#মিটু আন্দোলনের ঢেউ এবার ক্রিকেটে ভালোভাবেই আছড়ে পড়ছে বোধ হয়। বিশ্বকাপজয়ী সাবেক লঙ্কান অধিনায়ক অর্জুনা রানাতুঙ্গার বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ ওঠার ২৪ ঘণ্টা পার না হতেই ফের আরও এক লঙ্কান ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে একই অভিযোগ তুলেছেন এক ভারতীয় সঙ্গীতশিল্পী। সেই ক্রিকেটার আর কেউ নন, ফাস্ট বোলার লাসিথ মালিঙ্গা।

">
bangla news

যৌন হয়রানি করেছেন মালিঙ্গা!

স্পোর্টস ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম | আপডেট: ২০১৮-১০-১১ ৬:০৭:১৪ পিএম
যৌন হয়রানি করেছেন মালিঙ্গা!
মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের জার্সি গায়ে মালিঙ্গা-ছবি: সংগৃহীত

#মিটু আন্দোলনের ঢেউ এবার ক্রিকেটে ভালোভাবেই আছড়ে পড়ছে বোধ হয়। বিশ্বকাপজয়ী সাবেক লঙ্কান অধিনায়ক অর্জুনা রানাতুঙ্গার বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ ওঠার ২৪ ঘণ্টা পার না হতেই ফের আরও এক লঙ্কান ক্রিকেটারের বিরুদ্ধে একই অভিযোগ তুলেছেন এক ভারতীয় সঙ্গীতশিল্পী। সেই ক্রিকেটার আর কেউ নন, ফাস্ট বোলার লাসিথ মালিঙ্গা।

আগের দিন শ্রীলঙ্কার বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক ও বর্তমান মন্ত্রী রানাতুঙ্গার বিরুদ্ধে এক ভারতীয় নারী বিমান কর্মী যৌন হেনস্তার অভিযোগ আনেন। ফেসবুকের এক পোস্টে ওই বিমানকর্মী দাবি করেন, সাবেক লঙ্কান এই ক্রিকেটার ভারত-শ্রীলঙ্কা সিরিজ চলাকালীন সময়ে তার শ্লীলতাহানির চেষ্টা করেন। 

একদিন পরেই ভারতের প্লে-ব্যাক সঙ্গীতশিল্পী চিন্ময় শ্রীপদ নিজের টুইটারে দাবি করেছেন, কয়েক বছর আগে আইপিএল চলা অবস্থায় এক নারীকে নিজের হোটেল রুমে নিয়ে যৌন হেনস্তা করেছেন লঙ্কান পেসার লাসিথ মালিঙ্গা। এই ঘটনার কথা জানানোর কিছুক্ষণ পর সেই নারীর টুইটার একাউন্টের একটি লেখার স্ক্রিনশট প্রকাশ করেন শ্রীপদ।  

টুইটারে শ্রীপদ লিখেছেন, নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক নারীকে মিথ্যা বলে নিজের হোটেল রুমে ডেকে নিয়ে যান মালিঙ্গা। সেই নারী তার এক বন্ধুকে খুঁজছিলেন। মালিঙ্গা তাকে বলেন যে সেই বন্ধু তার রুমে আছে। সেই নারী সেই কথা বিশ্বাস করে রুমে প্রবেশ করার সঙ্গে সঙ্গে তাকে ধাক্কা দিয়ে নিজের বিছানায় ফেলে দিয়ে তার মুখে চড়ে বসেন মালিঙ্গা।

মালিঙ্গা সেই নারীর গাল ব্যবহার করে যৌন হয়রানি করেন। সেই নারী অনেক লম্বা আর ওজন বেশি হওয়া সত্ত্বেও মালিঙ্গার শক্তির সামনে পেরে ওঠেন নি। এরপর রুম সার্ভিসের জন্য হোটেলের এক কর্মী সেখানে হাজির হলে সুযোগ পেয়ে সেই নারী সেখান থেকে পালাতে সক্ষম হন এবং নিজের গাল পরিষ্কার করে নেন। যাই হোক, মালিঙ্গার অমন আচরণে খুব ভয় পেয়ে যান সেই নারী। কিন্তু বিখ্যাত লঙ্কান তারকার বিরুদ্ধে মুখ খুলতে সাহস পাচ্ছিলেন না।

তিনি আরও লিখেছেন, সেই নারীর মুখ না খোলার আরও একটা কারণ ছিল, এমন ঘটনা শুনলে সবাই তাকেই দোষ দেবে। অনেকে বলবে, নিজের ইচ্ছায় সেখানে গিয়েছেন তিনি। কিংবা মালিঙ্গা জনপ্রিয় বলে তাকে ফাঁসাচ্ছে। আবার কেউবা বলবে, এর চেয়েও বেশি খারাপ কিছু হলে ভালো হতো।

২০০৯ সাল থেকেই আইপিএলের দল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের সঙ্গে যুক্ত মালিঙ্গা। ২০১৭ সালে সর্বশেষ এই দলের হয়ে মাঠে নামেন তিনি। এই সময়ে মুম্বাইয়ের হয়ে ১১০ ম্যাচে ১৫৪ উইকেট পেয়েছেন তিনি। এপর্যন্ত আইপিএলের ইতিহাসে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি হিসেবে নিজের অবস্থান ধরে রেখেছেন এই ঝাঁকড়া চুলের বোলার।

গত মৌসুমে বোলিং মেন্টর হিসেবে মুম্বাইয়ে যুক্ত হয়েছেন মালিঙ্গা। ২০০৪ সালে অভিষিক্ত হওয়া মালিঙ্গা গত এশিয়া কাপ দিয়ে শ্রীলঙ্কার ওয়ানডে দলে ফিরেছেন তিনি। নিজ দেশের মাটিতে ইংলিশদের বিপক্ষে চলতি ওয়ানডে সিরিজের দলেও আছেন তিনি।

২০০৬ সালে টুইটারে প্রথম #মিটু আন্দোলন শুরু হয়। তবে জনপ্রিয়তা পায় ২০১৭ সালে যখন হলিউডের বিখ্যাত প্রযোজক হার্ভে ওয়েনস্টিনের বিরুদ্ধে বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ আনা হয়। প্রায় ৭০ জন নারী টুইটারে হ্যাশট্যাগ মিটু ব্যবহার করে তার বিরুদ্ধে মুখ খুলেন।  

ভারতে এই #মিটু আন্দোলন সাম্প্রতিক সময়ে ঝড় তুলেছে। আর এই ঝড় তুলেছেন সাবেক মিস ইন্ডিয়া ও বলিউড তারকা তনুশ্রী দত্ত। জনপ্রিয় ও প্রভাবশালী বলিউড তারকা নানা পাটেকরের বিরুদ্ধে ২০০৮ সালের ‘হর্ন ওকে প্লিজ’ নামক চলচ্চিত্রের শুটিংয়ের সময় যৌন হেনস্তার অভিযোগ তুলেছেন তনুশ্রী।

তনুশ্রী মুখ খোলার পর থেকেই একের পর এক ভারতীয় নারী তাদের বিরুদ্ধে ঘটে যাওয়া যৌন হেনস্তার ঘটনা প্রকাশ করতে শুরু করেছেন। তাদের মুখ খোলার ফলে একে একে অনেক বড় বড় নাম আলোয় চলে আসছে যাদের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্তার অভিযোগ তোলা হয়েছে। 

যৌন হেনস্তাকারীর তালিকায় আছেন অনেক নামীদামী পরিচালক, রাজনীতিবিদ থেকে শুরু করে সাংবাদিক, অভিনেতা ও কমেডিয়ান। এবার এই তালিকায় যুক্ত হয়েছে ক্রিকেটারদের নাম। 

যৌন হেনস্তাকারীদের তাকিলায় ক্রিকেটারদের নাম এর আগেও এসেছিল। শেন ওয়ার্ন, ক্রিস গেইলদের নাম যদিও #মিটু আন্দোলনের অংশ ছিল না। এই তালিকা আরও দীর্ঘ হবে কিনা তা সময়ই বলে দেবে। তবে অবস্থাদৃষ্টে মনে হচ্ছে আরও কয়েকজন রথী-মহারথী ফাঁসতে চলেছেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৮০০ ঘণ্টা, অক্টোবর ১১, ২০১৮
এমএইচএম

Phone: +88 02 8432181, 8432182, IP Phone: +880 9612123131, Newsroom Mobile: +880 1729 076996, 01729 076999 Fax: +88 02 8432346
Email: news@banglanews24.com , editor@banglanews24.com
Marketing Department: 01722 241066 , E-mail: marketing@banglanews24.com

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

কপিরাইট © 2018-10-16 01:25:37 | একটি ইডব্লিউএমজিএল প্রতিষ্ঠান