bangla news

স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে চান মহেশখালীর অর্ধশত সন্ত্রাসী

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম | আপডেট: ২০১৮-১০-২০ ৬:১৩:২৮ এএম
স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে চান মহেশখালীর অর্ধশত সন্ত্রাসী
ফাইল ফটো

কক্সবাজার: সুস্থ-স্বাভাবিক জীবনে ফিরে যাওয়ার প্রত্যাশায় কক্সবাজারের মহেশখালী উপজেলার অর্ধশত সন্ত্রাসী আত্মসমর্পণ করতে চেয়েছেন।

তাই তারা শনিবার (২০ অক্টোবর) র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) উপস্থিতিতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামালের কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে অস্ত্র জমা দিয়ে আত্মসমর্পণ করবেন বলে র‌্যাবের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

র‌্যাব জানায়, সন্ত্রাসকবলিত দ্বীপ উপজেলা কক্সবাজারের মহেশখালীর জলে-স্থলে বিভিন্ন স্থানে যুগ যুগ ধরে ডাকাতি-দস্যুতাসহ নানা সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালিয়ে আসছে এমন কয়েকটি সন্ত্রাসী বাহিনীর অর্ধশত সদস্য আত্মসমর্পণ করতে চেয়েছেন। এরা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী। এদের মধ্যে একজনের নামে ৪১টি মামলা রয়েছে বলেও র‌্যাবের পক্ষ থেকে জানানো হয়।

এদিকে মন্ত্রীর একান্ত সচিব ড. মো. হারুন অর রশিদ বিশ্বাস স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, সন্ত্রাসীদের আত্মসমর্পণ অনুষ্ঠানেযোগ দিতে শনিবার সকাল ১১টায় মহেশখালী আসছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। তিনি ঢাকা থেকে বিমানযোগে কক্সবাজারে পৌঁছবেন। সেখান থেকে হেলিকপ্টারে করে মহেশখালী যাবেন।

বেলা সাড়ে ১১টায় মহেশখালী পৌরসভার আদর্শ উচ্চবিদ্যালয় মাঠে জলদস্যুদের আত্মসমর্পণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে মন্ত্রীর।

র‌্যাব কক্সবাজার ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার মেজর মো. মেহেদী হাসান বাংলানিউজকে বলেন, নানা কারণে দ্বীপ উপজেলা মহেশখালী সন্ত্রাসীদের অভয়ারণ্যে পরিণত হয়েছে। এখানকার বিভিন্ন পাহাড়ে একাধিকবার অভিযান পরিচালনা করেছে র‌্যাব। বিভিন্ন অভিযানে বিপুল সংখ্যক ভারী অস্ত্র ও গোলা বারুদ উদ্ধার করা হয়েছে।

মহেশখালী ‍উপজেলার সন্ত্রাস নির্মূলে দীর্ঘদিন ধরে কাজ করছে র‌্যাব। এর ধারাবাহিকতায় এ আত্মসমর্পণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। 

বাংলাদেশ সময়: ০৬০১ ঘণ্টা, অক্টোবর ২০, ২০১৮
ওএইচ/

Phone: +88 02 8432181, 8432182, IP Phone: +880 9612123131, Newsroom Mobile: +880 1729 076996, 01729 076999 Fax: +88 02 8432346
Email: news@banglanews24.com , editor@banglanews24.com
Marketing Department: 01722 241066 , E-mail: marketing@banglanews24.com

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

কপিরাইট © 2019-02-21 05:08:01 | একটি ইডব্লিউএমজিএল প্রতিষ্ঠান