২ মার্চ) সকালে বিটিআরআইর বিলাশছড়া পরীক্ষণ খামারে নতুন বছরের জন্য চা পাতা উত্তোলনপূর্ব অনুষ্ঠিত হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন বিটিআরআইর পরিচালক ড. মোহাম্মদ আলী এবং প্রকল্প উন্নয়ন ইউনিটের (পিডিইউ) ভারপ্রাপ্ত পরিচালক ড. একেএম রফিকুল হক। 

অন্যদের মধ্যে উপস্থিত বিটিআরআইর মুখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা (সিএসও) মো. ইসমাইল হোসেন, প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা (পিএসও) ড. আবদুল আজিজ, প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা (পিএসও) ড. তওফিক আহমেদ, ঊর্ধ্বতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা (এসএসও) ড. মো. মাসুদ রানা, বিলাশছড়া পরীক্ষণ খামারের উপ-ব্যবস্থাপক ও দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা একেএম আশরাফুল হক প্রমুখ। 

উত্তোলিত দুটি পাতা একটি কুঁড়ি। ছবি : বাংলানিউজ  শুরুতেই দোয়া-মোনাজাত ও প্রার্থনার আয়োজন করা হয়। চা সংশ্লিষ্ট এ প্রতিষ্ঠানের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা এসময় উপস্থিত ছিলেন।

বিটিআরআইর পরিচালক ড. মোহাম্মদ আলী বাংলানিউজকে বলেন, Tipping (টিপিং) Plucking (প্লাকিং) নামে দুটো শব্দ রয়েছে; দুটোরই অর্থ ‘পাতা উত্তোলন’। তবে টিপিং কয়েকবার করার পর যখন চা গাছগুলোতে টেবিল মেনটেইন (সমান) হয় এবং তারপর যে পাতাগুলো উত্তোলন করা হয় তাকে প্লাকিং বলে। 

তিনি আরো বলেন, আরো সহজ করে বলতে গেলে ‘টিপিং’ (পাতা উত্তোলন) হলো লেভেল মেনটেইন করার জন্য। আর ‘প্লাকিং’ (পাতা উত্তোলন) হলো চা উৎপাদনের জন্য। সময়মতো সঠিক জায়গায় টিপিং করতে পারলে সঠিক প্লাকিং টেবিল তৈরি হয়।

চলতি বছর অর্থাৎ ২০১৯ সালে সারাদেশে চায়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে ৭৮ মিলিয়ন (প্রায় ৮ কোটি) কেজি বলে জানান বিটিআরআই এর পরিচালক ড. মোহাম্মদ আলী। 

বাংলাদেশ সময়: ১৭৩০ ঘণ্টা, মার্চ ১২, ২০১৯ 
বিবিবি/এএ

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

জলবায়ু ও পরিবেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Alexa
cache_14 2019-03-12 17:36:10