ঢাকা, শনিবার, ২৪ শ্রাবণ ১৪২৭, ০৮ আগস্ট ২০২০, ১৭ জিলহজ ১৪৪১

পরিবেশ ও জীববৈচিত্র্য

রাতারগুল রক্ষায় সম্মিলিত উদ্যোগ নিতে আহ্বান অর্থমন্ত্রীর

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৪৭ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০১৩
রাতারগুল রক্ষায় সম্মিলিত উদ্যোগ নিতে আহ্বান অর্থমন্ত্রীর

সিলেট: বাংলাদেশের একমাত্র জলার বন রাতারগুল রক্ষায় সম্মিলিত উদ্যোগ নেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল আবদুল মুহিত।

তিনি বলেন, ‘রাতারগুলকে অভয়ারণ্য ঘোষণার জন্য আরো আলোচনা প্রয়োজন।

সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয়সহ স্থানীয় প্রশাসন, জনপ্রতিনিধি সংশ্লিষ্ট সবাইকে নিয়ে বনের ব্যবস্থাপনা ও বন সংরক্ষণে উদ্যোগী হতে হবে। ’

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় সিলেটে ‘রাতারগুল: জলারবনের ভবিষ্যৎ সুরক্ষা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে অর্থমন্ত্রী এ আহ্বান জানান।
 
নগরীর উপশহরে বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) সিলেট শাখা এ আলোচনা সভার আয়োজন করে।

সভায় অর্থমন্ত্রী বনের পরিবেশ রক্ষার্থে সেখানে ইঞ্জিনচালিত নৌকা চলাচল বন্ধ করার নির্দেশ দিয়ে বলেন, ‘তিন/চার দিনের মধ্যে রাতারগুলে সব ইঞ্জিনচালিত নৌকার চলাচল বন্ধ করে দিতে হবে। ’  

আকবেট-এর নির্বাহী পরিচালক মো. আসাদুজ্জামান সায়েমের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় আরো বক্তব্য রাখেন সিলেট সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ, সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি এমাদ উল্লাহ শহিদুল ইসলাম, সিলেট রেঞ্জের অতিরিক্ত উপমহাপরিদর্শক মো. শাখাওয়াত হোসেন।

মূল প্রবন্ধ পাঠ করেন বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) সিলেট শাখার সাধারণ সম্পাদক আবদুল করিম কিম।

সভায় উপস্থিত ছিলেন সেভ দ্য হেরিটেজ অ্যান্ড এনভায়রনমেন্টের প্রধান সমন্বয়ক আবদুল হাই আল হাদী, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণী অধিকার বিষয়ক সংগঠন ‘প্রাধিকার’-এর নেতারা।

সভায় রাতারগুল এলাকার স্থানীয় বাসিন্দারা যোগ দিয়ে তাদের পরামর্শ উপস্থাপন করেন।  

বাংলাদেশ সময়: ২১৪২ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০১৩
এসএ/এবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa