ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ২৬ রবিউস সানি ১৪৪৩

বইমেলা

মেলায় ওয়াসীমূল বারীর গোয়েন্দা সিরিজ

বইমেলা ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৫০ ঘণ্টা, এপ্রিল ১, ২০২১
মেলায় ওয়াসীমূল বারীর গোয়েন্দা সিরিজ

ঢাকা: ওয়াসীমূল বারী আরজুর গোয়েন্দা সিরিজ-১ রহস্যময় চিরকুট। এটি তার প্রথম রচনা।

তারুণ্যের আলোয় ও আভায় ঝলমল করছে তার সৃষ্টি। এই গোয়েন্দা সিরিজ যারা মেধাবী তরুণ্যভরা উদ্দীপ্ত ছাত্র ও কৌতূহলী কেবল সেসব গোয়েন্দা-পাঠকের জন্য রচনা করা হয়নি, বরং এটি সব বয়সের পাঠককে মাথায় রেখেই রচিত হয়েছে। সব পাঠককে কাহিনীকার শেষাবধি ধরে রাখতে সক্ষমতা রাখেন।

একটি পরিত্যক্ত বাংলো কেন্দ্র করে কলেজ পড়ুয়া দুই বন্ধুর অপার কৌতূহল ও চিরায়ত অনুসন্ধিৎসায় তারা একে একে জড়িয়ে পড়ে ভয়াবহ জটিল আবর্তে। সরল রৈখিক মননের নাফিস আর তার সহপাঠী কৌতূহলোদ্দীপক বিশ্লেষণী ক্ষমতার অধিকারী দুঃসাহসী চরিত্র জাভেদ জীবন বাজি রেখে দু’দুটি খুনের রহস্য দক্ষতার সঙ্গে উন্মোচন করাসহ আসামিকে পরাস্ত ও শনাক্তকরণে পুলিশকে সাহায্য করার মাধ্যমে এই গোয়েন্দা কাহিনীর পরিসমাপ্তি।

তবে রহস্য এখানেই শেষ নয়। এরপর আরও আছে। কেননা, রহস্যময় চিরকুট গোয়েন্দা সিরিজ-১। গোয়েন্দা সিরিজ-২ যে আবারও পাঠককে উপহার দেওয়া হবে গ্রন্থের শেষে তার একটা নমুনা রাখা হয়েছে।  

যেমন, জাভেদ তার আসনের নিচে একটি চিরকুট দেখতে পেলো যার একপাশ কালো অপরপাশটি সাদা। কালোপাশে সাদা অক্ষরে লেখা— ‘আপনার সাথে খেলে খুব মজা পেলাম। আমাদের আবারও দেখা হবে মি. জাভেদ। ’ এই চিঠিটা কীভাবে জাভেদের পকেটে আসে তা সে বুঝতে পারেনি। ফলে জাভেদের কিছুটা বিস্ময় কিছুটা রহস্য উন্মোচনের মিশ্র অভিব্যক্তিতে তার বন্ধুরা পুনরায় দ্বিধান্বিত হয়ে পড়লো।

ওয়াসীমূল বারী আরজুর ইংরেজিতে লেখা The Domicile of Mystery'র বাংলা রূপান্তরিত নাম রহস্যময় চিরকুট। অনুবাদক শেখ মো. সালমান আলী। গ্রন্থটির প্রচ্ছদ করেছেন লেখক নিজেই। প্রায় সাড়ে সাত ফর্মার গ্রন্থটি সম্পাদনা করেছেন মআ হান্নান। অঙ্কুর প্রকাশনী থেকে প্রকাশিত বইমেলায় বইটি পাবেন উদ্যানের ৩৬৩-৩৬৫ স্টলে।

বাংলাদেশ সময়: ২১৪৮ ঘণ্টা, এপ্রিল ০১, ২০২১
এএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa