ঢাকা, মঙ্গলবার, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ২১ মে ২০১৯
bangla news

মদনটাক জবাইয়ের দায়ে...

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৩-০১-২৭ ৮:৪৫:৩৬ এএম

বিলুপ্ত প্রজাতির পাখি মদনটাকের মাংস খাওয়ার লোভে পড়ে শ্রীঘরে যেতে হলো দুই ব্যক্তিকে। পাখিটি জবাই করে পেটপূজা সারার আগেই পুলিশের হাতে পাকড়াও হয়েছেন তারা।

ঠাকুরগাও: বিলুপ্ত প্রজাতির পাখি মদনটাকের মাংস খাওয়ার লোভে পড়ে শ্রীঘরে যেতে হলো দুই ব্যক্তিকে। পাখিটি জবাই করে পেটপূজা সারার আগেই পুলিশের হাতে পাকড়াও হয়েছেন তারা।

রোববার সকালে আলোচিত এই ঘটনাটি ঘটেছে ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জে।

দণ্ডাদেশপ্রাপ্তরা হলেন, রঘুনাথপুর গ্রামের আনজুর রহমানের ছেলে আসাদ (২৮) ও গুয়াগাও গ্রামের মাইনুদ্দীনের ছেলে সুলতানকে (৩৫) আটক করেছে পুলিশ।

সকালে ওই দুই ব্যক্তি পাখিটি জবাই করলে দুপুরে তাদের আটক করে পুলিশ।

পরে সন্ধ্যা ৭টায় আটক আসাদ ও সুলতানকে ৬ মাসের কারাদণ্ড ও ৬শ টাকা জরিমানা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও ইউএনও শাববীর আহমদের এ রায় প্রদান করেন।

পীরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম মেহেদী হাসান বাংলানিউজকে জানান, ১৫ জানুয়ারি বিকেলে উপজেলার ঝলঝলী গ্রামের একটি পুকুরপাড়ে শিকারীদের বন্দুকের গুলিতে আহত এই পাখিটিকে উদ্ধার করেন বশির উদ্দিন নামে এক ব্যক্তি।

পরে পীরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নির্দেশে মদনটাক পাখিটিকে প্রাথমিক চিকিৎসার জন্য বন বিভাগ ওই এলাকা থেকে নিয়ে এসে পীরগঞ্জের স্থানীয় অ্যামিউজমেন্ট পার্ক ফানসিটিতে রাখা হয়। উপজেলা প্রাণিসম্পদ বিভাগের তত্ত্বাবধায়নে পাখিটির চিকিৎসা চলছিল।
 
সকালে ওই পাখিটি অ্যামিউজমেন্ট পার্ক ফানসিটি থেকে উড়ে বাইরের একটি পুকুরে এসে পড়ে। এ সময় পার্শ্ববর্তী একটি মিলের কর্মচারীরা পাখিটিকে ধরে ফেলে এবং পাখিটি জবাই করে।

খবর পেয়ে আসাদ (২৮) ও সুলতানকে (৩৫) আটক করে সাজা দেওয়া হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৩৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি  ২৭, ২০১৩
সম্পাদনা: সোহেলুর রহমান, নিউজরুম এডিটর

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

জলবায়ু ও পরিবেশ বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Alexa
db